× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিপ্রবাসীদের কথাবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা
ঢাকা, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৮, বুধবার

সরকার নির্ধারিত বেতন-ভাতা প্রত্যাখান করে পোশাক শ্রমিকদের বিক্ষোভ

অনলাইন

অনলাইন ডেস্ক | ১৪ সেপ্টেম্বর ২০১৮, শুক্রবার, ৪:৫৩

সরকার নির্ধারিত বেতন-ভাতা প্রত্যাখান করে পোশাক কারখানার শ্রমিকরা বিক্ষোভ করেছে। আজ শুক্রবার জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে বেলা সাড়ে ১১টার দিকে তারা এ বিক্ষোভ কর্মসূচি পালন করে। এসময় তারা সরকার নির্ধারিত মাসিক বেতন-ভাতা ৮ হাজার থেকে ১৬ হাজার করার দাবিতে রাস্তা অবরোধ করে। এসময় রাস্তায় ব্যাপক যানজটের সৃষ্টি হয়।

এসময় গার্মেন্টস শ্রমিক ট্রেড ইউনিউন কেন্দ্রের শ্রমিক নেতারা বলেন, সরকার তাদের দাবি না মানলে তারা কঠোর আন্দোলনে যাবে। পরে তারা একটি মিছিল বের করে।

সিপিবি’র মুজাহিদুল ইসলাম সেলিম এসময় তাদের আন্দোলনে সংহতি প্রকাশ করে বলেন, নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্রব্যেও দাম বিবেচনা করলে গার্মেন্টস শ্রমিকদের নূন্যতম মজুরি ২১ হাজার টাকা হওয়া উচিৎ। এটা মেনে নেয়া যায় যে, একজন সরকারি পরিচ্ছন্নতাকর্মীর মাসিক বেতন ১৭ হাজার টাকা, অপরপক্ষে গার্মেন্টস-এর শ্রমিকদের বেতন ৮ হাজার টাকা।

গার্মেন্টস শ্রমিক ট্রেড ইউনিয়নের সাধারণ সম্পাদক জলি তালুকদার বলেন, বর্তমান সরকার হচ্ছে মালিক বান্ধব সরকার। সরকারের উচিৎ সাড়ে ৫ হাজার মালিকদের দাবি না মেনে ৪০ লক্ষ গার্মেন্টস শ্রমিকের দাবি মেনে নেয়া।  
এর আগে গতকাল শ্রম ও কর্মসংস্থান মন্ত্রী মুজিবুল হক চুন্নু তার দপ্তরে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে শ্রমিকদের এ বেতন-ভাতার কথা ঘোষণা করেন।    
 

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর