× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিপ্রবাসীদের কথাবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা ইলেকশন কর্নার
ঢাকা, ২২ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, শুক্রবার

ওয়েনে রুনির নারী কেলেঙ্কারি, নির্বাক স্ত্রী কোলিন

বিশ্বজমিন

মানবজমিন ডেস্ক | ১২ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, মঙ্গলবার, ১০:০৫

স্ত্রী, সন্তানদের ফাঁকি দিয়ে পানশালার একজন পরিচারিকার সঙ্গে রাত আড়াইটা পর্যন্ত বার-এ কাটিয়ে আসায় ইংলিশ ফুটবলের সাবেক অধিনায়ক ওয়েনে রুনিকে (৩৩) নিয়ে ব্যাপক সমালোচনা সৃষ্টি হয়েছে। আগেও অনেক ঘটন ঘটিয়ে বেড়ালেও এবার তা ভিন্ন এক মাত্রা পেয়েছে। স্বর্ণকেশী ওই পরিচারিকার সঙ্গে রুনির এমন গোপন অভিসারের কাহিনী প্রকাশ হওয়ার পর দুঃখ, কষ্টে হৃদয় ভেঙে চুরমার হয়ে গেছে তার স্ত্রী কোলিন রুনির (৩২)।

কোলিনের বন্ধুরা এ জন্য ওয়েনে রুনিকে স্বার্থপর বলে আখ্যায়িত করেছেন। তারা বলছেন, রুনি তার স্ত্রীকে বাসায় একজন ন্যানি হিসেবে ব্যবহার করছেন। তাকে ব্যবহার করছেন বাসার কাজের লোকের মতো। গত সপ্তাহে ওই পরিচারিকার উদ্দাম প্রেমে ধরা দেন রুনি। এ সময়ে তিনি স্বপরিবারে গিয়েছিলেন ফ্লোরিডা।
ডিসি ইউনাইটেডের টিমমেটদের সঙ্গে গিয়েছিলেন পানশালায়। সেখান থেকে রুনি বেরিয়ে পড়েন। বগলদাবা করেন যুবতী ভিসি রোজিয়েককে। তার সঙ্গে লাপাত্তা হয়ে যান। একটি বারে ১০ ঘন্টা কাটিয়ে আসেন। এ সময় তাকে মদ পান করতে দেখা যায়। ওই সময়ের ছবি সহ খবর প্রকাশ হয় বৃটিশ মিডিয়ায়। ভক্ত থাকতে পারে, তাই বলে একজন যুবতীর সঙ্গে একটি বারে টানা ১০ ঘন্টা তিনি কি করতে পারেন? এ নিয়ে নানা রকম গসিপ চারদিকে। তবে কি তিনি ওই যুবতীর অবাধ শরীরের আকর্ষণে ঝাঁপ দিয়েছিলেন! এ প্রশ্নের স্পষ্ট উত্তর নেই। আর তা সহ্য করতে হচ্ছে কোলিনকে।

তবে কোলিনের ঘনিষ্ঠ বন্ধুদের মধ্যে একজন এবার মুখ বন্ধ রাখতে পারেন নি। রুনিকে তিনি এবার সেলফিশ বলে আখ্যায়িত করেছেন। বলেছেন, রুনি তার স্ত্রীর অনুভূতির কোনোই মূল্য দেন নি।

একটি সূত্র বলেছেন, প্রত্যেকেই কোলিনের জন্য গভীর দুঃখ প্রকাশ করেছেন। কারণ, তাকে ব্যবহার করা হচ্ছে বাসার কাজের মানুষের মতো। এটা শুনতে খুব নিষ্ঠুর মনে হতে পারে। কিন্তু এ কথাই সত্য। ওয়েনে রুনি এখন একজন নিরর্থক মানুষ। তিনি কোনো কিছুতেই কোলিনকে সহায়তা করেন না। এমন কি নিজে নিজেও তিনি কিছুই করতে পারেন না। পরিবারের জন্য সব কাজ করেন কোলিন। যুক্তরাষ্ট্রে গিয়ে তিনি মনটাকে সতেজ করে ফিরতে চেয়েছিলেন। কিন্তু ঘটনা ঘটেছে উল্টো। কোলিনকে কঠোর পরিশ্রম করতে হয়। কিন্তু এটা স্পষ্ট যে, তাতে কোনো কেয়ার করেন না রুনি। শেষ পর্যন্ত সে বিষয়টি বুঝতে পারছেন কোলিন।

ওদিকে ওয়েনে রুনির এই কেলেঙ্কারি প্রকাশ হওয়ার পর থেকে নিজেকে ‘অবরুদ্ধ’ করে রেখেছেন কোলিন। নিজেকে সবার থেকে দূরে সরিয়ে রেখেছেন। ঘনিষ্ঠ বন্ধুদের কোনো প্রশ্নের উত্তর দিচ্ছেন না। নিজের সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমেও কোনো পোস্ট দিচ্ছেন না।

পরিবারটির খুব ঘনিষ্ঠ একজন বলেছেন, কোলিন রুনি নিজেকে একেবারে নিঃসঙ্গ করে রেখেছেন। যেন নিজের ভিতর নিজে ভেঙে পড়েছেন। যখন তিনি এমন একটি বিব্রতকর অবস্থার সম্মুখীন, তখন কি করে তিনি অন্য মানুষের মুখোমুখি হবেন। ফ্লোরিডার ক্লিয়ারওয়াটার বিচে পরিচারিকা ভিকি রোজিয়েকের সঙ্গে রাত আড়াইটা পর্যন্ত কাটিয়ে আসা ওয়েনে রুনিকে কি করে তিনি মেনে নেবেন!

শোনা যাচ্ছে ওয়াশিংটন ডিসিতে তাদের পারিবারিক বাসস্থানে চার ছেলেকে রেখে ৯০০ মাইল দূরে অবস্থান করছেন কোলিন রুনি। এর আগেও প্রায় দেড় বছর আগে একই রকম ঘটনা ঘটিয়েছেন ওয়েনে রুনি। তিনি চেশায়ারে পার্টি গার্ল হিসেবে পরিচিত লরা সিম্পসনের গাড়িতে ধরা পড়েন।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর