× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিপ্রবাসীদের কথাবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা ইলেকশন কর্নার
ঢাকা, ১৫ ডিসেম্বর ২০১৮, শনিবার

সোনাইমুড়ীতে চাঁদা না দেয়ায় বসতঘরে ভাঙচুর

বাংলারজমিন

সোনাইমুড়ী (নোয়াখালী) প্রতিনিধি: | ১৭ এপ্রিল ২০১৮, মঙ্গলবার, ৯:১৫

 সোনাইমুড়ী উপজেলাধীন ধন্যপুর গ্রামে চাঁদা না দেয়ায় সন্ত্রাসীরা বসতঘরে ভাঙচুর করেছে। সোমবার সকাল সাড়ে ১১টার দিকে আবু বকর ছিদ্দিক ওরফে খোকন মেম্বারের বাসগৃহে এ ঘটনা ঘটে। ভুক্তভোগী ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, উপজেলার ৮নং সোনাপুর ইউনিয়নের ধন্যপুর গ্রামের আবু বকর ছিদ্দিক ওরফে খোকান মেম্বার ও তার আমেরীকান প্রবাসী ছেলে আবদুল্লাহ আল সাইমুন (২৬)-এর কাছে সন্ত্রাসীরা তিন লাখ টাকা চাঁদা দাবি করে।
তাদের চাঁদা দিতে অস্বীকার করলে গত সোমবার  সকাল সাড়ে ১১টার দিকে মুখোশধারী ৫/৬ জন সন্ত্রাসী বাড়িতে ঢুকে প্রথমে আবদুল্লাহ আল সাইমুন ও ভাতিজা জোবায়ের বীন কাশেমের খোঁজ করে। সাইমুনের স্ত্রী সনিয়া আক্তার তারা দেশে নেই বলে জানালে, সন্ত্রাসীরা ক্ষিপ্ত হয়ে বসতঘরের ভিতর ঢুকে যাবতীয় আসবাবপত্র ভাঙচুর করে। তারা সব মিলিয়ে প্রায় দেড় লাখ টাকার ক্ষতিসাধন করে এবং যাওয়ার সময় আবদুল্লাহ আল সাইমুন ও জোবায়ের বীন কাশেমকে প্রাণনাশের হুমকি দিয়ে সন্ত্রাসী চলে যায়।
খোকান মেম্বার আরো জানান, সন্ত্রাসী হামলা ও প্রাণনাশের হুমকিতে আমার পুরো পরিবার আতঙ্কে রয়েছে। এ বিষয়ে ৮নং সোনাপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মানবজমিনকে জানান, ঘটনাটি শুনে আমি সরজমিন বিষয়ে দেখেছি।
কে বা কারা মুখোশ পরে মেম্বারের বাড়িতে হামলা চালিয়ে তাদের ক্ষতি করেছে, বিষয়টি খুবই দুঃখজনক।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর