× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিপ্রবাসীদের কথাবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা
ঢাকা, ১৬ অক্টোবর ২০১৮, মঙ্গলবার

খালেদা-তারেকের নাম না বলায় আমার বিরুদ্ধে সাজা: বাবর

অনলাইন

স্টাফ রিপোর্টার | ১০ অক্টোবর ২০১৮, বুধবার, ৪:২৬

২১শে আগষ্ট গ্রেনেড হামলা মামলার রায় শুনার পর মৃত্যুদন্ড  প্রাপ্ত বিএনপি-জামায়াত জোট সরকারের স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী লুৎফুজ্জামান বাবর অসন্তোষ প্রকাশ করে বলেন, এই মামলায় বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া ও তার ছেলে তারেক রহমানের নাম না বলায় তাকে এ মামলায় আসামি করা হয়েছে। আজ নাজিমউদ্দিন রোডের পুরনো কেন্দ্রীয় কারাগারের পাশে বিশেষ আদালতে রায় ঘোষণার আগে লুৎফুজ্জামান বাবরকে কড়া নিরাপত্তায় আদালতে নিয়ে আসা হয়। রায়ের সময় তিনি কাটগড়ায় ছিলেন। রায়ের পর তিনি বলেন, এই মামলায় খালেদা জিয়া ও তারেকের নাম না বলায় আমাকে জড়ানো হয়েছে। তিনি আরো বলেন, আমাকে মিথ্যা অভিযোগে সাজা দেয়া হয়েছে। যারা মিথ্যা অভিযোগে আমাকে সাজা দিয়েছে তাদের বিচার আল্লাহ একদিন করবেন।

প্রসঙ্গত, ২১শে আগষ্ট গ্রেনেড হামলা মামলার রায়ে লুৎফুজ্জামান বাবরসহ ১৯ জনকে মৃত্যুদন্ড ও বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানসহ ১৯ জনকে  যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিয়েছেন ঢাকার দ্রুত বিচার ট্রাইব্যুনালের বিচারক শাহেদ নূর উদ্দিন।  মামলার অন্য আসামিদের বিভিন্ন মেয়াদে সাজা দেয়া হয়েছে।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
পাঠকের মতামত
**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।
kazi
১০ অক্টোবর ২০১৮, বুধবার, ৯:১৩

Tareq is already accused. So it wasn'tnecessary that you have been punished for not telling their name. You are accused because you were part of members in plot of killing mission. People also believe so.

অন্যান্য খবর