× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিপ্রবাসীদের কথাবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা ইলেকশন কর্নার মন ভালো করা খবর
ঢাকা, ১৫ অক্টোবর ২০১৯, মঙ্গলবার

বাঙ্গুরার ফেরা হয়নি

ষোলো আনা

নিলয় বিশ্বাস নীল | ৯ আগস্ট ২০১৯, শুক্রবার, ৯:০৩

সদ্য শেষ হয়েছে বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লীগ ফুটবল। শিরোপা ঘরে তুলেছে বসুন্ধরা কিংস। বাংলাদেশের ফুটবল লীগে এবারের আসরে খেলেছেন ৬৬ জন বিদেশি খেলোয়াড়। এই বিদেশিদের মাঝে ইসমাইল বাঙ্গুরা পরিচিত এক নাম। তিনি গিনির খেলোয়াড়।

বাঙ্গুরা ঢাকায় প্রথম পা রেখেছিলেন ২০০৯ সালের সেপ্টেম্বর মাসে। দীর্ঘ নয় বছর ধরে বাংলাদেশে খেলে যাচ্ছেন গিনিয়ান এই স্ট্রাইকার। এবার লীগে খেলেছেন নোফেল এসসি’র হয়ে। লীগ শেষ।
বাকি সব বিদেশি ফুটবলাররা পাড়ি দিয়েছেন নিজ দেশে। তবে যাওয়া হয়নি বাঙ্গুরার।

তার বড় ভাই খেলছেন থাইল্যান্ডের লীগে। ভাইয়ের সঙ্গে দেখা করতে যাবেন থাইল্যান্ডে। সেখান থেকে ধরবেন নিজ দেশের বিমান। তাই ঈদ করতে হচ্ছে বাংলাদেশে। এবারই প্রথম নয়। এর আগেও বাংলাদেশে পালন করেছেন ঈদ। বাঙ্গুরা বলেন, বাংলাদেশে ঈদ করছি এই নিয়ে কোনো আক্ষেপ নেই। বরং বাংলাদেশ এখন আমার কাছে নিজের দেশই মনে হয়। তবে হ্যাঁ অবশ্যই পরিবারের সদস্যদের মিস করবো।

ঈদকে সামনে রেখে বাঙ্গুরার তেমন কোনো বিশেষ পরিকল্পনা নেই। ঈদের দিন নামাজ পড়বেন বাংলাদেশি বন্ধুদের সঙ্গে। দাওয়াত পেয়েছেন কয়েকজন বন্ধুর বাসায়। সময় পেলে সবার সঙ্গেই দেখা করবেন। তিনি বলেন, তার দেশে ৮০ শতাংশ লোকই মুসলিম। ঈদ উদ্‌যাপনের মধ্যে তার দেশ গিনি এবং বাংলাদেশের মধ্যে তফাৎ খুবই কম। নতুন পোশাক পরিধান করে গরু কিংবা ছাগল কোরবানি দিয়েই ঈদের উদ্‌যাপন করা হয় তার দেশে। আর দীর্ঘ নয় বছর ধরে বাংলাদেশে কাটিয়ে অনেকটাই অভ্যস্ত হয়ে গেছেন। ভালোবেসে ফেলেছেন বাংলাদেশের সংস্কৃতি। বাংলা ভাষাটাও রপ্ত হয়ে গেছে অনেকটা। বাংলাদেশের মানুষের আতিথেয়তায় মুগ্ধ তিনি। সবাইকে ঈদের অগ্রিম শুভেচ্ছা জানিয়েছেন বাঙ্গুরা। আর প্রত্যাশা করেন ঈদ সবার জীবনে আনন্দ এবং সুখ-শান্তি নিয়ে আসুক।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর