× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিপ্রবাসীদের কথাবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা ইলেকশন কর্নার
ঢাকা, ২১ জানুয়ারি ২০১৯, সোমবার
বিএনপি প্রার্থীদের আবেদন

চেম্বার আদালতে শুনানি আজ

এক্সক্লুসিভ

স্টাফ রিপোর্টার | ২৪ ডিসেম্বর ২০১৮, সোমবার, ১০:০৩

প্রার্থিতা ফিরে পেতে হাইকোর্টের স্থগিতাদেশের বিরুদ্ধে আবেদন করেছেন বিএনপির সাতজনসহ অন্যরা। হাইকোর্টের আদেশ স্থগিত চেয়ে আবেদন করছেন তারা। গত ১৮ ও ২০শে ডিসেম্বর বিএনপির সাত প্রার্থীর প্রার্থিতা হাইকোর্টে স্থগিত হলেও তারা চেম্বার জজ আদালতে যেতে পারেননি। কারণ সুপ্রিম কোর্টের উভয় বিভাগে অবকাশকালীন ছুটি চলছে। আজ সোমবার সকাল ১১টায় নির্ধারিত রয়েছে চেম্বার জজ আদালতের সময়সূচি। সেখানে শুনানির পর জানা যাবে তাদের ভাগ্য। এর মধ্যে রয়েছেন ঢাকা-১ আসনের প্রার্থী খন্দকার আবু আশফাক, ঢাকা-২০ আসনের তমিজউদ্দিন আহমেদ, জয়পুরহাট-১ আসনের মো. ফজলুর রহমান, ঝিনাইদহ-২ আসনের অ্যাডভোকেট মো. আবদুল মজিদ, বগুড়া-৭ আসনের মোরশেদ মিলটন, রাজশাহী-৬ আসনের মো. আবু সাঈদ চাঁন, জামালপুর-৪ আসনের মো. ফরিদুল কবির তালুকদার শামীম ও ব্রাহ্মণবাড়িয়া-৪ আসনের ইঞ্জিনিয়ার মো. মোসলেম উদ্দিন। এসব আসনে বিএনপির আর কোনো প্রার্থী নেই।
ফলে তাদের প্রার্থিতা না টিকলে আসনগুলোতে বিএনপি প্রার্থীশূন্য হবে। আইনজীবী ব্যারিস্টার রুহুল কুদ্দুস কাজল জানিয়েছেন, আজ সোমবার আপিল বিভাগের চেম্বার জজ আদালতে এসব আবেদনের ওপর শুনানি হতে পারে। সুপ্রিম কোর্টের বিভিন্ন মামলার সিদ্ধান্ত অনুযায়ী তফসিল ঘোষণার পর কোনো প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থীর বিরুদ্ধে অন্য প্রার্থী রিট করতে পারে না। তারপরও যেহেতু হাইকোর্ট বিভাগ প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থীর আবেদনে বিএনপির প্রার্থিতা স্থগিত করছে প্রতীক বরাদ্দ পাওয়ার পর। এখন নির্বাচন কমিশনের দায়িত্ব এ ব্যাপারে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নেয়া। প্রয়োজনে ওইসব আসনে নির্বাচন স্থগিত করা, যতক্ষণ পর্যন্ত না মামলার রুলের নিষ্পত্তি না হয়। ব্যারিস্টার সানজিদ সিদ্দিকী ঢাকা-২০ আসনে বিএনপি প্রার্থী তমিজ উদ্দিন আহমেদের প্রার্থিতা স্থগিতের হাইকোর্টের আদেশের বিরুদ্ধে লিভ টু আপিল দায়ের করেছেন। গত ১৭ই ডিসেম্বর তমিজ উদ্দিনের মনোনয়ন স্থগিতের হাইকোর্টের আদেশ আপিল বিভাগেও বহাল থাকে। ওইদিন আদালত লিভ টু আপিল দায়ের করতে বলেছিলেন। বগুড়া-৭ আসনে বিএনপি প্রার্থী মোরশেদ মিলটনের মনোনয়ন স্থগিতের হাইকোর্টের আদেশের বিরুদ্ধে এবং একই আসনে আওয়ামী লীগের স্বতন্ত্র প্রার্থী ফেরদৌস আরা খানের প্রার্থী বহালের হাইকোর্টের আদেশ স্থগিত চেয়ে আবেদন করেছেন এ আইনজীবী। গত বৃহস্পতিবার বিচারপতি জে বি এম হাসান ও বিচারপতি মো. খায়রুল আলম সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্টের অবকাশকালীন দ্বৈত বেঞ্চ বিএনপির পাঁচজনসহ সাত প্রার্থীর মনোনয়ন বৈধ ঘোষণার নির্বাচন কমিশনের সিদ্ধান্ত স্থগিত করেন। এর আগে একই বেঞ্চ ঢাকা-১, ঢাকা-২০ আসনে বিএনপি প্রার্থীর প্রার্থিতা স্থগিত করেন।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর