× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিপ্রবাসীদের কথাবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা ইলেকশন কর্নার
ঢাকা, ১৮ জুলাই ২০১৯, বৃহস্পতিবার

খালেদার মুক্তির দাবিতে বৃটিশ এমপিদের প্রচারণা

প্রথম পাতা

মানবজমিন ডেস্ক | ১১ জুলাই ২০১৯, বৃহস্পতিবার, ৯:২৭

বাংলাদেশের সাবেক প্রধানমন্ত্রী বেগম খালেদা জিয়ার মুক্তির দাবিতে ব্যতিক্রমী প্রচারণা শুরু হয়েছে বিলাতে। প্রচারণার অংশ হিসেবে বুধবার কমনওয়েলথভুক্ত দেশগুলোর পররাষ্ট্রমন্ত্রীদের সম্মেলনের প্রাক্কালে লন্ডনের মার্লবোরো হাউজে এক সভা অনুষ্ঠিত হয়। এ প্রচারণার মূল উদ্যোক্তা ছিলেন বৃটিশ লেবার পার্টির এমপি খালিদ মাহমুদ, লিবারেল ডেমোক্রেট দলের ফিল বেনিয়ন, কনজারভেটিভ দলের অ্যান্থিয়া ম্যাকইন্টায়ার, ক্রসবেঞ্চার লর্ড কার্লাইল ও লিবারেল পার্টি অব অস্ট্রেলিয়ার আন্তর্জাতিক বিষয়ক সমপাদক ব্রুস এডওয়ার্ডস। সভায় মূল উদ্যেক্তারা ছাড়াও বৃটেনের এমপিরা এবং বিশ্বের প্রভাবশালী রাজনীতিবিদরা অংশ নেন।

এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে। এতে বলা হয়, ৭৩ বছর বয়সী বাংলাদেশ জাতীয়তবাদী দলের প্রধান বেগম খালেদা জিয়ার মুক্তির জন্য বাংলাদেশ সরকারকে চাপ দিতেই এই প্রচারণা সভার আয়োজন করা হয়েছে। খালেদা জিয়ার আইনজীবী লর্ড কার্লাইল এতে অংশ নিয়ে বলেন, খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে থাকা অভিযোগ মামুলি। যারা বাংলাদেশের বিচার ব্যবস্থা সমপর্কে জানেন তারা বুঝবেন যে, এই অভিযোগ পুরোপুরি মিথ্যা। তাই, খালেদা জিয়াকে অবিলম্বে মুক্তি দেয়া উচিৎ।
তিনি আরো বলেন, আমরা ্তুফ্রি খালেদা জিয়া্থ ক্যামেপইন পরিচালনা করছি যাতে বৃটেন, ইউরোপ ও আন্তর্জাতিক প্রতিষ্ঠানগুলো জানতে পারে কত বড় অবিচার চলছে। তিনি দাবি করেন, খালেদা জিয়াকে কোনো তথ্যপ্রমান ছাড়াই আটকে রাখা হয়েছে। তাই, তার মুক্তির জন্য বাংলাদেশ সরকারকে চাপ দিতে কমনওয়েলথ, ইউরোপীয় ইউনিয়ন ও বৃটিশ সরকারের প্রতি আহ্বান জানান কার্লাইল।

এ সময় বাংলাদেশকে স্থিতিশীল রাখতে বেগম খালেদা জিয়ার মুক্তির ওপর গুরুত্বারোপ করেন লর্ড কার্লাইল। তিনি বলেন, এটি সমগ্র বাংলাদেশে বড় মাপের জনঅসন্তোষ সৃষ্টি করতে পারে। তাই বাংলাদেশ সরকারের উচিৎ সঠিক কাজটি করা এবং তাকে অবিলম্বে মুক্তি দেয়া।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
পাঠকের মতামত
**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।
Mohammed Ali
১২ জুলাই ২০১৯, শুক্রবার, ৩:০৫

খালেদা জিয়া একমাত্র রাজনৈতিক নেতা, যিনি কখনওই নির্বাচনে হারেনি। এই প্রচন্ড জনপ্রিয়তা তার জন্য কাল হয়েছে। সরকার ভালো করে জানে তাদের জনপ্রিয়তা ২০% আছে কিনা সন্দেহ। অবাদ নিরপেক্ষ নির্বাচন দিলে জনগন তাদেরকে উচিৎ শিক্ষা দিবে, তাই খালেদা জিয়াকে মুক্তি দিবেনা। পুলিশ আর নিজস্ব কেডার বাহিনীর দ্বারা যত দিন সম্ভব ক্ষমতা ভোগ করে যাবে।

মোয়াজ্জেম হোসেন সজীব
১০ জুলাই ২০১৯, বুধবার, ৪:৪৯

বেগম খালেদা জিয়ার থেকেও বড় বড় অপরাধীরাও মুক্তি পাচ্ছে

আমির
১০ জুলাই ২০১৯, বুধবার, ১১:০৭

হিংসার কারনে আজ খালেদা জিয়া জেলে আল্লাপাক ন্যায় বিচারক

Salim raza.
১০ জুলাই ২০১৯, বুধবার, ১১:০৬

Right

অন্যান্য খবর