× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিপ্রবাসীদের কথাবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা
ঢাকা, ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৮, রবিবার

আয়ের খাতায় বার্সেলোনাকে ছাড়িয়ে রিয়াল

খেলা

স্পোর্টস ডেস্ক | ১৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮, শনিবার, ৯:৪১

গত মৌসুমের প্রকাশিত খসড়া রাজস্ব আয়ে চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী বার্সেলোনাকে পেছনে ফেলেছে রিয়াল মাদ্রিদ। ৭৪৮.০৪ মিলিয়ন ইউরো আয় করে লস ব্লাঙ্কসরা। বাংলাদেশি মুদ্রায় ৭ হাজার ৩২৬ কোটি ৪৪ লাখের বেশি। বার্সার রাজস্ব আয় ধরা হয়েছে ৬৮৬ মিলিয়ন ইউরো। নেইমার ও অন্য ট্রান্সফার ফি থেকে ২২৭ মিলিয়ন ইউরো পকেটে পুরে কাতালানরা। অন্যদিকে মোরাতাকে বিক্রি করে ৫৪.২১ মিলিয়ন ইউরো পায় রিয়াল। আন্তর্জাতিক প্রতিযোগিতা ও প্রীতি ম্যাচের আয় থেকে পার্থক্য গড়ে দেয় ইউরোপিয়ান চ্যাম্পিয়নরা। ইউয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লীগ ৮৫.৪৬ মিলিয়ন ইউরো, স্প্যানিশ সুপার কাপ ও ক্লাব বিশ্বকাপ থেকে ৪ মিলিয়ন ইউরো এবং গ্রীষ্মকালীন সফর থেকে আসে ১৮.৫৪ মিলিয়ন ইউরো। টেলিভিশন স্বত্ব্ব থেকে রিয়ালের অ্যাকাউন্টে জমা হয় ১৭৮.৪ মিলিয়ন ইউরো। সবচেয়ে বেশি ২৯৭ মিলিয়ন ইউরো আসে বিপণন (মার্কেটিং) খাত থেকে। গত মৌসুমে স্পন্সর এডিডাস থেকে ২৬ মিলিয়ন ইউরো রাজস্ব আয় হয়।  জার্মান ব্র্যান্ডটির সঙ্গে নতুন বড় চুক্তির ব্যাপারে আলোচনা করছে রিয়াল। সান্তিয়াগো বার্নাব্যু ভেন্যু সংস্কার করতে চান রিয়াল সভাপতি ফ্লোরেন্তিনো পেরেজ। ৫৫০ মিলিয়ন ইউরো ঋণ নিতে আলোচনা চলছে। প্রাথমিকভাবে আইএফআইসি (ইন্টারন্যাশনাল পেট্রোলিয়াম ইনভেস্টমেন্ট কোম্পানি) ফান্ড থেকে ৪০০ মিলিয়ন ইউরো নিশ্চিত করা হয়েছে। ট্রেনিং গ্রাউন্ড ভালদেবেদাস সংস্কারের জন্যও স্পন্সর খুঁজছে রিয়াল। মূল স্পন্সর প্রতিষ্ঠান এমিরেটস’র সঙ্গে চুক্তি নবায়ন ইস্যুতে তা বিলম্বিত হচ্ছে। মাঠের খেলার সাফল্যে খেলোয়াড়দের বোনাসও বেড়েছে। গত মৌসুমে চারটি শিরোপা জিতে ৫৬ মিলিয়ন ইউরো বিতরণ করা হয়। বেতন ও সাইনিং মিলিয়ে খেলোয়াড়দের পেছনে রিয়ালের ব্যয় ৫৩৪ মিলিয়ন ইউরো। যা মোট বাজেটের ৭১%। বার্সেলোনার ৮৪%।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর