× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিপ্রবাসীদের কথাবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা ইলেকশন কর্নার
ঢাকা, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৯, বৃহস্পতিবার

রাঙামাটিতে সেনাবাহিনীর অভিযানে শীর্ষ সন্ত্রাসী নিহত

অনলাইন

স্টাফ রিপোর্টার | ২৩ আগস্ট ২০১৯, শুক্রবার, ৫:১৫

রাঙ্গামাটির বাঘাইছড়িতে সেনাবাহিনীর গাড়িতে সন্ত্রাসীদের গুলি বর্ষণের পর পাল্টা গুলিতে সুমন চাকমা নামে এক সন্ত্রাসী নিহত হয়েছে। সে ইউপিডিএফ সদস্য। শুক্রবার সকাল সাড়ে ১০টার দিকে উপজেলার বাঘাইহাট উজু বাজার এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। রাঙ্গামাটির অতিরিক্ত পুলিশ সুপার ছুফিউল্লাহ সাংবাদিকদের জানান,সীমানাছড়া এলাকার উজোবাজারে দুই দল সশস্ত্র সন্ত্রাসীর মধ্যে বন্দুকযুদ্ধের খবর পেয়ে সেনাবাহিনীর একটি টহল দল সেখানে যায়।

এ সময় সন্ত্রাসীরা সেনাবাহিনীর গাড়ি লক্ষ্য করে গুলি বর্ষণ করে। তখন আত্মরক্ষার্থে সেনা সদস্যরাও পাল্টা গুলি ছুড়লে সন্ত্রাসীরা পালিয়ে যায়। পরে ঘটনাস্থলে সুমন চাকমার লাশ পাওয়া যায়। খবর পেয়ে লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে পাঠিয়েছে পুলিশ। এদিকে শীর্ষ সন্ত্রাসী নিহতের ঘটনা সম্পর্কে আন্ত:বাহিনী জনসংযোগ পরিদপ্তর (আইএসপিআর) জানিয়েছে, রাঙামাটি জেলার বাঘাইহাট সেনা জোন আজ শুক্রবার গোপন সংবাদের ভিত্তিতে দোপাতা নামক এলাকায় সন্ত্রাসীদের গ্রেফতারের জন্য অভিযান চালায়।

ঘটনাস্থলে সন্ত্রাসীরা সেনাসদস্যদের উপস্থিতি টের পেয়ে তাদের লক্ষ্য করে গুলিবর্ষণ করে। সেনাবাহিনীর টহল দল তৎক্ষণাৎ পাল্টা গুলি বর্ষণ করে এবং উভয় পক্ষের মধ্যে আনুমানিক ৪/৫ মিনিট গোলাগুলি হয়। সেনাসদস্যদের চাপের মুখে অজ্ঞাত সন্ত্রাসী দল পিছু হটতে বাধ্য হয়। উক্ত গোলাগুলিতে ইউপিডিএফ (মূল) দল এর শীর্ষ সন্ত্রাসী সুমন চাকমা নিহত হয়। উল্লেখ্য, নিহত সুমন চাকমা নানিয়ারচর উপজেলা চেয়ারম্যান এডভোকেট শক্তিমান চাকমা হত্যা মামলার অন্যতম প্রধান আসামি। অভিযান চলাকালে একাধিক সন্ত্রাসী আহত হয়েছে বলে অনুমান করা যায়। বর্তমানে উক্ত স্থানের নিরাপত্তা ব্যবস্থা নিরাপত্তাবাহিনীর নিয়ন্ত্রণাধীন রয়েছে। ভবিষ্যতেও এলাকার শান্তি শৃঙ্খলা এবং নিরাপত্তা নিশ্চিতকল্পে এ ধরনের অভিযান অব্যাহত থাকবে।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর