× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিপ্রবাসীদের কথাবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা ইলেকশন কর্নার
ঢাকা, ২০ জুলাই ২০১৯, শনিবার

টেকনাফে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ দুই ‘মানবপাচারকারী’ নিহত

অনলাইন

টেকনাফ (কক্সবাজার) প্রতিনিধি | ২৩ জুন ২০১৯, রবিবার, ১১:০৪

কক্সবাজারের টেকনাফে পুলিশের সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ রোহিঙ্গা নাগরিকসহ দু’জন নিহত হয়েছেন। শনিবার রাত ১টার দিকে সাবরাং ইউনিয়নের কাটাবনিয়া এলাকার নৌকা ঘাটে এ ‘বন্দুকযুদ্ধে’র ঘটনা ঘটে। পুলিশের দাবি, তারা মানবপাচারকারী। ঘটনাস্থল থেকে দু’টি এলজি (আগ্নেয়াস্ত্র), ১১ রাউন্ড শর্টগানের তাজা কার্তুজ ও ১৮ রাউন্ড কার্তুজের খোসা উদ্ধার করা হয়েছে বলে পুলিশ দাবি করেছে।

নিহতরা হলেন- টেকনাফ পৌরসভার নাইট্যং পাড়ার মৃত রশিদ আহমদের ছেলে মো. রুবেল (১৯) এবং কুতুবপালং রোহিঙ্গা ক্যাম্পের হাবিবুল্লার ছেলে ওমর ফারুক (২৩)। এর মধ্যে রুবেল ৪৯ জন  রোহিঙ্গা পাচার মামলার পলাতক আসামি।

পুলিশের ভাষ্যমতে, বন্দুকযুদ্ধের ঘটনায় তিন পুলিশ সদস্য আহত হয়েছেন। তাদেরকে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে এবং নিহতদের মরদেহ জেলা সদর হাসপাতাল মর্গে রয়েছে।

টেকনাফ মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) প্রদীপ কুমার দাস জানান, রোহিঙ্গা পাচার মামলার আসামী মো. রুবেল এবং ওমর ফারুককে গ্রেপ্তারের জন্য সাবরাং কাটাবনিয়া নৌকা ঘাটে পৌঁছলে পুলিশকে লক্ষ্য করে তারা গুলি ছোঁড়ে।
আত্মরক্ষার্থে পুলিশও পাল্টা গুলি ছুঁড়তে থাকে। এতে তারা গুলিবিদ্ধ হয়। একপর্যায়ে ঘটনাস্থল থেকে তাদের উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক ‘মৃত’ ঘোষণা করে।

‘বন্দুকযুদ্ধের’ ঘটনায় আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে বলেও জানান ওসি।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর