× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিপ্রবাসীদের কথাবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা ইলেকশন কর্নার
ঢাকা, ২৬ আগস্ট ২০১৯, সোমবার

প্রিয়া সাহার ব্যাখ্যা না শুনে মামলা নয়: ওবায়দুল কাদের

অনলাইন

স্টাফ রিপোর্টার | ২১ জুলাই ২০১৯, রবিবার, ৪:০৮

যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের কাছে বাংলাদেশে সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের ওপর নির্যাতন চলছে বলে যে মিথ্যা অভিযোগ প্রিয়া সাহা করেছেন, সে ব্যাপারে তার ব্যাখ্যা না শুনে এখনই কোনো মামলা সরকার করবে না বলে জানিয়েছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এমনই নির্দেশনা দিয়েছেন বলে তিনি জানিয়েছেন।

আজ রাজধানীর বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে বাস্তবায়নাধীন মেট্রোরেল প্রকল্পের ব্র্যান্ডিং সেমিনারে  সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের উত্তরে তিনি এসব কথা বলেন। ওবায়দুল কাদের বলেন, প্রধানমন্ত্রী আমাকে একটা মেসেজ দিয়েছেন, তা হলো প্রিয়া সাহার আত্মপক্ষ সমর্থনের আগে তার বিরুদ্ধে কোনো ধরনের মামলা করা যাবে না। সকালে প্রিয়া সাহার বিরুদ্ধে মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী (আকম মোজাম্মেল হক) মামলা করার প্রস্তুতি নিয়েছিলেন, আমি তাকে প্রধানমন্ত্রীর মেসেজ জানিয়ে দিয়েছি। প্রিয়া সাহার বিরুদ্ধে দুইটি রাষ্ট্রদ্রোহ মামলা দায়ের হয়েছে এমন বিষয়টি সরকারের নজরে আছে কী-না অপর এক প্রশ্নের উত্তরে তিনি বলেন, বিষয়টি নিয়ে আইনমন্ত্রীর সঙ্গে কথা হয়েছে। রাষ্ট্র না চাইলে কেউ রাষ্ট্রদ্রোহের মামলা করতে পারে না। মামলা ২ টির গ্রহণযোগ্য হবে না।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
পাঠকের মতামত
**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।
মামুন
২২ জুলাই ২০১৯, সোমবার, ১২:০৭

আমি মনে করি, রাষ্ট্র অনুমতি দেওয়াটা প্রয়োজন, কেননা যে অভিযোগ করা হয়েছে, সেইটা কোন ভাবে গ্রহন যোগ্য নয়,

Irfan
২১ জুলাই ২০১৯, রবিবার, ১২:০৩

মাননীয় মন্ত্রী,আপনার কথার সূত্রে বলতে হয়,তাহলে কেউ খুন করলে তাকে সাথে সাথে গ্রেফতার করা যাবেনা,তার ব্যাখ্যা আগে শুনতে হবে?

Abdul matin
২১ জুলাই ২০১৯, রবিবার, ১০:১৫

ওবায়দুল কাদের সাহেব প্রিয়াশা রাষ্ট্রদ্রোহ অপরাধ করেছে তার বিরুদ্ধে মামলা নেবে কি নেবে না কারোর কাছে জিজ্ঞাসা যদি করতেই হতো তাহলে বিরোধীদলীয় নেতৃবৃন্দের বিরুদ্ধে বিভিন্ন সময় যেই মামলাগুলি হয়েছিল সেগুলির খুলবে তো প্রধানমন্ত্রীর কোন অনুমোদন নেওয়া হয়নি সেটার কি ব্যাখ্যা করতে পারবেন দেশ মনে হয় আপনারা আর হিন্দুরা মিলে ভাগ করে নিয়েছেন বাকি আমরা কিছু মুসলমানরা সংখ্যালঘু হয়ে গেলাম আপনাদের আট 10% আর হিন্দুদের এপাশে পারছেন এই 15 20 পার্সেন্ট কি সারা বাংলাদেশ

sdd
২১ জুলাই ২০১৯, রবিবার, ৬:১৯

আমরা প্রিয়া সাহাকে এই পরামর্শ দেব যে গত দুদিনে বাংলাদেশের সরকার ও মৌলবাদীরা তাকে যেভাবে হুমকি দিচ্ছে, মামলা করছে, তার সমস্ত বিবরণ মার্কিন স্টেট ডিপার্টমেন্টে জমা দেয়ার জন্য। ট্রাম্প জানুন শুধুমাত্র তার কাছে নির্যাতনের কথা বলার জন্য বাংলাদেশের সরকার ও মৌলবাদীরা এক সংখ্যালঘু মহিলাকে কীভাবে হেনস্থা করছে !! ওই প্রতিনিধি দলে বিভিন্ন দেশের নির্যাতিত সংখ্যালঘুরা তাদের অভিযোগ ট্রাম্পকে জানিয়েছিলেন, কিন্তু বাংলাদেশের মুসলিম জাতীয়তাবাদী সরকার ও মুসলিম মৌলবাদীদের মত অন্য কোন দেশ হিংস্র জানোয়ার হয়ে ওঠে নি।

ওস্তাদ গিরগির খাঁ।
২১ জুলাই ২০১৯, রবিবার, ৪:৫৩

প্রিয়া সাহ না হয়ে যদি প্রিয়া ইসলাম হলে এই সময়ের মধ্যে ৬৪ জেলায় ৭৮ টা রাস্ট্রবিরোধী মামলা হয়ে যেত! আজ আরো একবার প্রমানিত হলো বিচার বিভাগ নিয়ন্ত্রন করা হয় সরকারের ইচ্ছায়।

Amir
২১ জুলাই ২০১৯, রবিবার, ৫:৩৫

সরকার থেকে সমন্বিত বক্তব্য প্রত্যাশিত, বিচ্ছিন্ন বক্তব্য ও তাড়াহুড়ো বিপরীত ফল বয়ে আনে!

Rajikul
২১ জুলাই ২০১৯, রবিবার, ৪:১০

জনাব কাদের প্রিয়া সাহার বক্তব্য না শুনে মামলা না করার ম্যাসেস ব্যক্তি শেখ হাসিনার নাকি রাষ্ট্রের জানা দরকার। বাংলাদেশের ইতিহাসে যত বিরুধী নেতাদের রাষ্ট্রদ্রোহি মামলা দেওয়া হয়েছিলো কারও ব্যাখ্যা শুনা হয়নি। তাহলে সংবিধান লঙ্ঘনের অপরাধী শেখ হাসিনা ও তার সরকারের উপর একটা মামলা করা কি উচিত না?

অন্যান্য খবর