× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিপ্রবাসীদের কথাবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা ইলেকশন কর্নার
ঢাকা, ১৩ ডিসেম্বর ২০১৮, বৃহস্পতিবার

শৈলকুপায় ছাত্রী নিয়ে উধাও কোচিং শিক্ষক

বাংলারজমিন

ঝিনাইদহ প্রতিনিধি | ১৬ এপ্রিল ২০১৮, সোমবার, ৯:৩১

নববর্ষের দিন কোচিংয়ের ছাত্রী নিয়ে উধাও হয়েছেন সাচ্চু হোসেন নামে এক কোচিংয়ের শিক্ষক। শনিবার সন্ধ্যায় ঝিনাইদহ সদর উপজেলার জিতড় গ্রামে নানা বাড়ি বেড়াতে গেলে কোচিংয়ের শিক্ষক নূপুর রানী পাল নামে এক দশম শ্রেণির ছাত্রীকে নিয়ে উধাও হয়। জানা গেছে শৈলকুপার বাগুটিয়া জিসি মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের দশম শ্রেণির ছাত্রী নূপুর রানী পাল স্থানীয় বকশিপুর কোচিং সেন্টারে প্রাইভেট পড়তো। ওই কোচিং সেন্টারের শিক্ষক বাগুটিয়া গ্রামের রুজদার শেখের ছেলে সাচ্চু হোসেনের সঙ্গে তার প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে। নববর্ষের দিন নূপুর নানা বাড়ি ঝিনাইদহ সদর উপজেলার জিতড় গ্রামে বেড়াতে যায়। সেখান থেকেই সাচ্চু হোসেন হিন্দু ছাত্রীকে নিয়ে নিরুদ্দেশ হন। নূপুর রানী পালের বাবা অশোক চন্দ্র পাল ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে জানান, আমি আমার নাবালিকা মেয়েকে ফেরত চাই। প্রতিবেশী চাচা অরূপ দেব নাথ জানান, আমরা আইনের আশ্রয় নিতে চাই কিন্তু সাচ্চুর পরিবার মেয়েকে ফেরত দিবে বলে সোমবার সকাল পর্যন্ত সময় নিয়েছে।
বিষয়টি নিয়ে শৈলকুপার নিত্যানন্দপুর ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান ও আওয়ামী লীগ নেতা মফিজ উদ্দীন জানান, নূপুর রানীকে সাচ্চুর পরিবার ফিরিয়ে দেয়ার প্রতিশ্রুতি দিয়েছে। সে কারণে আমরা এখনো থানায় মামলা করিনি। তবে আজ (গতকাল রোববার) রাতেই এ বিষয়ে একটি জিডি করবো। ফেরত না পেলে জিডির বুনিয়াদে নিয়মিত মামলা রুজু হবে। নূপুরকে উদ্ধারে আমাদের আন্তরিকতার ঘাটতি নেই বলে তিনি জানান।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর