× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিপ্রবাসীদের কথাবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ঢাকা সিটি নির্বাচন- ২০২০ষোলো আনা মন ভালো করা খবর
ঢাকা, ২৬ জানুয়ারি ২০২০, রবিবার

জাতীয় রেকর্ড গড়ে রৌপ্য জিতলেন মাহফুজ

খেলা

স্পোর্টস রিপোর্টার, কাঠমান্ডু (নেপাল) থেকে | ৪ ডিসেম্বর ২০১৯, বুধবার, ৮:৫২

প্রায় চার বছর আগে এক জুনিয়র মিটে কোচ রফিকুল ইসলামের চোখে পড়েন তিনি। সেখান থেকে এই হাই জাম্পারকে তুলে এনে গড়ে তোলেন বাংলাদেশ নৌ বাহিনীর এই কোচ। কাল দশরথ স্টেডিয়ামে তারই ফল পেল বাংলাদেশ। ১৩তম এসএ গেমসের ট্র্যাক থেকে রৌপ্য কুড়ালেন মাহফুজুর রহমান। হাই জাম্পে গেমসের ইতিহাসে এটি বাংলাদেশের প্রথম পদক । এদিন স্প্রিন্টে হতাশ করেছেন দেশসেরা দুই দৌড়বিদ শিরিন আক্তার ও হাসান মিয়া। নিজেদের সেরাটা দিতে ব্যর্থ হন মোহাম্মদ ইসমাইল ও শরিফা আক্তার।

পদকের লড়াইয়ের প্রথম দিনে সোনালী হাসি হাসেন দিপু চামকা। কাল সাদদোবাতো স্পোর্টস কমপ্লেক্স থেকে যখন একের পর এক সুখবর আসছিলো, ঠিক তখন দশরথ স্টেডিয়ামে ট্র্যাকে হতাশা ছড়িয়েছেন স্প্রিন্টাররা।
আট স্প্রিন্টারের মধ্যে ১০.৭৫ সেকেন্ডে দৌড় শেষ করে ইসমাইল হোসেন পঞ্চম ও ১০.৯২ সেকেন্ড সময় নিয়ে অষ্টম হন হাসান মিয়া। লজ্জায় ফেলেছেন দুই নারী স্প্রিন্টারও। ষষ্ঠ ও সপ্তম হয়েছেন শিরিন ও শরিফা। ট্র্যাকে স্প্রিন্টাররা যখন ব্যর্থ, তখন ফিল্ডে হাই জাম্প ইভেন্টে মাহফুজ লাফান নিজের মতো করে। ভারতের দুই প্রতিযোগিতার সঙ্গে সমান তালে লড়াই করে জাতীয় পর্যায়ে নিজের গড়া রেকর্ড ভাঙেন এই জাম্পার। সর্বশেষ জাতীয় চ্যাম্পিয়নশিপে ২.১৫ উচ্চতায় লাফিয়ে মো. সজীবের (২.১০) রেকর্ড ভেঙেছিলেন মাহফুজ। আর কাল নতুন রেকর্ড গড়ার পথে ভারতের দুই প্রতিযোগী অনিল সারভিস ও চেতন বালাসাবের সঙ্গে ২.১৬ উচ্চতায় লাফিয়ে স্বর্ণ জয়ের লড়াইয়ে ছিলেন তিনি। এরপর ২.১৮ উচ্চতায় লাফাতে গিয়ে ব্যর্থ হন মাহফুজ। একই উচ্চতায় লাফাতে পারেননি অনিল সারভিসও। তবে ২.২১ উচ্চতায় লাফিয়ে সাফ রেকর্ড গড়ে স্বর্ণ জেতেন চেতন বালাসাব। বাংলাদেশের মাহফুজ ও ভারতের অনিল সারভিস সমান উচ্চতায় লাফানোর কারণে যৌথভাবে রৌপ্য জেতেন। রেকর্ড গড়ে রৌপ্য জিতে প্রতিক্রিয়া জানাতে গিয়ে মাহফুজ বলেন, আমার ভালো লাগছে জাতীয় রেকর্ড গড়ে পদক জিততে পেরেছি। আত্মবিশ্বাস ছিল একটা ভালো রেজাল্ট হবে। ভারতের দুই প্রতিযোগিতার কারণে নার্ভাস ছিলেন কিনা জানতে চাইলে মাহফুজ বলেন, ভারতে যখন জুনিয়র টুর্নামেন্টে খেলেছি, সেখানে পদক জেতার পর আমার আত্মবিশ্বাস বেড়েছে। ভারতের দুই খেলোয়াড় সর্ম্পকেও আমার ভালো ধারণা ছিল। আমার মনে হয়েছে আমি যদি আমার সেরাটা দিতে পারি তবে ওদের কাছাকাছি বা সমান লাফাতে পারবো’। ২.১৮ মিটার উচ্চতা লাফাতে গিয়ে পর পর তিন বার ব্যর্থ হওয়ার কারণ জানাতে গিয়ে রৌপ্য জয়ী এই অ্যাথলেট বলেন,  আমার টেকনিকে কিছুটা ঘাটতি আছে। যে কারণে ২.১৮ লাফাতে গিয়ে ব্যর্থ হয়েছি। সামনে ভালো ট্রেনিং পেলে আমার পারফরমেন্স আরো ভালো হবে। কোচ রফিকুল ইসলামকে কৃতজ্ঞতা জানিয়ে মাহফুজ বলেন,  খেলাধুলায় আমার অবদান রফিক স্যারের। আমি যখন জুনিয়র মিটে ১.৭০ লাফাই তখন রফিক স্যার আমাকে সেখান থেকে তুলে এনে তিলে তিলে গড়ে তুলেছেন। সেখান থেকে আমি গত এসএ গেমসের ক্যাম্পে সুযোগ পাই। গত এসএ গেমসে ২.০০ মিটার উচ্চতায় লাফিয়ে চতুর্থ হই।

আজ আসরের লং জাম্পেও  পদকের আশা করছে বাংলাদেশ। ২০১০ সালে ঢাকায় অনুষ্ঠিত গেমসে লং জাম্পে ব্রোঞ্জ জয়ী আল আমিন এই ইভেন্টে অংশ  নেবেন। আল আমিনকে নিয়ে আশার কথা জানিয়ে জাম্প কোচ রফিকুল ইসলাম বলেন, আমার প্রথম টার্গেট ছিল মাহফুজ। সেটা পূরণ হয়েছে। আজ আমি আল আমিনকে নিয়ে আশাবাদী। আশা করছি ও একটি মেডেল এনে দেবে।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর