× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিপ্রবাসীদের কথাবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা রম্য অদম্য
ঢাকা, ২৪ অক্টোবর ২০১৮, বুধবার
ধর্ষণের অভিযোগ

গোপন চুক্তিপত্রের ব্যাখ্যা দিলেন রোনালদোর আইনজীবী

খেলা

স্পোর্টস ডেস্ক | ১২ অক্টোবর ২০১৮, শুক্রবার, ৯:৫৭

ধর্ষণের অভিযোগ নিয়ে চলমান অস্বস্তির মধ্যে ক্রিস্টিয়ানো রোনালদোর হয়ে মুখ খুলেছেন তার আইনজীবী পিটার ক্রিস্টিয়ানসেন। তার দাবি, তথ্য বিকৃত করে রোনালদোর বিরুদ্ধে ধর্ষণের অভিযোগ আনা হয়েছে। যুক্তরাষ্ট্রের সাবেক মডেল ক্যাথরিন মায়োরগার সঙ্গে ২০১০ সালে করা রোনালদোর একটি ‘গোপন চুক্তিপত্র’ ফাঁস করে জার্মান সংবাদমাধ্যম ‘ডার স্পেইগেল’। যেখানে রোনালদো ও মায়োরগার সই রয়েছে। এর পরিপ্রেক্ষিতেই এমন ব্যাখ্যা দেন রোনালদোর আইনজীবী। এক বিবৃতিতে ক্রিস্টিয়ানসেন বলেন, ‘২০০৯ সালে লাস ভেগাসে যুক্তরাষ্ট্রের সাবেক মডেল ক্যাথরিন মায়োরগার সঙ্গে যা কিছু হয়েছে তা পারস্পরিক সম্মতিতেই হয়েছে। কোনো ধর্ষণের ঘটনা ঘটেনি।’ রোনালদো সব অভিযোগ তীব্রভাবে অস্বীকার করেছেন বলেও বিবৃতিতে বলা হয়। জার্মান সংবাদমাধ্যমটির ব্যাপারে ক্রিস্টিয়ানসেন বলেন, ‘একটি সংবাদমাধ্যম দায়িত্বজ্ঞানহীনভাবে চুরি করা ডিজিটাল তথ্যাদি নিজেদের মতো করে ব্যবহার করে প্রতিবেদন করেছে।
তথ্যাদির গুরুত্বপূর্ণ অংশ পুরোপুরি পরিবর্তন করা হয়েছে। মুখ বন্ধ রাখতে চুক্তিপত্রের ব্যাপারটি রোনালদো অস্বীকার করছেন না। কিন্তু এর পেছনে যে কারণ ছিল তা বিকৃত করা হয়েছে। এই চুক্তিপত্র কোনোভাবেই দোষীর স্বীকারোক্তি নয়। অভিযোগের নিষ্পত্তি করতে রোনালদো শুধু তার আইনজীবীর কথা শুনেছেন। এখন তিল তিল করে গড়া রোনালদোর সুনাম নষ্ট করার চেষ্টা হচ্ছে। দুর্ভাগ্যক্রমে, যুক্তরাষ্ট্রে এ ধরনের মামলা খুবই স্বাভাবিক।’ খারাপ সময়ে বান্ধবী জর্জিনা রদ্রিগেজকে পাশে পাচ্ছেন রোনালদো। বাচ্চাদের নিয়ে সুইমিংপুলের একটি ভিডিও ইন্সটাগ্রামে আপলোড করেন রদ্রিগেজ। ক্যাপশনে লেখেন, ‘স্পা টাইম...আমাদের মেয়েরা...আমাদের জীবন ক্রিস্টিয়ানো আমরা তোমাকে ভালোবাসি। এর আগে মায়োরগার আইনজীবী লেসলি স্টোভাল দাবি করেন, আরো তিন নারী তার কাছে রোনালদোর বিরুদ্ধে যৌন হয়রানির অভিযোগ করেছেন। তবে কারও নাম প্রকাশ করেননি। গত বছর রোনালদোর বিরুদ্ধে ধর্ষণের অভিযোগ নিয়ে প্রথম খবর প্রকাশ করেন ডার স্পেইগেল। পরে এই খবরকে ভিত্তিহীন বলে ম্যাগাজিনটির বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা নেয়ার হুমকি দেন রোনালদোর আইনজীবী। আর নতুন করে অভিযোগের প্রেক্ষিতে পুনরায় তদন্ত শুরু করে লাস ভেগাস পুলিশ।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর