× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিপ্রবাসীদের কথাবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা ইলেকশন কর্নার মন ভালো করা খবর
ঢাকা, ১৪ অক্টোবর ২০১৯, সোমবার
চাল চুক্তিতে অনিয়ম

জেলা প্রশাসকসহ ৫ জনের বিরুদ্ধে মামলা

অনলাইন

বড়াইগ্রাম (নাটোর) প্রতিনিধি | ২১ মে ২০১৯, মঙ্গলবার, ৯:২৯

চাল সরবরাহকারী মিলারদের সঙ্গে চুক্তিতে অনিয়মের অভিযোগ এনে নাটোরের জেলা প্রশাসক মো. শাহরিয়াজসহ খাদ্য সংশ্লিষ্ট বিভিন্ন সরকারী দপ্তরের ৫ কর্মকর্তার বিরুদ্ধে মামলা করেছেন বড়াইগ্রামের বঞ্চিত মিল মালিকরা।

আজ বিকেলে নাটোরের বড়াইগ্রাম সহকারী জজ আদালতের বিচারক মো. তারিকুল ইসলাম এর আদালতে এই মামলা দায়ের করা হয়। শুনানী শেষে মামলার বিবাদীদের আগামী ১০ দিনের মধ্যে কারণ দর্শানোর নির্দেশ দেয়া হয়।

মিলারদের পক্ষে মামলা পরিচালনা করেন অ্যাডবোকেট প্রসাদ কুমার তালুকদার। বিবাদী ওই পাঁচ কর্মকর্তা হলেন জেলা প্রশাসক, জেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক, জেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক, বড়াইগ্রাম উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক ও বড়াইগ্রাম উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা।

মামলার এজাহারে বলা হয়, চলতি বছর বড়াইগ্রামে সরকারীভাবে চাল সরবরাহকারী মিলারদের সকল কিছু বিবেচনা করে ৭৮টি মিলকে উপযুক্ত ঘোষণা করে উপজেলা খাদ্য সংগ্রহ কমিটি। তারা চুক্তি সম্পাদনের শর্ত মতে সরকারি কোষাগােের টাকা জমাও দেন। এর মধ্যে চুক্তি করতে ৫৫ জন চাল মিলারের কাগজ জেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রকের কার্যালয়ে পাঠান উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক। এ সময় বাদ দেওয়া হয় ২৩জন মিল মালিককে। একাধিকবার খাদ্য নিয়ন্ত্রকের কার্যালয়ে যোগাযোগ করেও কোন ফলাফল না পেয়ে মঙ্গলবার আদালতের আশ্রয় নেন চাল মিলাররা।

এ ব্যাপারে জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ শাহরিয়াজ বলেন, মামলা দায়েরের বিষয়টি শুনেছি। খোঁজ নিয়ে দেখা হবে বিষয়টি।।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর