× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিপ্রবাসীদের কথাবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকরোনা আপডেট
ঢাকা, ৭ এপ্রিল ২০২০, মঙ্গলবার

মঠবাড়িয়ায় ৩ নারীকে গাছে বেঁধে বসতঘর গুঁড়িয়ে দিলো সন্ত্রাসীরা

বাংলারজমিন

মঠবাড়িয়া (পিরোজপুর) প্রতিনিধি | ২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২০, বুধবার, ৮:৫৮

পিরোজপুরের মঠবাড়িয়ার পশ্চিম পাতাকাটা গ্রামে গতকাল সকালে প্রকাশ্যে দিবালোকে বৃদ্ধাসহ তিন নারীকে গাছের সঙ্গে দড়ি দিয়ে বেঁধে বসতঘর গুঁড়িয়ে দিয়েছে প্রতিপক্ষের ভাড়াটিয়া সন্ত্রাসীরা। এসময় দেড় শতাধিক ভাড়াটিয়া সন্ত্রাসীদের দেশীয় অস্ত্রের তাণ্ডবে এলাকায় ভীতি ছড়িয়ে পড়ে। খবর পেয়ে থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে রুহুল (২৫) ও ইয়াসিন (২২) কে আটক করে।
প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার পশ্চিম পাতাকাটা গ্রামের মৃত লাল মিয়া মৃধার ছেলে আলতাফ মৃধা তার পৈত্রিক সম্পত্তিতে একখানা বসতঘর উঠিয়ে প্রায় ৩০ বছর ধরে বসবাস করে আসছিল। গত ৮/৯ বছর ধরে একই বাড়ির সাইদ মৃধা আলতাফের সীমানার মধ্যে জমি পাবে বলে দাবী করে আসছে। এ ঘটনা নিয়া উপজেলা পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান ও থানায় সালিস ব্যবস্থা চলমান আছে। স্থানীয় ইউপি সদস্য ইসমাইল হোসেন জানান, সালিস ব্যবস্থা চলমান থাকার পরেও সাইদ মৃধা ভাড়াটিয়া সন্ত্রাসীদের দিয়ে বসতঘরটি গুঁড়িয়ে দেয়। যা অমানবিক।
সন্ত্রাসীদের আঘাতে আহত বৃদ্ধা নূরুন্নাহার (৭০) জানান, ঘর ভাঙচুরের সময় ঘরে রক্ষিত নগদ টাকা, স্বর্ণালংকার, জমির দলিলপত্র, পাসপোর্ট ও মালামাল লুট করে নিয়ে যায়।  এব্যাপারে মঠবাড়িয়া থানার ইন্সপেক্টর (তদন্ত) আ. হক জানান, খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে তাৎক্ষণিকভাবে পুলিশ পাঠানো হয়েছে।
এঘটনায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর