× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিপ্রবাসীদের কথাবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা রম্য অদম্য
ঢাকা, ১৮ অক্টোবর ২০১৮, বৃহস্পতিবার

পশ্চিমবঙ্গে পুজো কমিটিতে অনুদান নিয়ে বিতর্কের অবসান

ভারত

কলকাতা প্রতিনিধি | ১১ অক্টোবর ২০১৮, বৃহস্পতিবার, ১০:৪৫

পশ্চিমবঙ্গে পুজো কমিটিগুলিকে সরকারি অনুৃদান দেয়া নিয়ে যে বিতর্ক দেখা দিয়েছিল তাতে শেষপর্যন্ত ইতি টেনে দিযেছে কলকাতা হাইকোর্ট। বুধবার আদালত জনস্বার্থ মামলার আবেদনকারিদের আবেদন খারিজ করে সাফ জানিয়ে দিযেছে, পুজো কমিটিগুলিকে অনুদানের বিষয়টি আদালতগ্রাহ্য বিষয় নয়। কলকাতা হাইকোর্টের ভারপ্রাপ্ত প্রধান বিচারপতি দেবাশিস করগুপ্ত এবং বিচারপতি শম্পা সরকারের ডিভিশন বেঞ্চ বলেছেন, আইনসভার সিদ্ধান্তে আদালত নাক গলাবে না। ওই বিষয়টি দেখার জন্য পাবলিক অ্যাকাউন্টস কমিটি রয়েছে। যদি কোনও সমস্যা থেকে থাকে, সেই বিষয়টি পাবলিক অ্যাকাউন্টস কমিটি দেখবে । অবশ্য হাইকোর্টই গত ৫ অক্টোবর এই অনুদানের প্রশ্নে স্থগিতাদেশ জারি করেছিল। পরে তা বৃহষ্পতিবার পর্যন্ত বাড়িয়ে দিয়েছিল। তবে আদালতের এদিনের রায়ের পর রাজ্য সরকারের পক্ষে পুজো কমিটিগুলিকে অনুদান দিতে আর কোরও অসুবিধা হবে না।
গত মাসে  রাজ্যের প্রায় ২৮ হাজার পুজো কমিটির প্রত্যেককে দশ হাজার রুপি করে মোট ২৮ কোটি রুপি অনুদান দেয়ার কথা ঘোষণা করেছিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। জনগণের করের টাকা এ ভাবে অনুদান হিসাবে দেয়া যায় কি না তা নিয়ে প্রশ্ন তুলে কলকাতা হাইকোর্টে জনস্বার্থ মামলার আবেদন জানানো হয়েছিল। আবেদনকারিার আরও বলেছিলেন, দুর্গাপুজোয় বিশেষ একটি ধর্মীয় সম্প্রদায়কে অনুদান দিলে তা দেশের সংবিধানকে আঘাত করে। কারণ, বিশেষ কোনও ধর্মীয় সম্প্রদায়কে এমন অনুদান দিয়ে উৎসাহিত করা সংবিধান-বিরোধী।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
পাঠকের মতামত
**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।
kazi
১০ অক্টোবর ২০১৮, বুধবার, ৯:৫৫

এর আগে ইমাম ভাতা নিয়ে আদালত তা অবৈধ বলে রায় দিয়ে ছিল। এখন বলছে আদালতের বিষয় নয়। পক্ষপাত দুষ্ট রায়।

অন্যান্য খবর