× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিপ্রবাসীদের কথাবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা ইলেকশন কর্নার
ঢাকা, ২৩ জুলাই ২০১৯, মঙ্গলবার

সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ৭

বাংলারজমিন

ঝিনাইদহ ও কালিগঞ্জ প্রতিনিধি | ১৭ জুন ২০১৯, সোমবার, ৯:৩৫

ঝিনাইদহের বিভিন্ন স্থানে সড়ক দুর্ঘটনায় রোববার গৃহবধূসহ ৪ জন নিহত হয়েছেন। নিহতরা হলেন- কুষ্টিয়ার মথনপুর গ্রামের ট্রাক ড্রাইভার সুমন, হেলপার জনি, শৈলকুপার মহেশপুর গ্রামের গৃহবধূ শাহনাজ বেগম ও কালীগঞ্জের রঘুনাথপুর গ্রামের ইউনুস আলী। পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, রোববার সকালে ঝিনাইদহ কালীগঞ্জ সড়কের ছালাভরা নামক স্থানে একটি সিমেন্ট বোঝাই ট্রাক উল্টে গেলে ঘটনাস্থলেই নিহত হন ট্রাক ড্রাইভার সুমন ও হেলপার জনি। নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ট্রাকটি পাশের খাদে উল্টে গেলে এই দুর্ঘটনা ঘটে। রোববার বিকালে ঝিনাইদহ ক্যাডেট কলেজের সামনে ট্রাকের ধাক্কায় নিহত হন গৃহবধূ শাহানাজ। স্বামী ডাবলু জোয়ারদারের সঙ্গে  মোটরসাইকেল যোগে শাহানাজ বাড়ি ফেরার পথে একটি ট্রাক  মোটরসাইকেলটিকে ধাক্কা দেয়। এতে শাহানাজ ছিটকে পড়েন রাস্তার উপর। ঘটনাস্থলেই তার মৃত্যু হয়।
রোববার সন্ধ্যার দিকে ঝিনাইদহ কালীগঞ্জ সড়কের লাউদিয়া নামক স্থানে রাস্তা পার হচ্ছিলেন কালীগঞ্জ উপজেলার রঘুনাথপুর গ্রামের ইউনুস আলী। এ সময় একটি ট্রাক তাকে ধাক্কা দিলে তিনি ছিটকে রাস্তার উপরে পড়েন। এ সময় একটি বাস তাকে পিষ্ট করলে ঘটনাস্থলেই তার মৃত্যু হয়।
 বোদা (পঞ্চগড়) প্রতিনিধি: বোদায় সড়ক দুর্ঘটনায় পিকআপ চালক নিহত হয়েছে। গতকাল সকালে বোদা-দেবীগঞ্জ এশিয়ান হাইওয়েতে নগরকুমারী নামক স্থানে ওই দুর্ঘটনায়  চালক আবুল কাশেম (৩০) নিহত হয়।
কটিয়াদী (কিশোরগঞ্জ) প্রতিনিধি: কটিয়াদীতে সড়ক দুর্ঘটনায় মো. মোতালিব (৭০) নামের এক বৃদ্ধ দপ্তরির মৃত্যু হয়েছে। রোববার ভৈরব-কিশোরগঞ্জ আঞ্চলিক মহাসড়কের চারিপাড়া নামক স্থানে এ ঘটনা ঘটে। নিহত মোতালিব চারিপাড়া আজিম উদ্দিন বালিকা মাদরাসার দপ্তরি হিসেবে নিয়োজিত ছিলেন। তিনি উপজেলার আচমিতা ইউনিয়নের চারিপাড়া গ্রামের পিতা মৃত আবদুল কাদিরের পুত্র।
ফুলবাড়ী (কুড়িগ্রাম) প্রতিনিধি: পাওনা টাকা চাইতে গিয়ে মোটরসাইকেল চাপায় আনজু আরা বেগম (৩৫) নামের এক মহিলার মৃত্যু হয়েছে। ঘটনাটি ঘটেছে কুড়িগ্রামের ফুলবাড়ী উপজেলার নাওডঙ্গা ইউনিয়নের বালারহাট বালাতারী খ্যানটারী গ্রামে। নিহত আনজু আরা বেগম পাঁচ সন্তানের জননী। নিহতের মেয়ে সুমি খাতুন জানান, উত্তর বালাতারী গ্রামের মো. নবী মিয়ার ছেলে রবিউল ইসলাম (২২) আনজু আরা বেগমের কাছে ৯০ হাজার টাকা ধার নেয়। দীর্ঘদিনেও পাওনা টাকা ফেরত না দেয়ায় আনজু আরা বেগম স্থানীয় লোকজনের সহায়তায় কিছু দিন আগে রবিউলের ব্যবহৃত মোটেরসাইকেল আটক করেন।

পরে স্থানীয়দের মধ্যস্থতায় দুই মাসের মধ্যে টাকা ফেরত দেয়ার প্রতিশ্রুতি দেন রবিউল। কিন্তু শনিবার রাত ১টার সময় ঘাতক রবিউল, আশরাফুল, আজিদুল ও বুলু মিয়াসহ ৭-৮ জন লোক নিয়ে মহিলার বাড়িতে গিয়ে তাকে জোরপূর্বক বাড়ি থেকে বের করে আনেন এবং টাকা না চাওয়ার জন্য প্রাণনাশের হুমকি দেন রবিউল। পরের দিন রোববার সকাল ৯টার দিকে বালাতাড়ী ৩নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য রফিকুল ইসলামের কাছে অভিযোগ দিতে যান আনজু বেগম। সেখান থেকে ১১টার সময় ফেরার পথে নাওডাঙ্গা (ডিএস) দাখিল মাদরাসার সামনে রাস্তার ওপর রবিউল ইসলামের দেখা পায় আনজু বেগম। সেখানে দু’জনের মধ্যে কথাকাটাকাটি শুরু হয়। একপর্যায়ে আনজু বেগমকে ধাক্কাদিয়ে মাটিতে ফেলে দিয়ে তার শরীরের ওপর দিয়ে মোটরসাইকেল চালিয়ে দেয় রবিউল। এ সময় গুরুতর আহত হয়ে রাস্তায় পরে থাকে আনজু বেগম। প্রত্যক্ষদর্শী রোজিনা জানান, আমি চিৎকার শুনেই পরক্ষণেই গুরুতর আহত অবস্থায় আনজু বেগমেকে দেখতে পাই। এ সময় আহত আনজু আরা বেগম পরপর দুইবার বমি করে। পরে তাকে ফুলবাড়ী হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। ফুলবাড়ী হাসপাতালের জরুরি বিভাগের চিকিৎসক ডা. কাজী ফাহাদ জানান, হাসপাতালে আসার আগেই রোগীর মৃত্যু হয়েছে বিষয়টি পুলিশকে জানিয়েছি। ফুলবাড়ী থানার এসআই হাবিবুর রহমান হাবিব জানান, নিহত মহিলার লাশ উদ্ধার করে কুড়িগ্রাম মর্গে পাঠানো হয়েছে। পরিবারের লোকজন মামলা করার জন্য প্রস্তুতি নিচ্ছেন। এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত থানায় কোনো মামলা হয়নি।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর