× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিপ্রবাসীদের কথাবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা ইলেকশন কর্নার
ঢাকা, ২৪ মার্চ ২০১৯, রবিবার

১০৬ রান করেও জয় শেখ জামালের ব্যাটে-বলে ‘নায়ক’ জিয়া

খেলা

স্পোর্টস রিপোর্টার | ১৫ মার্চ ২০১৯, শুক্রবার, ৯:১৮

জয়ের জন্য শেষ ১৮ ওভারে প্রয়োজন মাত্র ১৬ রান। হাতে ২ উইকেট। ক্রিজে দাঁড়িয়ে থাকলেও তো ম্যাচটা জিততে পারতো শাইনপুকুর ক্রিকেট ক্লাব! কিন্তু ২৯তম ওভারে এসে তিন বলের ব্যবধানে শাইনপুকুরের বাকি ২টি উইকেট তুলে নিলেন জিয়াউর রহমান। তাতে ১০৬ রানের পুঁজি নিয়েও শেখ জামাল ধানমণ্ডি ক্লাব পেলো ১২ রানের রুদ্ধশ্বাস এক জয়।
গত বুধবার ফতুল্লায় ঢাকা প্রিমিয়ার ডিভিশন ক্রিকেট লীগের (ডিপিএল) ১৪তম ম্যাচে শেখ জামালের জয়ের নায়ক জিয়াউরই। খান সাহেব ওসমান আলী মাঠে ১০ ওভারে মাত্র ২৩ রান দিয়ে ৫ উইকেট নেন ডানহাতি পেস অলরাউন্ডার। লিস্ট-এ ক্রিকেটে এটি তার ক্যারিয়ার সেরা বোলিং ফিগার। এর আগে টি-টোয়েন্টি লীগের সেমিফাইনালে বিধ্বংসী এক ইনিংস খেলে শেখ জামালকে জিতিয়েছিলেন জিয়া।
এবার ব্যাটে-বলে দলকে জিতিয়ে ম্যাচসেরা হলেন তিনি। জিয়ার সর্বোচ্চ ৪১ রানের সুবাদেই ৪৬ ওভারের ম্যাচে ৩৫.১ ওভার ব্যাটিং করে ১০৬ রান তুলতে পেরেছিল শেখ জামাল। জিয়ার পাশাপাশি শেখ জামালের জয়ে বল হাতে অবদান রাখেন বাঁহাতি পেসার সালাউদ্দিন শাকিলও। ৯ ওভারে ২১ রান খরচায় শাকিল নেন ৪ উইকেট। জিয়া-শাকিলের পেসে ১০৭ রানের লক্ষ্যে ব্যাট করতে নেমে ২৯ ওভারে ৯৪ রানে থেমে যায় শাইনপুকুর।
ভারতীয় ক্রিকেটার উদয় কাউলের (১৭) সঙ্গে সাব্বির হোসেনের ৪৬ রানের ওপেনিং জুটির পর মনে হচ্ছিল ম্যাচটা সহজেই জিতে যাবে শাইনপুকুর। কিন্তু সাব্বির (২৬) আউট হওয়ার পরই মড়ক লাগে তাদের ইনিংসে। জিয়া-শাকিলের পেস তোপে আর ৪৮ রান যোগ করেই ১০ উইকেট খুইয়ে নাটকীয়ভাবে হেরে যায় শাইনপুকুর। ডিপিএলে এটি শাইনপুকুরের টানা তৃতীয় হার। অপরদিকে, তিন ম্যাচে দ্বিতীয় জয় পেলো এবারের ঢাকা টি-টোয়েন্টি লীগের চ্যাম্পিয়ন শেখ জামাল।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর