× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিপ্রবাসীদের কথাবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা ইলেকশন কর্নার
ঢাকা, ১১ ডিসেম্বর ২০১৮, মঙ্গলবার

বাংলাদেশের ‘অস্বস্তি’ কাটালেন ট্রেন্ট বোল্ট

খেলা

স্পোর্টস ডেস্ক | ১১ অক্টোবর ২০১৮, বৃহস্পতিবার, ৯:১৬

ফাস্ট বোলার হিসেবেই পরিচিত ট্রেন্ট বোল্ট। প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটে ব্যাট হাতে ক্যারিয়ারে তার একমাত্র অর্ধশতকটি ছিল বাংলাদেশের বিপক্ষে। ২০১৩’র চট্টগ্রাম টেস্টে এগারো নম্বরে ব্যাট হাতে হার না মানা ৫২ রানের ইনিংস খেলেছিলেন নিউজিল্যান্ডের এ ক্রিকেটার। এবার বাংলাদেশের অস্বস্তির এ রেকর্ডে ঘষামাজা করলেন ট্রেন্ট বোল্ট। বুধবার প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটে নিজের সর্বোচ্চ রানের ইনিংস খেললেন এ কিউই তারকা। ঘরোয়া প্লাঙ্কেট শিল্ড আসরে ট্রেন্ট বোল্ট ৩৭ বলে করেন ৬১ রান। ওটাগোর বিপক্ষে ম্যাচে বোল্ট যখন ব্যাট হাতে ক্রিজে যান তখন ৫৯/৮ সংগ্রহ নিয়ে ধুঁকছে তার দল নর্দার্ন ডিস্ট্রিক্ট। তবে বোল্টের দৃঢ়তায় ১৩৬ রানে পৌঁছে নর্দার্ন ডিস্ট্রিক্ট।
ওটাগোর অফস্পিনার  মার্ক ক্রেইগের এক ওভারে বোল্ট নেন ২৮ রান। ২০১৩’র চট্টগ্রাম টেস্টে কেন উইলিয়ামসন ও আট নম্বর ব্যাটসম্যান বিজে ওয়াটলিংয়ের সেঞ্চুরিতে প্রথম ইনিংসে ৪৬৯ রানে অলআউট হয় কিউইরা। এগারো নম্বরে ব্যাট হাতে ১৪৭ বলে ৫২ রান করেন বোল্ট। জবাবে মুমিনুল হক ও সোহাগ গাজীর সেঞ্চুরিতে বাংলাদেশের সংগ্রহ পৌঁছে ৫০১ রানে। মুমিনুল ১৮১ ও আট নম্বরে ব্যাট হাতে সোহাগ গাজী খেলেন হার না মানা ১০১ রানের ইনিংস। প্রথম ইনিংসে দুই উইকেটের পর দ্বিতীয় দফায় বল হাতে ৬৬ রানে ছয় উইকেট নেন ম্যাচ সেরা খেলোয়াড় সোহাগ গাজী। আর ড্র নিয়ে খেলা শেষ করে দু’দল। ক্যারিয়ারে দুই বার একই টেস্টে সেঞ্চুরি ও পাঁচ উইকেট শিকারের কীর্তি রয়েছে  সাকিব আল হাসানের। ২০১১তে পাকিস্তানের বিপক্ষে ঢাকা টেস্টে ১৪৪ রানের পর ৭৭ রানে নেন ছয় উইকেট। আর ২০১৪তে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে খুলনা টেস্টে সাকিব ১৩৭ রানের পর  বল হাতে উভয় ইনিংসে দেখান পাঁচ উইকেটের কীর্তি। একই টেস্টে সেঞ্চুরি ও উভয় ইনিংসে পাঁচ উইকেটের এটি ছিল ৩১ বছরে প্রথম ঘটনা। এর আগে ১৯৮৩-তে ভারতের বিপক্ষে এমন কৃতিত্ব দেখান পাকিস্তানি গ্রেট অলরাউন্ডার ইমরান খান। টেস্ট ইতিহাসে এমন কীর্তি রয়েছে আর কেবল একজন ক্রিকেটারের। ভারতেরই বিপক্ষে ১৯৮০’র মুম্বই টেস্টে এমন কীর্তি গড়েন ইংলিশ অলরাউন্ডার ইয়ান বোথাম।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর