× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিপ্রবাসীদের কথাবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা ইলেকশন কর্নার
ঢাকা, ২০ সেপ্টেম্বর ২০১৯, শুক্রবার

আরো দু’টি ক্ষেপণাস্ত্র ছুড়লো উত্তর কোরিয়া

বিশ্বজমিন

মানবজমিন ডেস্ক | ২৪ আগস্ট ২০১৯, শনিবার, ১১:৪৯

ক্রমাগত হারে বেড়েই চলেছে উত্তর কোরিয়ার ক্ষেপণাস্ত্র পরীক্ষার সংখ্যা। দক্ষিণ কোরিয়ার সামরিক বাহিনী জানিয়েছে, শনিবার সকালে জাপান সাগরে  দু’টি সন্দেহভাজন স্বল্প দৈর্ঘ্যের ক্ষেপণাস্ত্র ছুড়েছে  উত্তর কোরিয়া। এ নিয়ে দেড় মাসেরও কম সময়ে সাতটি ক্ষেপণাস্ত্র উৎক্ষেপণ করেছে দেশটি। দক্ষিণ কোরিয়া ও যুক্তরাষ্ট্রের সামরিক মহড়ার প্রতিবাদে এসব ক্ষেপণাস্ত্র ছোড়া হচ্ছে বলে জানিয়েছেন বিশেষজ্ঞরা হচ্ছে। যৌথ ওই সামরিক মহড়ার বিরুদ্ধে একাধিকবার ক্ষোভ প্রকাশ করেছে দেশটি। সামরিক মহড়াটি বেশ কয়েকদিন আগেই শেষ হয়ে গেছে। এরপরও উত্তর কোরিয়ার ক্ষেপণাস্ত্র ছোড়ায় উদ্বেগ প্রকাশ করেছে দেশটি। এ খবর দিয়েছে বিবিসি।
দক্ষিণ কোরিয়ার সামরিক বাহিনী জানিয়েছে, সকালে দু’টি ক্ষেপণাস্ত্র ছুড়েছে উত্তর কোরিয়া। উত্তর কোরিয়ার এমন আচরণে গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করেছে তারা। দক্ষিণ কোরিয়ার জয়েন্ট চিফস অফ স্টাফ (জেসিএস) এক বিবৃতিতে জানিয়েছে, আমাদের সামরিক বাহিনী প্রতিনিয়ত উত্তর কোরিয়ার ক্ষেপণাস্ত্র উৎক্ষেপণ পরিস্থিতি পর্যবেক্ষণ করছে ও সবসময় পাল্টা জবাব দেয়ার জন্য প্রস্তুত রয়েছে।
এদিকে জাপানের প্রতিরক্ষামন্ত্রী তাকেশি ইওয়ায়া নিশ্চিত করেছেন যে, ক্ষেপণাস্ত্রগুলো জাপানের জলসীমায় পতিত হয়নি। তবে এই ধরণের কার্যক্রম নিশ্চিতভাবেই জাতিসংঘের নিয়ম লঙ্ঘনের দৃষ্টান্ত।
শনিবার এক বিবৃতিতে দক্ষিণ কোরিয়ার প্রেসিডেন্টের কার্যালয় উত্তর কোরিয়াকে সামরিক উত্তেজনা না বাড়ানোর আহ্বান জানিয়েছে। বলেছে, তারা চায় যুক্তরাষ্ট্র ও উত্তর কোরিয়ার মধ্যে ফের নিরস্ত্রীকরণ আলোচনা শুরু হোক।
উল্লেখ্য, এই বিষয়ে যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে উত্তর কোরিয়ার সর্বশেষ আলোচনা ব্যর্থ হয়েছে। এরপর থেকেই দেশগুলোর মধ্যে উত্তেজনা অব্যাহত রয়েছে। চলতি বছরের ফেব্রুয়ারিতে ভিয়েতনামে কোরীয় উপদ্বীপের পারমাণবিক নিরস্ত্রীকরণ নিয়ে আলোচনায় বসেছিলেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডনাল্ড  ট্রা¤প ও উত্তর কোরিয়ার নেতা কিম জং উন। তবে সমঝোতায় পৌঁছতে ব্যর্থ হন তারা। পরবর্তীতে জুন মাসে দুই কোরিয়ার মধ্যবর্তী ডিমিলিটারাইজস জোন (ডিএমজে)- এ সাক্ষাৎ হয় দুই নেতার। সেখানে তারা ফের আলোচনা শুরুর অঙ্গীকার করেন।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর