× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিপ্রবাসীদের কথাবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা ইলেকশন কর্নার
ঢাকা, ১৯ জুলাই ২০১৯, শুক্রবার

শ্রীনগরে সালিশে যুবককে জ্বলন্ত সিগারেটের ছ্যাঁকা ভিডিও ভাইরাল

বাংলারজমিন

শ্রীনগর (মুন্সীগঞ্জ) প্রতিনিধি | ১১ জুলাই ২০১৯, বৃহস্পতিবার, ৯:০১

শ্রীনগরে সালিশ বৈঠকে এক ইউপি সদস্যের নির্দেশে যুবককে সিগারেটের আগুনে ছ্যাঁকা ও লাঠিপেটার ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হয়েছে। শ্রীনগর উপজেলার রাঢ়িখাল ইউনিয়নের কবুতর খোলা গ্রামের গত ২রা জুলাই এক সালিশ বৈঠকের ওই ভিডিও ফুটেজে দেখা যায়, সালিশ বৈঠকে ইউপি সদস্য কালাম মেম্বার জ্বলন্ত সিগারেট এক ব্যক্তির হাতে দিয়ে সালিশ বৈঠকের বিবাদী মনির হোসেনের পিঠে ছ্যাঁকা দেয়ার নির্দেশ দেয়। প্রায় শতাধিক নারী-পুরুষের সামনে ওই লোক মনিরের পিঠে জ্বলন্ত সিগারেটের ছ্যাঁকা দেয়। মনির হোসেনের ভাই আনোয়ার হোসেন অভিযোগ করে বলেন, গত ১লা জুলাই সোমবার লৌহজং উপজেলার মেদিনী মন্ডল ইউনিয়নের যশলদিয়া গ্রামের নুরবাগ ইসলামিয়া মাদ্রাসার ছাত্র সিয়ামকে আইসক্রিম দেয়ার লোভ দেখিয়ে মনির ও হান্নান বাড়ির অদুরে পদ্মা নদীর পাড়ে নিয়ে যায়। সেখানে তারা দুজন সিয়ামকে সিগারেট খেতে বলে। কিন্ত এতে সিয়াম রাজি না হওয়ায় সিয়ামের পিঠের মেরুদণ্ড বরাবর জ্বলন্ত সিগারেটের আগুনে ছ্যাঁকা দেয়। এই অভিযোগে ইউপি সদস্য কালাম মেম্বারের নেতৃত্বে তার নিজস্ব স্ব-মিলে গ্রাম্য শালিস বৈঠক বসে। সালিশে অভিযুক্ত মনিরকে প্রকাশ্যে ২০টি বেতের বাড়ি, ৬ বার জ্বলন্ত সিগারেটের আগুনের ছ্যাঁকা ও ৫ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়।
এছাড়া তাকে ৩ দিনের মধ্যে গ্রাম ছেড়ে অন্যত্র চলে যাওয়ার নির্দেশ দেয়া হয়। মনিরের ভাই আনোয়ার হোসেন আরো বলেন, সালিশ বৈঠকের সব সিদ্ধান্ত মেনে নিয়ে চলে আসলেও পরে সিয়ামের মা রহিমা বেগম বাদী হয়ে মনিরের নামে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে লৌহজং থানায় মামলা করেন। পুলিশ মনিরকে গ্রেপ্তার করে জেলহাজতে প্রেরণ করে। গ্রাম্য সালিশ বৈঠকে মনিরকে সিগারেটের ছ্যাঁকা, বেত দিয়ে মারপিট, ৫ হাজার টাকা জরিমানা ও গ্রাম ছাড়ার নির্দেশ বিষয়ে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (শ্রীনগর সার্কেল) মো. আসাদুজ্জামানের কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, এ ধরনের ঘটনা ঘটে থাকলে, অভিযোগ পেলে তদন্তপূর্বক কঠোর আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর