× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিপ্রবাসীদের কথাবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা ইলেকশন কর্নার
ঢাকা, ২০ জুলাই ২০১৯, শনিবার

সীমান্তে অপরাধ কমাতে বিজিবি’র উদ্যোগ

বাংলারজমিন

ঠাকুরগাঁও প্রতিনিধি | ২৫ জুন ২০১৯, মঙ্গলবার, ৮:৩৬

ঠাকুরগাঁও সীমান্তে মাদক, অস্ত্র, পণ্য চোরাচালান, অবৈধভাবে সীমান্ত পারাপার, নারী ও শিশু পাচার রোধ করে জনসাধারণকে দক্ষ ও কার্যকরী জনশক্তিতে পরিণত করতে সীমান্তবাসীকে সঙ্গে নিয়ে নানা উদ্যোগ গ্রহণ করেছে ঠাকুরগাঁও ৫০ বিজিবি। সোমবার সকালে এ কর্মসূচির অংশ হিসেবে অনুষ্ঠিত হলো হরিপুর উপজেলার মোলানি সীমান্ত এলাকার স্বনির্ভর কম্পিউটার প্রশিক্ষণের দ্বিতীয় ব্যাচের উদ্বোধন। এদিকে রোববার বিকালে সীমান্ত অপরাধ প্রতিরোধে বালিয়াডাঙ্গী উপজেলার চোষপাড়া, কোটপাড়া, বেউরঝাড়ী ও রত্নাই সীমান্ত এলাকার মানুষের সঙ্গে মতবিনিময় করেছেন ঠাকুরগাঁও ৫০ বিজিবি’র অধিনায়ক লে. কর্নেল এস এম সামিউন্নবী চৌধুরী। আমজানখোর ইউনিয়ন পরিষদ চত্বরে বিজিবি’র আয়োজনে এ মতবিনিময় সভায় তিনি স্থানীয়দের সীমান্তে মাদক, অস্ত্র, পণ্য চোরাচালান, অবৈধ ভাবে সীমান্ত পারাপার, নারী ও শিশু পাচার সংক্রান্ত বিষয়ে উন্মুক্ত ভাবে মতবিনিময় করেন। এ সময় সীমান্তে বসবাসকারী মানুষদের বিভিন্ন সমস্যার কথাও শুনেন তিনি।
মতবিনিময় সভায় ঠাকুরগাঁও ৫০ বিজিবি’র অধিনায়ক লে. কর্নেল সামিউন্নবী বলেন, সীমান্ত ঘেঁষে বসবাস করা মানুষগুলো বিজিবিকে সহায়তা করলেই বিএসএফ’র হাতে গুলি খেয়ে আর কাউকে মরতে হবে না এমনকি কারো হাতে আটক হবে না বাংলাদেশের কোনো নাগরিক।
সীমান্তের প্রতিটি মানুষকে তিনি বন্ধু হিসেবে পাশে চান। সকলের সহযোগিতা পেলেই সীমান্তকে মাদক, চোরাচালান মুক্তসহ বিএসএফ এর গুলিতে প্রাণ হারানো এবং আটক বন্ধ করা সম্ভব বলে জানান তিনি। এদিকে সোমবার সকাল ৯টায় হরিপুর উপজেলার মোলানি সীমান্ত এলাকায় স্বনির্ভর কম্পিউটার দ্বিতীয় ব্যাচের প্রশিক্ষণের উদ্বোধন করেন ৫০ বিজিবির অধিনায়ক লেফটেন্যান্ট কর্নেল এস এম সামিউন্নবী চৌধুরী।
সীমান্ত এলাকায় অপরাধ নিয়ন্ত্রণ ও জীবন মানের উন্নয়ন ঘটাতে দক্ষ জনশক্তি গড়ে তোলার লক্ষ্যে ২য় বারের মতো এ ২০ জন সীমান্তবাসী যুবক-যুবতীকে এই প্রশিক্ষণের আওতায় আনা হয়েছে বলে জানান ৫০ বিজিবি অধিনায়ক। অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন মোলানী বিজিবি ক্যাম কমান্ডার মোহাম্মদ মনিরুজ্জামান ও কম্পিউটার টেকনিশিয়ান জাকির হোসেন।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর