× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিপ্রবাসীদের কথাবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা ইলেকশন কর্নার
ঢাকা, ২২ নভেম্বর ২০১৮, বৃহস্পতিবার

লায়ন এয়ারের বিমানের গতি নির্নায়ক ছিল অকেজো

বিশ্বজমিন

মানবজমিন ডেস্ক | ৬ নভেম্বর ২০১৮, মঙ্গলবার, ১:৩৪

গত সপ্তাহে ইন্দোনেশিয়ার যাত্রীবাহী লায়ন এয়ারের যে বিমানটি দুর্ঘটনার শিকার হয়েছে সেটিতে ভয়াবহ যান্ত্রিক গোলযোগের তথ্য পাওয়া গেছে। ব্ল্যাক বক্স উদ্ধারের পর জানা গেছে, বিমানটির গতি নির্নয়ের যন্ত্রটি পুরোপুরি নষ্ট হয়ে গিয়েছিল। সর্বশেষ চারটি যাত্রাতেই এ সকল সমস্যা নিয়ে যাত্রা করেছে বিমানটি। গতি নির্নয় করতে না পারায় বিমানের পাইলট বুঝতে পারেননি ঠিক কত গতিতে বিমানটি চলছিল।
লায়ন এয়ারের জেটি ৬১০ বিমানটি ১৮৯জন যাত্রী নিয়ে যাত্রা শুরু করেছিল। রাজধানী জাকার্তা বিমানবন্দর থেকে উড্ডয়নের কিছুক্ষন পরেই সেটি রাডার থেকে হারিয়ে যায়। পরে জানা যায় বিমানটি নিকটস্থ জাভা সাগরে পতিত হয়েছে এবং যাত্রীদের সকলেই নিহত হয়েছেন। সোমবার সাংবাদিক সম্মেলনে ইন্দোনেশিয়ার কর্তৃপক্ষ নিহতদের সজনদের আক্রমনের শিকার হয়েছেন।
তারা প্রশ্ন তুলেছেন, কেনো এত সমস্যা থাকার পরেও বিমানটি উড্ডয়নের অনুমতি দেয়া হল। এখনো দুর্ঘটনার কারণ খুঁজে পাওয়া যায়নি। এ বিষয়ে এক নিহতের আÍীয় নাজিব ফুকোনি বলেন, আমরা জানি এ শোক কত ভয়াবহ। একবার নিজেকে আমাদের স্থানে ভেবে দেখুন। লায়ন এয়ারের মালিক রুসদি কিরন মিটিংয়ে উপস্থিত ছিলেন। এক পর্যায়ে বিক্ষুব্ধ স্বজনরা তাকে উঠে দাড়াতে বললে, তিনি হাত জোর করে ক্ষমা প্রার্থনা করেন।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর