× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিপ্রবাসীদের কথাবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা ইলেকশন কর্নার
ঢাকা, ২৩ জুলাই ২০১৯, মঙ্গলবার

পিপিপি’র মাধ্যমে সব বন্ধ টেক্সটাইল মিল চালু করবে সরকার

এক্সক্লুসিভ

স্টাফ রিপোর্টার | ২৬ জুন ২০১৯, বুধবার, ৮:১৩

পাবলিক প্রাইভেট পার্টনারশিপের (পিপিপি) মাধ্যমে দেশের বন্ধ টেক্সটাইল মিল চালুর উদ্যোগ নিয়েছে সরকার। বন্ধ এসব মিলগুলো পুনরায় চালু হলে শিল্প-প্রতিষ্ঠানে নতুন কর্মসংস্থানের সুযোগ তৈরী হবে। এজন্য, বর্তমান সরকার পর্যায়ক্রমে দেশের সব বন্ধ টেক্সটাইল মিল পিপিপি’র মাধ্যমে চালুর উদ্যোগ নিয়েছে। গতকাল রাজধানীর একটি হোটেলে পিপিপি’র মাধ্যমে বিটিএমসি’র আহমেদ বাওয়ানী টেক্সটাইল মিলস লিমিটেড মিলটি কনসোর্টিয়াম অব তানজিনা ফ্যাশন লিমিটেডের মাধ্যমে পরিচালিত হওয়ার চুক্তি স্বাক্ষর অনুষ্ঠানে বস্ত্র ও পাটমন্ত্রী গোলাম দস্তগীর গাজী, বীরপ্রতীক, এমপি এসব কথা বলেন। অনুষ্ঠানে বিটিএমসির পক্ষে বাংলাদেশ টেক্সটাইল মিল কর্পোরেশনের (বিটিএমসি) চেয়ারম্যান মোহাম্মদ কামরুজ্জামান এবং কনসোর্টিয়াম অব তানজিনা ফ্যাশন লিঃ এর পক্ষে হাসানুল মুজিব চুক্তি স্বাক্ষর করেন। চুক্তি স্বাক্ষর অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে মাগুরা-১ আসনের সংসদ সদস্য সাইফুজ্জামান শিখর, বস্ত্র ও পাট মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সদস্য ইসরাফিল আলম এমপি, মোমিন মন্ডল এমপি, বস্ত্র ও পাট মন্ত্রণালয়ের দায়িত্বপ্রাপ্ত সচিব গুলনার নাজমুন নাহার প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন। বস্ত্র ও পাট মন্ত্রী বলেন, দেশের বিভিন্ন ব্যবসা বান্ধব স্থানে বিটিএমসি’র ৬৩৬.৩৮ একর জমি অব্যবহৃত অবস্থায় পড়ে আছে। এই জমিসমূহ পিপিপি’র মাধ্যমে উৎপাদন খাতে ব্যবহারের ফলে একদিকে যেমন সংশ্লিষ্ট শিল্প প্রতিষ্ঠান লাভবান হবে।
অন্যদিকে দেশের জিডিপি বৃদ্ধি, কর্মসংস্থান সৃষ্টির মাধ্যমে অর্থনীতি আরো সুদৃঢ় হবে।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর