× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিপ্রবাসীদের কথাবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা ইলেকশন কর্নার
ঢাকা, ১০ ডিসেম্বর ২০১৮, সোমবার

আর্জেন্টিনা দলে গৃহদাহ

রাশিয়া থেকে

সামন হোসেন, নিজনি নভোগরদ (রাশিয়া) থেকে | ২৩ জুন ২০১৮, শনিবার, ৯:৩৪

নাইজেরিয়ার বিপক্ষে বাঁচা-মরার ম্যাচের আগেই কোচ হোর্হে সাম্পাওলির অপসারণ চান আর্জেন্টিনার খেলোয়াড়রা! গতকাল এমন খবর জানায় আর্জেন্টিনার সংবাদমাধ্যম। নিজনি নভোগরদে ফ্যান জোনে এই প্রতিবেদকের সঙ্গে আলাপকালে আর্জেন্টিনার জ্যেষ্ঠ ক্রীড়া সাংবাদিক লাজ্জিনি বলেন, মেসি-আগুয়েরোরা কোচ হোর্হে সাম্পাওলির অধীনে আর খেলতে চায় না। তারা হোর্হে বুরুশাগাকে কোচ হিসেবে পেতে চায়। আর বিশ্বকাপের গ্রুপ পর্বে নিজের শেষ ম্যাচে নাইজেরিয়ার বিপক্ষে ম্যাচে সহকারী কোচ সেবাস্টিয়ান বেক্কাসিসের অধীনে মাঠে নামতে চায় তারা। গতকাল দলের নির্ধারিত অনুশীলনেও যোগ দেননি আর্জেন্টিনা দলের খেলোয়াড়রা। আর ক্রোয়েশিয়ার বিপক্ষে অসহায় আত্মসমর্পণের পর সংবাদ সম্মেলনে কোচ হোর্হে সাম্পাওলিকে ধুয়ে দেন স্ট্রাইকার সার্জিও আগুয়েরো। ক্রোয়েশিয়ার কাছে ৩-০ গোলে হারের পর এখন গ্রুপ পর্ব থেকে বাদ পড়ার শঙ্কায় গতবারের রানার্সআপ আর্জেন্টিনা। ম্যাচ শেষে ব্যর্থতার সব দায় নিজের কাঁধে নিয়ে ক্ষমা চান কোচ সাম্পাওলি।
ম্যাচটিতে ডিফেন্সে তিনজন রেখে ৩-৪-২-১ ফর্মেশনে একাদশ সাজান তিনি। সাইডবেঞ্চে বসে দলের করুণ পরাজয় দেখেন অ্যাঙ্গেল ডি মারিয়া।
এ নিয়ে ষষ্ঠবার বিশ্বকাপ কভার করছেন আর্জেন্টাইন সাংবাদিক লাজ্জিনি। আর তিনি জানান, ক্রোয়েশিয়ার বিপক্ষে ম্যাচে একাদশ নির্বাচন ও ফরমেশন নিয়ে অখুশি ছিলেন আর্জেন্টিনা দলের খেলোয়াড়রা। ৩-৪-২-১ পদ্ধতির ফুটবলে অভ্যস্ত নন মেসি-আগুয়েরোরা। আর ডি মারিয়াকে শুরুর একাদশে রাখার পক্ষে ছিলেন দলের সিনিয়র খেলোয়াড়রা।
ক্রোয়েশিয়ার বিপক্ষে ম্যাচ শেষে ক্ষুব্ধ আগুয়েরো বলেন, ‘তিনি (সাম্পাওলি) কি চান তাকেই বলতে বলেন। দল ও খেলোয়াড়দের সঙ্গে যা হচ্ছে তার দায় ম্যানেজমেন্টের। ক্রোয়েশিয়ার বিপক্ষে কোনো পরিকল্পনাই কাজে দেয়নি। আমি খুব আশাবাদী ছিলাম। ম্যাচ হারায় খুবই কষ্ট পেয়েছি। আমি নিজেও ম্যাচের কৌশল ঠিকমতো বুঝতে পারিনি।’ ম্যাচের ৫৪তম মিনিটে আগুয়েরোকে তুলে গঞ্জালো হিগুয়েনকে মাঠে নামান সাম্পাওলি। এর এক মিনিট আগে মারাত্মক ভুলে দলের মনোবল ভেঙে দেন গোলরক্ষক উইলি কাবায়েরো। ডিফেন্ডার মার্কাদোকে ব্যাক-পাস দিতে গিয়ে আলতো টোকায় বল তুলে দেন প্রতিপক্ষ খেলোয়াড় আন্তে বেরিচের পায়ে। দুর্দান্ত ভলিতে বল জালে পাঠাতে ভুল করেননি ক্রোয়েশিয়ান উইঙ্গার রেবিচ। ৮০ মিনিটে ডি-বক্সের বাইরে থেকে দর্শনীয় শটে ব্যবধান দ্বিগুণ করেন লুকা মদ্রিচ। ইনজুরি সময়ে তৃতীয় গোলটি করেন মেসির বার্সেলোনা সতীর্থ ইভান রাকিটিচ।
এর আগে ‘ডি’ গ্রুপে নিজেদের প্রথম ম্যাচে আইসল্যান্ডের বিপক্ষে ১-১ গোলের ড্র ম্যাচে পেনাল্টি মিস করেন লিওনেল মেসি। আর ওই ম্যাচ শেষে আর্জেন্টিনায় ‘মিস মেসি’ বলে বিদ্রূপ করেন অনেক সমর্থক। আর্জেন্টাইন সাংবাদিক লাজ্জিনি এই প্রতিবেদককে বলেন, মেসির সঙ্গে আমার এর আগে অনেকবার কথা হয়েছে। সমর্থকদের কথা ভেবেই অবসর ভেঙে সে জাতীয় দলে ফিরেছে। কঠিন সময় পার করে দলকে তুলে এনেছে বিশ্বকাপের মূল পর্বে। কিন্তু সমর্থকদের এমন বিদ্রূপে মেসির ওপর নেতিবাচক প্রভাব পড়েছে। আর ক্রোয়েশিয়ার বিপক্ষে ম্যাচের আগেও তাকে কিছুটা বিমর্ষ লাগছিল।
২০১৭ সালের জুনে আর্জেন্টিনার দায়িত্ব নেন চিলিকে ২০১৫ কোপা আমেরিকা জেতানো আর্জেন্টাইন কোচ সাম্পাওলি। তার অধীনে ১৩ ম্যাচের মধ্যে ৬টিতে জয় পায় আলবিসেলেস্তেরা। ৪ ম্যাচে ড্র ও ৩ ম্যাচে হার দেখেন সাম্পাওলি।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর