× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিপ্রবাসীদের কথাবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা ইলেকশন কর্নার
ঢাকা, ১৮ আগস্ট ২০১৯, রবিবার

বিদ্রোহী মোস্তফা

ষোলো আনা

শাহ্‌ জামাল, ভেড়ামারা (কুষ্টিয়া) থেকে | ২৫ মে ২০১৯, শনিবার, ৯:৪৫
নজরুল সংগ্রহশালায়-ছেলের সঙ্গে মোহাম্মদ মোস্তফা

আমি মানি না কো কোন আইন,
আমি ভরাতরি করি ভরা ডুবি,
আমি টর্পেডো,
আমি ভীম ভাসমান মাইন।
আমি ধূর্জটি, আমি এলোকেশে ঝড় অকাল বৈশাখীর।
আমি বিদ্রোহী, আমি বিদ্রোহী সুত বিশ্ব বিধাতৃর।
বল বীর, বল উন্নত মম শির।

বিদ্রোহী কবি কাজী নজরুল ইসলামের বিখ্যাত এই কবিতাটিই বিদ্রোহী পরিচিতি এনে দিয়েছে মোহাম্মদ মোস্তফার। ব্যবসায়ী মোস্তফা এখন বন্ধু মহলে পরিচিত বিদ্রোহী মোস্তফা হিসেবে। বিভিন্ন সভা, সেমিনার আর বিনোদনমূলক কোনো অনুষ্ঠানে বিদ্রোহী মোস্তফা কাজী নজরুলের বিদ্রোহী কবিতাটি আবৃত্তি করবেনই।

নজরুল প্রেমিক মোহাম্মদ মোস্তফা। কুষ্টিয়ার ভেড়ামারার হানিফ হার্ডওয়ারের স্বত্বাধিকারী।
ছাত্র জীবনেই বিদ্রোহী কবির জীবনী এবং লেখাগুলো তাকে অনুপ্রাণিত করতো। দুখু মিয়ার জীবন চরিত্রে দারিদ্র্যকে জয় করে নজরুল যেমন হয়ে উঠেছিলেন জগদ্বিখ্যাত, তেমনি মোস্তফাও দরিদ্রতাকে জয় করে পেয়েছেন সামাজিকভাবে সম্মান। নজরুল সরল মনে সাহসী উচ্চারণ করে সমাজের নানা অসঙ্গতি, অনাচার, অত্যাচারের বিরুদ্ধে লড়াই করে গেছেন। ব্রজমুষ্টিতে সমাজকে বদলে দিতে চেয়েছিলেন। নজরুলের এই জীবন বোধেই কবির ভক্ত হয়ে যান কিশোর মোস্তফা। তার কবিতা, জীবনশৈলী- সব কিছুই প্রবলভাবে নাড়া দিতো মোস্তফাকে। বিদ্রোহী, কাণ্ডারী হুঁশিয়ার, কারবালা, কারার ওই লৌহ কপাট, কুলি মুজুর, সর্বশক্তিমান, সৃষ্টি সুখের উল্লাসেসহ নজরুলের প্রায় ৩০টি কবিতা তার মুখস্থ। জীবনের সব ক্ষেত্রে তিনি ধারণ করেছেন নজরুলকে। ১০ বছর ধরে তার ব্যবহৃত মোবাইলের রিংটোনে বিদ্রোহী কবিতা ‘কারার ওই লৌহ কপাট’। চলাফেরা এবং ব্যবসা বাণিজ্যে সর্বত্রই নজরুলের আদর্শ প্রচারে ব্যস্ত তিনি।

তিনি নিজবাড়িতেই স্থাপন করেছেন নজরুল সংগ্রহশালা। সংগ্রহশালায় রয়েছে দুখু মিয়ার ছবিসহ নজরুলের বিভিন্ন বয়সের ছবি। জনপ্রিয় কবিতার মূল অংশ উল্লেখ করে একাধিক ছবি, নজরুলের জীবনী, বই এবং ক্রেস্ট। সংগ্রহশালাতেই স্থানীয় লোকদের সঙ্গে নিয়ে বিগত ১০ বছর ধরে পালন করেন নজরুল জন্মবার্ষিকী। এ বছরও বর্ণাঢ্য আয়োজনে পালিত হচ্ছে নজরুলের জন্মবার্ষিকী।

কথা হয় নজরুল প্রেমিক মোস্তফার সঙ্গে। তিনি বলেন, বিদ্রোহী কবি নজরুল ইসলামই আমার জীবনের আদর্শ। আমার জীবনের প্রতিটি ক্ষেত্রেই আমি ধারণ করেছি নজরুলকে। বিগত ১০ বছর ধরে নজরুলের জন্মবার্ষিকী আমার বাড়িতে ধুমধামের সঙ্গে পালন করে আসছি। আমার বাড়ির একটি কক্ষে স্থাপন করেছি নজরুল সংগ্রহশালা। তিনি আরো বলেন, প্রিয় কবির কবিতার মূল বিষয়বস্তু ছিল মানুষের ওপর মানুষের অত্যাচার এবং সামাজিক অনাচার ও শোষণের বিরুদ্ধে সোচ্চার প্রতিবাদ। মানুষ হয়ে মানুষের কল্যাণে কীভাবে লড়ে যেতে হয় নজরুল তা শিখিয়েছেন। মোস্তফার কবি ভক্তিতে এখন পুরো পরিবার নজরুল-ভক্ত। ৫ সদস্যের পরিবারের সবার মুখেই শোভা পায় নজরুলের কবিতা।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
পাঠকের মতামত
**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।
মিমি
২৪ মে ২০১৯, শুক্রবার, ৮:৫১

লেখাটা খুবই সুন্দর হয়েছে।যে লিখেছে তাকে ধন্যবাদ।

অন্যান্য খবর