× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিপ্রবাসীদের কথাবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা ইলেকশন কর্নার
ঢাকা, ১৭ জুন ২০১৯, সোমবার

এবার ট্রফি জয়ের স্বপ্ন কিউইদের

খেলা

আরিফ বিন আজিজ | ২৩ মে ২০১৯, বৃহস্পতিবার, ৯:৫৭

নিউজিল্যান্ডকে কখনো ফেবারিট বলা হয় না। প্রতিটি টুর্নামেন্টেই তারা ‘ডার্ক হর্স’। তবে গত আসরে ফাইনাল খেলায় একটু ভিন্ন নজরে দেখতে হবে কিউইদের। এবার ট্রফি জয়ের স্বপ্ন নিয়ে ইংল্যান্ড যাচ্ছে তারা। নিউজিল্যান্ডের রয়েছে কেন উইলিয়ামস, রস টেলরের মতো ব্যাটসম্যান আর ট্রেন্ট বোল্ড-টিম সাউদির মতো বোলার। নিজেদের দিনে তারা যে কাউকে হারিয়ে দিতে পারে। বিশ্বকাপে তাদের রেকর্ডও খুব ভালো। একবার ফাইনাল ছাড়াও ছয়বার সেমিফাইনাল খেলেছে কিউইরা।
গত এপ্রিলে দল ঘোষণার পর নিউজিল্যান্ড দলের কোচ গ্যারি স্টেড বলেন, ‘ওয়ানডে দল হিসেবে গত বেশ কয়েক বছর ধরে আমরা বেশ ধারাবাহিক। দলে সুযোগ পাওয়া সব খেলোয়াড়কে অভিনন্দন জানাচ্ছি। বিশ্বকাপের চ্যালেঞ্জ নিতে আশা করি সবাই প্রস্তুত।’
ব্যাটিংয়ে ভরসা যারা
নিউজিল্যান্ড দলে বিশেষজ্ঞ ব্যাটসম্যান মার্টিন গাপটিল, কেন উইলিয়ামসন, রস টেলর ও হেনরি নিকোলস। ৩২ বছর বয়সী ডানহাতি ওপেনার গাপটিল লম্বা ইনিংস খেলতে পারদর্শী। ওয়ানডেতে তার সর্বোচ্চ ইনিংস ২৩৭*। ১৬৭ ওয়ানডে খেলার অভিজ্ঞতা সম্পন্ন এই ব্যাটসম্যান ৪৩.৫১ গড়ে ৬৪৪০ করেছেন। বাংলাদেশের বিপক্ষে সর্বশেষ ওয়ানডে সিরিজে তিন ম্যাচে দুই সেঞ্চুরি হাঁকান গাপটিল। তার ওপেনিং সঙ্গী কলিন মুনরো বিধ্বংসী ব্যাটিংয়ে ইতিমধ্যেই নজর কেড়েছেন। অধিনায়ক কেন উইলিয়ামসন ১৩৯ ম্যাচে ৪৫.৯০ গড়ে ৫৫৫৪ রান করেছেন। ১১ সেঞ্চুরির সঙ্গে রয়েছে ৩৭ হাফসেঞ্চুরি। ৩৫ বছর বয়সী রস টেলর নিউজিল্যান্ডের সেরা ওয়ানডে ব্যাটসম্যান। ২১৮ ম্যাচে ৪৮.৩৪ গড়ে ৮০২৪ রান টেলরের। দেশের হয়ে সর্বাধিক ২০ ওয়ানডে সেঞ্চুরির রেকর্ড তার দখলে। ২০১৮-১৯ মৌসুমে ১৩ ইনিংসে ৬ হাফসেঞ্চুরি ও ১ সেঞ্চুরিতে ৮৫৭ রান করেছেন টেলর। গড় ৮৪.৩৩! ক্যারিয়ারের প্রথম দিকে লোয়ার মিডল অর্ডারে ব্যাট করতেন হেনরি নিকোলস। সম্প্রতি ওয়ান ডাউন ও টু ডাউনে ব্যাটিং করতে দেখা গেছে তাকে। ২৭ বছর বয়সী ডানহাতি এই ব্যাটসম্যান শেষ ১৪ ইনিংসে এক সেঞ্চুরি ও দুই হাফসেঞ্চুরি হাঁকান। ব্যাটিং অর্ডারে নিচের দিকে রয়েছেন অলরাউন্ডার জিমি নিশাম ও কলিন ডি গ্র্যান্ডহোম। দু’জনেই মারকুটে ব্যাটসম্যান হিসেবে সুপরিচিত।
বল হাতে ব্যবধান গড়বে যারা
ট্রেন্ট বোল্ট। একটু সুইং পেলেই বিধ্বংসী হয়ে উঠেন বাঁহাতি এ পেসার।
উইকেটের দু’দিক থেকেই বল করতে পারদর্শী বোল্ট। এখন পর্যন্ত ৭৯ ওয়ানডেতে ১৪৭ উইকেট নিয়েছেন বোল্ট। চলতি বছরে ১০ ম্যাচে তার উইকেট ২১টি। বোল্টের সঙ্গী টিম সাউদি ১৩৯ ম্যাচে নিয়েছেন ১৮৫ উইকেট। আরেক পেসার ম্যাট হেনরি ৪৩ ওয়ানডেতে নিয়েছেন ৭৮ উইকেট। বল হাতে গতির ঝড় তুলবেন লকি ফার্গুসন। ব্রেক-থ্রো দিতে বেশ পটু জিমি নিশাম ও কলিন ডি গ্র্যান্ডহোম। বিশেষজ্ঞ স্পিনার হিসেবে রয়েছেন লেগস্পিনার ইশ সোধি ও বাঁহাতি স্পিনার মিচেল স্ট্যান্টনার। দুজনই গত ৩-৪ বছর ধরে নিয়মিত খেলছেন।
বাকি দলগুলোর বিপক্ষে পরিসংখ্যান
বিশ্বকাপে অস্ট্রেলিয়া, পাকিস্তান ও শ্রীলঙ্কা ছাড়া বাকি দলগুলোর বিপক্ষে নিউজিল্যান্ডের রেকর্ড ভালো। দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে ৭ ম্যাচে ৫ জয়, ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে ৭ ম্যাচে ৪ জয়, ইংল্যান্ডের বিপক্ষে ৮ ম্যাচে ৫ জয়, ভারতের বিপক্ষে ৭ ম্যাচে ৪ জয় পেয়েছে কিউইরা। বাংলাদেশকে ৪ ম্যাচের প্রত্যেকটিতেই হারিয়েছে নিউজিল্যান্ড। তবে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে ১০ ম্যাচে ৭, পাকিস্তানের বিপক্ষে ৮ ম্যাচে ৬  ও শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে ১০ ম্যাচে ৬টিতে হেরেছে নিউজিল্যান্ড।  
কত দূর যেতে পারবে নিউজিল্যান্ড?
ফেবারিট না বললেও নিউজিল্যান্ডকে সেমিফাইনালে দেখছেন অনেকে। তবে রাউন্ড রবিন লীগ পদ্ধতির কারণে শেষ চারে জায়গা পেতে এবার কিউইদের কঠিন লড়াই করতে হবে। বাংলাদেশ, পাকিস্তান, ওয়েস্ট ইন্ডিজ ও শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে ম্যাচগুলোতে নজর থাকবে তাদের।
স্কোয়াড: কেন উইলিয়ামসন (অধিনায়ক), রস টেলর, টম ল্যাথাম, হেনরি নিকোলস, কলিন মুনরো, মার্টিন গাপটিল, টম ব্লান্ডেল, জিমি নিশাম, কলিন ডি গ্র্যান্ডহোম, মিচেল স্যান্টনার, ইশ সোধি, ট্রেন্ট বোল্ট, লকি ফার্গুসন, ম্যাট হেনরি ও টিম সাউদি।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর