× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিপ্রবাসীদের কথাবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা ইলেকশন কর্নার
ঢাকা, ১৯ ডিসেম্বর ২০১৮, বুধবার

ছাত্রদল নেতা নয়নকে সাদা পোশাকে তুলে নেয়ার অভিযোগ

দেশ বিদেশ

স্টাফ রিপোর্টার | ১২ অক্টোবর ২০১৮, শুক্রবার, ৯:৫০

উচ্চ আদালত থেকে বের হওয়ার পর ছাত্রদল ঢাকা মহানগর পূর্বের সাংগঠনিক সম্পাদক রবিউল ইসলাম নয়নকে আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর পরিচয়ে সাদা পোশাকে তুলে নেয়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে। গতকাল বিকাল সাড়ে ৪টার দিকে উচ্চ আদালত থেকে মোটরসাইকেলযোগে বের হতেই এই ছাত্রদল নেতাকে একটি মাইক্রোবাসে তুলে নিয়ে যাওয়া হয়। জাতীয়তাবাদী ছাত্রদল কেন্দ্রীয় সংসদ এ অভিযোগ করেছে। আলাদা বিবৃতিতে ছাত্রদল নেতা রবিউল ইসলাম নয়নকে অবিলম্বে মুক্তি দেয়ার দাবি জানিয়েছেন বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী ও ছাত্রদল কেন্দ্রীয় সংসদ। গণমাধ্যমে পাঠানো এক বিবৃতিতে ছাত্রদল সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক বলেন, আওয়ামী লীগের ছোবল থেকে দেশকে রক্ষা করতে ও খালেদা জিয়াকে মুক্ত করতে ছাত্রদল নেতাকর্মীরা যখন লড়াই করছে, তখন কোন কারণ ছাড়াই তাদেরকে গ্রেপ্তার, হামলা ও বানোয়াট মামলা দিয়ে হয়রানি করছে এই অবৈধ সরকার। নেতৃদ্বয় বলেন, রবিউল ইসলাম নয়ন একজন পরীক্ষিত ছাত্রনেতা। এর আগেও গ্রেপ্তার করে তাকে নির্যাতন করা হয়েছে। কিন্তু কোনো কিছুতেই তাকে দমানো যায়নি।
তাই কোন কারণ ছাড়াই তাকে আবারও গ্রেপ্তার করা হয়েছে। এভাবে গ্রেপ্তার করে দমন পীড়ন চালিয়ে ছাত্রদলকে বিজয়ের রাস্তা থেকে দূরে সরানো যাবে না। নেতৃদ্বয় অবিলম্বে রবিউল ইসলাম নয়নের মুক্তি দাবি করেন। এদিকে ছাত্রদলের সহ-সভাপতি আলমগীর হাসান সোহান বলেন, হাইকোর্ট থেকে  বাসায় ফেরার জন্য বের হন নয়ন। এসময় নয়নকে তুলে নিয়ে গেছে সাদা পোশাকের পুলিশ। ছাত্রদল নেতা নয়নকে আটকের বিষয়ে জানা নেই বলে মন্তব্য করেছেন ডিএমপি’র রমনা জোনের উপ-কমিশনার  মারুফ হোসেন সর্দার। তিনি বলেন, এ বিষয়ে আমার কাছে কেউ অভিযোগ করেনি। উল্লেখ্য, ছাত্রদল নেতা রবিউল ইসলাম নয়নের বিরুদ্ধে প্রায় দেড়শতাধিক  মামলা রয়েছে। বিগত দুদফা আন্দোলনে বেশ কয়েকবার গ্রেপ্তার হয়ে কারাবরণ করেন তিনি।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর