× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিপ্রবাসীদের কথাবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবর
ঢাকা, ২৫ ফেব্রুয়ারি ২০২০, মঙ্গলবার

কোম্পানীগঞ্জে মাদ্রাসা ছাত্রীকে ধর্ষণ

বাংলারজমিন

কোম্পানীগঞ্জ (নোয়াখালী) প্রতিনিধি | ২৬ জানুয়ারি ২০২০, রবিবার, ৮:১৮

কোম্পানীগঞ্জ উপজেলার রামপুর ইউনিয়নে বিয়ের প্রলোভনে এক মাদ্রাসা ছাত্রীকে (১৮) ধর্ষণের অভিযোগে মনিরুল ইসলাম তারেক (১৮) নামের এক যুবককে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। শনিবার দুপুরে গ্রেপ্তারকৃতকে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে এবং মাদ্রাসার ছাত্রীর জবানবন্দি রেকর্ড করে তাকে ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে। গ্রেপ্তারকৃত তারেক রামপুর ইউনিয়নের ৩নং ওয়ার্ডের ওয়াতী ভূঁইয়া বাড়ির নজরুল ইসলাম প্রকাশ খান সাহেবের ছেলে। ধর্ষণের শিকার মাদ্রাসার ছাত্রীর মা বাদী হয়ে শুক্রবার রাত সাড়ে ১০টায় মনিরুল ইসলাম তারেক (১৮) ও তার সহযোগী চরকাঁকড়া ইউনিয়নের আহছান উল্যার ছেলে নাহিদ (১৯) সহ অজ্ঞাত ৩-৪ জনকে আসামি করে থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। লিখিত অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, বামনী আছিরিয়া ফাযিল মাদ্রাসার ফাজিল প্রথম বর্ষে অধ্যয়নরত ছাত্রীর সঙ্গে প্রেমের সম্পর্ক ছিল তারেকের। গত বৃহস্পতিবার ওই মাদ্রাসার ছাত্রীর নানার বাড়ি থেকে নিজবাড়ীতে আসার সময় বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে জোর করে তুলে ফেনীর একটি আবাসিক হোটেলে নিয়ে তাকে একাধিকবার ধর্ষণ করে। কোম্পানীগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোঃআরিফুল রহমান জানান, মেয়েটির পরিবারের অভিযোগের ভিত্তিতে মামলার প্রধান আসামি তারেককে গ্রেপ্তার করা হয়। মামলার অপর আসামিকে গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর