× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিপ্রবাসীদের কথাবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা ইলেকশন কর্নার
ঢাকা, ২৫ আগস্ট ২০১৯, রবিবার

‘ঘরে’ ফিরতে আকুল কুটিনহোও

খেলা

স্পোর্টস ডেস্ক | ২২ জুলাই ২০১৯, সোমবার, ৯:০২

ব্রাজিলিয়ান ফুটবলার নেইমার ও কুটিনহোর ক্যারিয়ারে অন্য যোগসূত্রও ছিল। ২০১৭তে বার্সেলোনা থেকে প্যারিস সেইন্ট জার্মেইয়ে পাড়ি দেন নেইমার। আর নেইমারের অভাব পূরণে লিভারপুল থেকে কুটিনহোকে উড়িয়ে আনে বার্সেলোনা। এবার নেইমার-কুটিনহো দু’জনই নিজেদের পুরনো ঠিকানায় ফিরতে আকুল।  লিভারপুলের সঙ্গে পাঁচ বছরের জন্য চুক্তি নবায়ন করার বছর না পেরোতেই কোচের আহ্বান, সমর্থকদের অনুরোধ উপেক্ষা করে বার্সেলোনায় পাড়ি দিয়েছিলেন ফিলিপ্পে কুটিনহো। স্বপ্নের ক্লাবে দেড় বছর ব্রাজিলিয়ান প্লে-মেকারের কেটেছে দুঃস্বপ্নের মতো! নেইমারের বার্সেলোনায় ফেরার সম্ভাবনার মুখে কুতিনহোকে বার্সা বেচে দিতে চাইছে বলে গুঞ্জন। স্প্যানিশ মিডিয়ার খবর, লিভারপুলে ফিরে যেতে চাইছেন কুটিনহো।
লিভারপুলের জার্মান কোচ ইয়ুর্গেন ক্লপ কুটিনহোকে চান কি না, সেটা বড় প্রশ্ন। তবে স্বদেশি উত্তরসূরিকে লিভারপুলে ফেরার ব্যাপারে হুঁশিয়ার করে দিচ্ছেন রিভালদো।
ব্রাজিলের বিশ্বকাপজয়ী তারকা রিভালদো বলেন, কুটিনহো দল ছাড়ার পরই বরং বেশি সাফল্য পেয়েছে লিভারপুল, এখন কুটিনহো সেখানে ফিরলে তার ওপর চাপ আরও বাড়বে।
কুটিনহো যে বার্সায় থাকছেন না, তার একটা ইঙ্গিত দিয়েছে স্প্যানিশ দৈনিক এএসও। বার্সেলোনায় যে স্কুলে সন্তানকে ভর্তি করিয়েছিলেন কুটিনহো সেখান থেকে নাকি ভর্তি বাতিল করে নিয়েছেন! তা কোথায় যাচ্ছেন? স্প্যানিশ মিডিয়ার খবর, লিভারপুলের সঙ্গে যোগাযোগ রেখেছেন কুটিনহোর এজেন্ট কিয়া জোরাবকিয়ান। কিন্তু ২০০২ বিশ্বকাপজয়ী প্লেমেকার রিভালদো কুটিনহোর দলবদল প্রসঙ্গে বলেন, ‘লিভারপুলে ফেরার সুযোগটা ওর জন্য সুবিধাজনক হতে পারে, তবে আমি নিশ্চিত নই ও ইংল্যান্ডে ফেরার কথা ভাবছে কি না। ও হয়তো বার্সেলোনায়ই থাকতে পারে, নিজের খেলায় উন্নতি এনে নিজের দাম বোঝাতে পারে, দেখাতে পারে ও পথচলায় ছোটখাটো হোঁচট সামলে নিতে পারে। ও মাত্রই কোপা আমেরিকা জিতে ফিরেছে, ওর আত্মবিশ্বাস এখন উঁচুতে থাকবে। তাই ও যাবে না থাকবে, সেটা বলা কঠিন।’
বার্সেলোনার সাবেক তারকা রিভালদো বলেন, যদি ও লিভারপুলে ফেরার সিদ্ধান্ত নেয়, তাহলে দলটা আরও শক্তিশালী হবে ঠিকই। কিন্তু ওরা তো বর্তমান ইউরোপিয়ান চ্যাম্পিয়নই, এই ব্যাপারটা ওর ওপরে চাপ আরো বাড়াবে। ভুলে গেলে চলবে না, কুটিনহোর বিদায়ের পরই কিন্তু টানা দুই মৌসুমে ওরা একবার চ্যাম্পিয়নস লীগ ফাইনাল খেলেছে, আরেকবার জিতেছে।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর