× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিপ্রবাসীদের কথাবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা ইলেকশন কর্নার
ঢাকা, ১৬ ডিসেম্বর ২০১৮, রবিবার

হামহাম জলপ্রপাতে ডুবে রুয়েট ছাত্রের মৃত্যু

শিক্ষাঙ্গন

মৌলভীবাজার প্রতিনিধি | ২৯ সেপ্টেম্বর ২০১৮, শনিবার, ৫:৩২

মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জ উপজেলার হামহাম জলপ্রপাতে বেড়াতে গিয়ে রাজশাহী প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের ১ম বর্ষের এক ছাত্র পানিতে ডুবে মারা গেছেন। এসময় তাকে উদ্ধার করতে গিয়ে আহত হয়েছেন আরো একজন। তাকে মৌলভীবাজার ২৫০ শয্যা হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। আজ শনিবার সকাল ১১টার দিকে এ দুর্ঘটনাটি ঘটে। পানিতে ডুবে মারা যাওয়া শিক্ষার্থীর নাম আসিফ করিম রেজা (২০)। তার বাড়ি কুমিল্লায় হলেও তার পরিবার রাজধানীর যাত্রবাড়ীতে থাকেন।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, রাজশাহী প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের মেক্যানিকাল ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের ৭ জন শিক্ষার্থী আজ সকালে মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জ উপজেলার হামহাম জলপ্রপাতে বেড়াতে যান। এসময় তাদের সাথে ছিলেন স্থানীয় এক গাইড আব্দুল করিম।


৭ শিক্ষার্থীর একজন সাইফ মৌলভীবাজার ২৫০ শয্যা হাসপাতালে অবস্থানকালে এ প্রতিবেদককে জানান, আমরা সকালের দিকে কমলগঞ্জ থেকে একটি জিপ ভাড়া করে হামহাম জলপ্রপাতের দিকে যাই। সেখানে সকাল ৯টার দিকে পৌঁছার পর আমাদের গাইডের কাছ থেকে জানতে পারি জলপ্রপাতের নিচে পানি বেশি নেই। এ কারণে ঝরণার ঠিক নিচে যেতে চাই আমরা। যখন আমি ও আমার ২ বন্ধু ঝরণার কাছাকাছি যাই, তখন সেখানে ঠাঁই পাইনি। আমরা কেউ সাঁতার জানিনা। আমাকে একসময় এক বন্ধু একটি লাটি দিয়ে টেনে উদ্ধার করে। দিগন্তকে আমাদের গাইড উদ্ধার করে। কিন্তু রেজা পানিতে ডুবে যায়। তাকে উদ্ধার করে কমলগঞ্জ স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে আসলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

পরে সেখান থেকে তার লাশ মৌলভীবাজার ২৫০ শয্যা হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। এদিকে পানিতে ডুবে গুরুতর আহত আসিফ চৌধুরী দিগন্তকে (২০) মৌলভীবাজার ২৫০ শয্যা হাসপাতালে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে।
সাইফ আরো জানান, নিহত আব্দুল করিম রেজার পরিবারে সংবাদ পাঠানো হয়েছে। পরিবারের লোকজন আসলেই লাশ নিয়ে যাওয়া হবে।

মৌলভীবাজার মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা সুহেল আহম্মদ ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, নিহতের সুরতহাল সম্পন্ন করা হয়েছে। পরিবারের সদস্য আসার পর প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর