× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিপ্রবাসীদের কথাবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা ইলেকশন কর্নার
ঢাকা, ২০ জুলাই ২০১৯, শনিবার

কান্না থামছে না শিবচরের নিহত জাকিরের স্ত্রীর

এক্সক্লুসিভ

শিবচর (মাদারীপুর) প্রতিনিধি | ১৫ মে ২০১৯, বুধবার, ৯:২৬

দালালদের খপ্পরে জিম্মি হয়ে সাগর পথে লিবিয়া থেকে ইতালি যাওয়ার সময় ট্রলারডুবিতে মাদারীপুরের শিবচরে জাকির হোসেন (২৮) নামের এক যুবক নিহত হয়েছেন। নিহত জাকির হোসেন উপজেলার দত্তপাড়া ইউনিয়নের ৮নং চর গ্রামের সেকান্দার হাওলাদারের ছেলে। পারিবারিক সূত্রে জানা যায়, গত বছর এই দিনে পরিবারের মুখে হাসি ফোটাতে অর্থ উপার্জনের জন্য নূর-নবী খলিফা ও নূর ইসলাম খলিফা নামের দুই দালালের হাত ধরে বিদেশে পাড়ি জমান। নিহত জাকিরকে স্থলপথে তুরস্ক নেয়ার কথা থাকলেও, দালাল চক্র লিবিয়া নিয়ে আটকে রাখে। লিবিয়ায় জাকির হোসেনকে আটক রেখে পরিবার ভয়ভীতি দেখিয়ে বিভিন্ন সময় টাকা দাবি করে।

টাকা দিতে অস্বীকার করলেই ছেলেকে বিক্রি করে দেবে অথবা অনাহারে রাখবে বলে হুমকি দিতে থাকে। এ পর্যন্ত পরিবারের কাছ থেকে প্রায় ৮ লাখ ২০ হাজার টাকা দালাল চক্রের কাছে দেন। গত বৃহস্পতিবার ভূমধ্যসাগরে লিবিয়ার উপকূল থেকে ৭৫ জন অভিবাসী নিয়ে ইতালির উদ্দেশ্যে রওনা হওয়া ট্রলারডুবিতে নিহত হন জাকির হোসেন।
জাকির হোসেনকে হারিয়ে এখন দিশেহারা স্ত্রী সন্তানসহ পরিবারের লোকজন। স্বামীকে হারিয়ে কান্না যেন থামছেই না স্ত্রী শান্তা আক্তারের। অবুঝ দুটি কন্যা সন্তানকে সান্ত্বনা দেয়ার ভাষা নেই পরিবারের লোকজনের। এদিকে সন্তান ট্রলার ডুবিতে নিহত হওয়াকে যেন বিশ্বাসই করতে পারছেনা নিহত জাকিরের বাবা-মামা।

এলাকাবাসী জানান, দালালদের খপ্পরে পরে লিবিয়া হয়ে ইতালি যাওয়ার পথে ট্রলারডুবিতে নিহত জাকির  হোসেনের পরিবারকে সান্ত্বনা দেয়া ভাষা নেই। তবে দালালদের উপযুক্ত শান্তি দাবি করছি। যাতে আর কোন দালালচক্র এরকমভাবে ট্রলার পথে গ্রামের সহজ সরল যুবকদের নিয়ে মৃত্যুর দিকে ঠেলে না দেয়। এসমস্ত দালালদের চরম শাস্তি হোক।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর