× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিপ্রবাসীদের কথাবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা ইলেকশন কর্নার
ঢাকা, ১৯ জুলাই ২০১৯, শুক্রবার

পুঠিয়ায় ট্রাকচালককে পুলিশের মারপিট, প্রতিবাদে সড়ক অবরোধ

বাংলারজমিন

স্টাফ রিপোর্টার, রাজশাহী থেকে | ১৬ জুন ২০১৯, রবিবার, ৮:৫৩

রাজশাহীর পুঠিয়ায় নিষেধাজ্ঞা অমান্য করায় এক ট্রাকচালককে মারপিট করে ট্রাফিক পুলিশ। গতকাল দুপুরে উপজেলার বানেশ্বর বাজারে মসজিদ মার্কেটের সামনে এই ঘটনা ঘটে। এ সময় শ্রমিকরা বিক্ষুব্ধ হয়ে প্রায় ঘণ্টাব্যাপী ঢাকা-রাজশাহী মহাসড়ক অবরোধ করে রাখে। মারধরের শিকার রেজাউল করিম (৩৫) জেলার চারঘাট উপজেলার গঠুয়া গ্রামের মো. ইব্রাহিমের ছেলে। তাকে স্থানীয়ভাবে প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়া হয়েছে। প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, গতকাল দুপুরে একটি মালবাহী ট্রাক (ঢাকা-মেট্রো-ট ১৪-৭৬৩১) বানেশ্বর বাজার মসজিদ মার্কেটের সামনে থামালে সেখানে দায়িত্বরত ট্রাফিক পুলিশ ট্রাকটি সরিয়ে অন্য জায়গায় নিতে বলেন। চালক রেজাউল করিম তাদের কথা না শোনায় পুলিশ সদস্যরা তাকে লাঠি দিয়ে পিটিয়ে আহত করে এবং ট্রাকটি ভাঙচুর করে। এ ঘটনায় ক্ষুব্ধ হয়ে শ্রমিকরা ঢাকা-রাজশাহী মহাসড়ক অবরোধ করে রাখে।
এতে সড়কের দুই পাশে কয়েক কিলোমিটার রাস্তায় তীব্র যানজটের সৃষ্টি হয়। প্রায় ঘণ্টাখানেক পর পুলিশের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনলে যান চলাচল স্বাভাবিক হয়।
পবা হাইওয়ে পুলিশ শিবপুর হাট ফাঁড়ির ইনচার্জ জাহিদুল ইসলাম ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন। তিনি জানান, মসজিদ মার্কেটের সামনে ট্রাকটি দাঁড় করিয়ে চালক মহাসড়কের পাশে মালিকের দোকানে কিসের যেন কাগজ দিতে গিয়েছিলেন। এ সময় বানেশ্বর আমের হাটে দায়িত্বরত ট্রাফিক পুলিশ সদস্যরা রাস্তা ক্লিয়ার করছিলো। পুলিশ ওই চালককে ট্রাকটি সরাতে বলে। কিন্তু চালক তাদের কথা না শোনায় ট্রাফিক পুলিশের এক কনস্টেবল ট্রাকের লুকিং গ্লাসটি ভেঙে ফেলে।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর