× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিপ্রবাসীদের কথাবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ঢাকা সিটি নির্বাচন- ২০২০ষোলো আনা মন ভালো করা খবর
ঢাকা, ১৯ জানুয়ারি ২০২০, রবিবার

‘ভালো সিনেমার জন্য টিম ওয়ার্ক জরুরি’

বিনোদন

কামরুজ্জামান মিলু | ২০ অক্টোবর ২০১৯, রবিবার, ৬:৪৩

অরুণা বিশ্বাস। ঢাকাই সিনেমার একজন শক্তিমান অভিনেত্রী। একশ’রও বেশি সিনেমায় অভিনয় করেছেন তিনি। বর্তমানে সবচেয়ে বেশি ব্যস্ত  আছেন সেন্সর বোর্ডের সদস্য হিসেবে কাজ করা নিয়ে। তারপরও তিনি চেষ্টা করেন সময় করে তার পেশাগত কাজ অভিনয়ে ব্যস্ত থাকতে। সেই ধারাবাহিকতায় অরুণা বিশ্বাস বর্তমানে দীপ্ত টিভি’র প্রচার চলতি ধারাবাহিক নাটক ‘ভালোবাসার আলো আঁধার’-এ অভিনয় করছেন। ধারাবাহিকটির গুরুত্বপূর্ণ একটি চরিত্রে অভিনয় করছেন তিনি। এদিকে, চলতি বছরের এপ্রিলে ‘প্রেম বিলাসি’ নামে একটি স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্রে অভিনয় করেন এ অভিনেত্রী।
এটি নির্মাণ করেন আকাশ আমিন। অন্যদিকে এ সময়ে এম রাহিম পরিচালিত ‘শান’ ছবিতে অভিনয় করছেন তিনি। এতে কাজের বিষয়ে অরুণা বিশ্বাস বলেন, ছবির পরিচালক রাহিমের বয়স কম হলেও কাজ করতে গিয়ে দেখলাম সে অত্যন্ত মেধাবী একজন নির্মাতা। এ ছবিতে সিনিয়র অভিনেতা-অভিনেত্রীদের মধ্যে আমার বাইরে চম্পা আপা, মিশা সওদাগর রয়েছেন। অভিনয় করছে সিয়াম, পূজা। অনেক ছবিতে দেখা যায়, পরিচালক বা প্রযোজকরা নায়ক-নায়িকা নিয়ে এত ব্যস্ত থাকেন যে, অন্য অভিনয়শিল্পীদের কোনো খবর রাখেন না। তাই আমার কাছে কোনো ছবির প্রস্তাব এলে এ বিষয়গুলো আমি আগে পরিষ্কার করি। শিল্পীরা সম্মান চান সব সময়। ‘শান’ ছবিটি করার সময়ও আমি এমনটিই বলেছিলাম নির্মাতা এম রাহিমকে। আর আমি দেখেছি যে, আমাদের নিয়ে ভালোভাবে কাজটি করছে ছেলেটা। তার একটা ইচ্ছে ছিল, পারিবারিক গল্প দর্শকদের দেখাবে। যেটা এখনকার সময়ে খুব বেশি দেখা যায় না। পারিবারিক গল্পের সিনেমা এখন হচ্ছে না কেন? প্রশ্নের জবাবে অরুণা বিশ্বাস বলেন, আমি সব সময় বলি যে, একটা ভালো সিনেমার জন্য টিম ওয়ার্ক খুবই জরুরি। শুধু নায়ক-নায়িকা নিলেই সিনেমা হিট হবে এটা একটা ভুল ধারণা। রাজ্জাক-শাবানা-আলমগীর যখন সুপারস্টার তখন আমরা উনাদের অভিনীত ছবিতে তাদের সন্তানের চরিত্রে অভিনয় করেছি। এরপর দর্শক আমাদের চিনেছে। নির্মাতারাও পরবর্তীতে আমাদের অভিনয় দেখে প্রধান নায়ক-নায়িকা করে সিনেমা নির্মাণ করেছেন। দর্শক পর্দায় শুধু নায়ক-নায়িকার রোমান্স দেখতে চান না। ভালো একটি গল্প দেখতে চান। বিশেষ করে, পারিবারিক গল্প দেখতে চান দর্শকরা। তিনি আরো বলেন, রোমান্স অবশ্যই পর্দায় থাকবে, তবে তা কাহিনী অনুযায়ী এবং প্রয়োজন মতো। বাস্তবের সঙ্গে পর্দায় কাহিনীর যদি কোনো মিল না থাকে তাহলে কোনো দর্শক সেই ছবি পছন্দ করবে না। দর্শকরা এখন অনেক স্মার্ট। শুক্রবার শাহ আলম মন্ডলের ‘ডনগিরি’ ছবিটি মুক্তি পায়। এ ছবিতে অরুণা বিশ্বাস অভিনয় করেছেন। এদিকে আসন্ন শিল্পী সমিতির নির্বাচনে মিশা-জায়েদ প্যানেলে কার্যকরী পরিষদের সদস্য হিসেবে প্রার্থী হয়েছেন এ অভিনেত্রী। এ প্রসঙ্গে তিনি বলেন, আমি চাই সুষ্ঠু নির্বাচন। এখানে কেউ কারো প্রতিদ্বন্দ্বী না। সমিতিতে শিল্পীদের জন্য কাজ করার মতো মানুষ খুব দরকার। আমি মৌসুমীর জন্য যেমন শুভ কামনা জানাই, ঠিক তেমনি মিশা-জায়েদ প্যানেলের জয়ও চাই। আমি কোনো ঝগড়া চাই না। আমরা সবাই বন্ধু-ভাই-বোন। সকলে মিলে একটা পরিবার। অরুণা বিশ্বাস তার নিজস্ব প্রযোজনা সংস্থা ‘যাত্রা ভিশন’ থেকে বেশকিছু নাটক নির্মাণ করেছেন। অভিনয়ের বাইরে সিনেমা পরিচালনা করারও প্রস্তুতি নিচ্ছেন তিনি। এ প্রসঙ্গে তিনি বলেন, সিনেমা পরিচালনার জন্য প্রস্তুতি নিচ্ছি। খুব শিগগিরই সবকিছু জানাবো। ভালো মানের একটি সিনেমা দর্শকদের উপহার দিতে চাই। প্রসঙ্গত, ক্যারিয়ারের শুরুতে অল্প সময়েই বেশকিছু সিনেমায় অভিনয় করে দর্শকের মন জয় করে নিয়েছিলেন অরুণা বিশ্বাস।  তার অভিনীত ‘চাপাডাঙ্গার বউ’, ‘পরশ পাথর’, ‘দুর্নাম’, ‘দংশন’, ‘ইনকিলাব’, ‘বন্ধু বেঈমান’, ‘অকৃতজ্ঞ’, ‘মায়ের দোয়া’সহ আরো বেশকিছু সিনেমা ব্যাপকভাবে দর্শকপ্রিয়তা পায়।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর