× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিপ্রবাসীদের কথাবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা
ঢাকা, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৮, বুধবার
আলাপন

‘প্রথম ছবি মুক্তি পাবে শাকিব ভাইয়ের সঙ্গেই’

বিনোদন

এন আই বুলবুল | ১৩ সেপ্টেম্বর ২০১৮, বৃহস্পতিবার, ১০:১১

জান্নাতুল নাঈম এভ্রিল। মিস ওয়ার্ল্ড বাংলাদেশ প্রতিযোগিতার মধ্য দিয়ে পরিচিতি লাভ করেন। ‘এমনো তো প্রেম হয়’ শিরোনামের একটি নাটকের মধ্য দিয়ে ছোট পর্দায় আসেন তিনি। এই নাটকে এভ্রিল জুটি বাঁধেন জনপ্রিয় অভিনেতা সজলের সঙ্গে। তবে এই গ্ল্যমারকন্যার এখন লক্ষ্য চলচ্চিত্র। চলচ্চিত্র নিয়েই তিনি স্বপ্ন দেখছেন বলে জানান। তার ভাষ্য, আমি চলচ্চিত্রে প্রতিষ্ঠিত হতে চাই। সেই জন্য নিজেকে গড়ে তুলছি। নিয়মিত জিম করছি। দশ কেজি ওজন বাড়াচ্ছি। চলচ্চিত্রে থিতু হওয়ার জন্য যা কিছু প্রয়োজন সব কিছু আমি করতে চাই। নিজেকে প্রস্তুত করেই আমি চলচ্চিত্রে আসছি। এভ্রিলকে কবে চলচ্চিত্রের পর্দায় দেখা যাবে? এই প্রশ্নের উত্তরে তিনি বলেন, আগামী মাসে আমি চলচ্চিত্রের কাজ শুরু করবো। ‘ড্রাগ’ শিরোনামের একটি চলচ্চিত্র দিয়ে আমার বড় পর্দার কাজ শুরু হবে। এটিতে নায়ক কে থাকছেন, আর ছবিটি নির্মাণ করবেন কে-এসব নিয়ে আমি এখন কিছু বলতে চাই না। প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান সংবাদ সম্মেলনের মধ্য দিয়ে এ সম্পর্কে জানাবে। তবে এটি নায়িকানির্ভর একটি ছবি হবে। তাই এই ছবিতে নায়ক মুখ্য নয়। শাকিব খানের বিপরীতে আপনার চলচ্চিত্রে অভিষেক হওয়ার কথা ছিল। এটি সম্পর্কে কি বলবেন? এভ্রিল বলেন, অনেকে ভেবেছিলেন শাকিব ভাইয়ের সঙ্গে ‘শাহেনশাহ’ ছবিতে আমি অভিনয় করবো। কিন্তু সত্যি কথা হচ্ছে, এ ছবিটিতে আমার অভিনয় করার কোনো কথাই ছিল না। বিষয়টি ছিল গুজব। তবে শাকিব ভাইয়ের সঙ্গে আমি অন্য একটি ছবির কাজ অচিরেই শুরু করবো। আর আমার প্রথম ছবি হিসেবে এটিই আগে পর্দায় আসবে। অর্থাৎ অভিনয়ের ক্ষেত্রে ‘ড্রাগ’ আমার প্রথম ছবি। কিন্তু প্রথম ছবি মুক্তি পাবে শাকিব ভাইয়ের সঙ্গেই। এই সময়ে চলচ্চিত্রে প্রতিষ্ঠিত হওয়া খুব একটা সহজ নয়। প্রতিযোগিতার মধ্য দিয়ে সবাইকে এগিয়ে যেতে হচ্ছে। এছাড়া অনেক নতুন মুখ চলচ্চিত্রে এসে আবার হারিয়ে যাচ্ছে। সেই ক্ষেত্রে এভ্রিল কি ভাবছেন? এই নিয়ে তিনি দৃঢ়চিত্রে বলেন, আমি হারিয়ে যাওয়ার জন্য আসছি না। আবার অন্য কারো সঙ্গে প্রতিযোগিতায়ও নামবো না। আমার নিজের সঙ্গে নিজের প্রতিযোগিতা হবে সব সময়। আমি নিজেকে কতটুকু ভেঙ্গে গড়তে পারি সেই চেষ্টাই থাকবে। এদিকে এবার ঈদে এভ্রিল ইউনিসেফের একটি তথ্যচিত্রে কাজ করেছেন। রোহিঙ্গা শিশুদের ওপর এটি নির্মিত হয়েছে। ২১শে থেকে ২৬শে আগস্ট ‘ব্লুসমস-ফরম অ্যাশ’ শিরোনামের এই তথ্যচিত্রের দৃশ্যধারণ হয়। ইউনিসেফের কর্মকর্তারা এভ্রিলের কাজের প্রশংসা করেছেন। আগামীতেও ইউনিসেফ এভ্রিলকে নিয়ে কাজ করবে বলে জানান তিনি। এভ্রিল আরো বলেন, এই কাজটি আমার জন্য অনেক বড় এটি পাওয়া ছিল। এর মধ্য দিয়ে খুব কাছ থেকে রোহিঙ্গা শিশুদের দেখেছি। তাদের সঙ্গে ঈদ কাটালাম। এই ধরনের কাজ করতে আমি স্বাচ্ছন্দ্যবোধ করি। অন্যদিকে গেল ঈদে এভ্রিল ‘খেলতাসি’ শিরোনামের একটি টেলিছবিতে অভিনয় করেন। এটি নির্মাণ করেছেন নোমান রবিন। ছোট পর্দায় কাজ সম্পর্কে জানতে চাইলে তিনি বলেন, ভালো গল্প ও চরিত্রে আমি অভিনয় করতে চাই। সেই কারণে অল্প সংখ্যক নাটকে আমাকে সবাই পাচ্ছেন। শোবিজের কাজের বাইরে এভ্রিলকে সামাজিক কর্মকান্ডেও পাওয়া যায়। বাল্য বিবাহরোধ নিয়ে কাজ করছেন তিনি। বাল্য বিবাহের কারণে কারণে বাংলাদেশ মিস ওয়ারর্ল্ডের খেতাব থেকে বাদ দেওয়া হয় তাকে। তবে এনিয়ে তার কোনো দু:খ নেই বলেও জানান তিনি। বাল্যবিবাহ রোধ নিয়ে এভ্রিলের বর্তমান পরিকল্পনা কি? তিনি বলেন, বাল্যবিবাহ রোধ নিয়ে আমি অবশ্যই কাজ করবো। তবে আমি এখন আমাকে আরো একটু গুছিয়ে নিতে চাই। আমার জার্নি বেশি দিনের নয়। আমি নিজে যদি ঠিক থাকতে না পারি তাহলে কাজ করা সম্ভব হবে না। বাল্যবিবাহ রোধ করা আমার একটি স্বপ্ন।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর