× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিপ্রবাসীদের কথাবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা ইলেকশন কর্নার
ঢাকা, ১৮ নভেম্বর ২০১৮, রবিবার
নারায়ণগঞ্জ-২

আড়াইহাজারে ফ্যাক্টর মমতাজের ক্লিন ইমেজ

ইলেকশন কর্নার

স্টাফ রিপোর্টার, নারায়ণগঞ্জ থেকে | ৯ নভেম্বর ২০১৮, শুক্রবার, ৮:৪৮

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে নারায়ণগঞ্জ-২ (আড়াইহাজার) আসনে দিন-রাত গণসংযোগ অব্যাহত রেখেছেন আওয়ামী লীগের মনোনয়ন প্রত্যাশী বীর মুক্তিযোদ্ধা মমতাজ হোসেন। একই সঙ্গে সরকারের বিভিন্ন উন্নয়নের চিত্র তুলে ধরে সাধারণ মানুষের কাছে নৌকার পক্ষে ভোট চাচ্ছেন তিনি। কেন্দ্রে এবং তৃণমূলের নেতাকর্মীদের সঙ্গেও প্রতিনিয়ত যোগাযোগ রক্ষা করে চলেছেন। স্থানীয় দলীয় নেতাকর্মীরাও দাবি করছেন, ক্লিন ইমেজের কারণে মমতাজ হোসেন নির্বাচনী মাঠে শক্ত অবস্থান গড়ে তুলতে সক্ষম হয়েছেন।

উপজেলার খাগকান্দা এলাকার ভোটার জমির আলী বলেন, মমতাজ হোসেন একজন পরিচ্ছন্ন রাজনীতিবিদ। ক্লিন ইমেজ থাকায় তিনি সবার কাছে প্রিয়মুখ। আর এ কারণে এবার তিনি সুবিধাজনক অবস্থায় রয়েছেন।
এদিকে হাইজাদী এলাকায় ভোটারদের সঙ্গে মতবিনিময়ের সময় মমতাজ হোসেন বলেন, সঙ্গত কারণেই আমার দিকে নেতাকর্মীরা ঝুঁকছেন। আমি তরুণ ও প্রবীণদের মধ্যে একটি সেতুবন্ধন রচনা করতে চাই। আমার জানামতে কারোর মনেই এতটুকু কষ্ট আমি দেয়নি।
আমার মনোনয়ন পাওয়া নিয়ে আড়াইহাজাবাসীর এখন প্রাণের দাবিতে পরিণত হয়েছে। তিনি আরও বলেন, সারা জীবন আমি বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের আদর্শকে লালন করে রাজনীতি করে আসছি। নিজেকে সব সময় পরিচ্ছন্ন রাখার চেষ্টা করেছি। আমার দৃঢ়বিশ্বাস একজন ক্লিনম্যান হিসেবে দল আমাকে মনোনয়ন দেবে। বঙ্গবন্ধু কন্যার নেতৃত্বে সারা দেশে ব্যাপক উন্নয়ন হয়েছে। উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রাখতে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে আবারও প্রধানমন্ত্রী করতে হবে।

উল্লেখ্য, মমতাজ হোসেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে সমাজবিজ্ঞানে এমএ ডিগ্রি লাভ করেন। ১৯৮৭ থেকে ১৯৯৪ পর্যন্ত আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সাবেক ত্রাণ ও সমাজ কল্যাণবিষয়ক সম্পাদকের দায়িত্ব পালন করেন। ১৯৮৬ ও ১৯৯১ সালে জাতীয় সংসদ নির্বাচনে নৌকা মার্কা নিয়ে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেন। ১৯৯৭ থেকে ২০০১ পর্যন্ত তিনি ব্রুনাই দারুসসালামে রাষ্ট্রদূতের দায়িত্ব পালন করেন। এরপর ২০০২ থেকে ২০০৮ পর্যন্ত প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সাবেক বিশেষ সহকারীর দায়িত্ব পালন করেন।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর