× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিপ্রবাসীদের কথাবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা ইলেকশন কর্নার
ঢাকা, ২৩ জুলাই ২০১৯, মঙ্গলবার

আসামে নাগরিকপঞ্জী থেকে বাদ আরো লক্ষাধিক মানুষের নাম

এক্সক্লুসিভ

কলকাতা প্রতিনিধি | ২৭ জুন ২০১৯, বৃহস্পতিবার, ৮:৩৭
ফাইল ছবি

ভারতের অসম রাজ্যের নাগরিকপঞ্জী তালিকার অতিরিক্ত খসড়া বুধবার প্রকাশ করা হয়েছে। সেই খসড়া তালিকা থেকে ১,০২,৪৬২ জন মানুষের নাম বাদ দেয়া হয়েছে। কর্র্তৃপক্ষ জানিয়েছেন, যাদের নাম বাদ পড়েছে তাদের ঠিকানায় চিঠি দিয়ে তা জানিয়ে দেয়া হবে। বাদ পড়ার কারণও জানানো হবে। গতবছর যে খসড়া তালিকা প্রকাশ করা হয়েছিল তা থেকে প্রায় ৪০ লাখ মানুষের নাম বাদ দেয়া হয়েছিল। এবার যারা বাদ পড়েছেন তাদের নাম আগের তালিকায় ছিল। পরে নাগরিকপঞ্জী তত্ত্বাবধানকারীরা জানিয়েছেন, সেই তালিকার লক্ষাধিক মানুষ তালিকায় অন্তর্ভুক্ত থাকার উপযুক্ত নয়। ২০১৮ সালের ৩০শে জুলাই প্রথম নাগরিকপঞ্জীর খসড়া তালিকা প্রকাশ করে সরকার।
নাম নথিভুক্ত করার জন্য আবেদন করেছিলেন ৩.২৯ কোটি মানুষ।  তাদের মধ্যে ২.৯ কোটি মানুষের নামে নথিভুক্ত করা হয়েছে। ফলে বাদ পড়েছেন প্রায় ৪০ লাখের কাছাকাছি মানুষ। গত বছর খসড়া তালিকা প্রকাশের পর দেশজুড়ে তোলপাড় শুরু হয়েছিল। সবচেয়ে সোচ্চার ছিলেন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তবে মোদি সরকার জানিয়েছিল, কোনো অবৈধ নাগরিকের নাম তালিকায় থাকবে না। কিন্তু বিরোধীদের অভিযোগ ছিল, বাংলাদেশি বিতাড়নের নামে  বৈধ নাগরিকদের নাম বাদ দিচ্ছে সরকার। নাগরিকপঞ্জীর আধিকারিকের তরফে এক বিবৃতিতে জানানো হয়েছে, ২০০৩ সালের নাগরিক আইনের ৫ নম্বর ধারা অনুযায়ী নাগরিকপঞ্জী তৈরি করা হয়েছে। সুপ্রিম কোর্টের নজরদারিতে তৈরি হচ্ছে এই নাগরিকপঞ্জী। সুপ্রিম কোর্ট জানিয়েছেন, আগামী ৩১শে জুলাই চূড়ান্ত নাগরিক তালিকা প্রকাশ করতে হবে।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর