× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতা
ঢাকা, ২৫ জানুয়ারি ২০২১, সোমবার
জমিয়ত উলেমা-এ-হিন্দের দাবি

ভারতে করোনা সংক্রমণের জন্য তাবলিগ দায়ী নয়

ভারত

কলকাতা প্রতিনিধি
(৮ মাস আগে) মে ১৬, ২০২০, শনিবার, ১০:৪৪ পূর্বাহ্ন

ভারতে করোনা সংক্রমণের দায় দিল্লির মারকাজে অনুষ্ঠিত তাবলিগ জামাতের উপর চাপিয়ে দেওয়ার চেষ্টা হয়েছে বলে অভিযোগ করেছেন বিভিন্ন মুসলিম সংগঠন। ভারতের স্বাস্থ্য মন্ত্রকের প্রতিদিনের প্রেস ব্রিফিংয়েও প্রথম দিকে পরিসংখ্যান দিয়ে বলার চেষ্টা হয়েছিল, তাবলিগ সদস্যরাই সংক্রমণের জন্য দায়ী। কিন্তু জমিয়ত উলেমা-এ-হিন্দ দাবি করেছে, বিশেষ উদ্দেশেই ভারতে করোনা সংক্রমণের দায় তাবলিগ জামাতের উপর চাপানোর চেষ্টা হয়েছে। জমিয়ত উলেমা-এ-হিন্দ তথ্য দিয়ে জানিয়েছে, দিল্লির নিজামউদ্দিন মার্কাজের ধর্মীয় সমাবেশে ৪৭ দেশ থেকে ১,৬৪০ বিদেশি তাবলিগ জামাত সদস্য এসেছিলেন। এর মধ্যে করোনা পজিটিভ মাত্র ৬৪ জন। আর ভাইরাসের সংক্রমণে মৃত্যু হয়েছে দুই জনের। বিভিন্ন দূতাবাস থেকে তথ্য সংগ্রহ করে জমিয়ত জানিয়েছে বাংলাদেশ, মালয়েশিয়া, মিয়ানমার, ইন্দোনেশিয়া, তুরস্ক, কিরগিজস্থান, কাজাখাস্তান, সুদান, সিঙ্গাপুর, দক্ষিণ আফ্রিকা, সৌদি আরব, ফিলিপাইন, রাশিয়া, শ্রীলঙ্কা, আমেরিকা. সিরিয়া, বেলজিয়াম, ব্রাজিল, অস্ট্রেলিয়া ও আফগানিস্তান থেকে জামাতিরা এসেছিলেন। জমিয়তের সভাপতি মৌলানা আরশাদ মাদানি বলেছেন, মোট বিদেশি তাবলিগ জামাত সদস্যের মধ্যে ৭৩৯ জন দিল্লিতে ছিলেন।
বাকিরা ছিলেন ভারতের অন্য রাজ্যগুলিতে। তাবলিগ জামাতের কারণে ভারতে ভাইরাস সংক্রমণ ছড়ায়নি বলে জোর গলায় দাবি করেছেন তিনি। মাদানি অভিযোগ করেছেন, করোনা সংক্রমণ নিয়ে তাবলিগ জামাতকে 'হাইলাইট' করে মুসলিমদের প্রতি একটি ঘৃণার আবহ তৈরি করা হয়েছিল। অথচ, দেশে যখন মোট করোনা আক্রান্ত ৭৮ হাজার ছাড়িয়ে গিয়েছে, তখন আর কেউ তাবলিগের পরিসংখ্যান সামনে আনছেন না। করোনার আবহে সরকারি নির্দেশ উপেক্ষা করে গত মার্চে দিল্লির নিজামউদ্দিনে দেশ-বিদেশি কয়েক হাজার সদস্যকে নিয়ে ধর্মীয় সমাবেশ করেছিল তাবলিগ জামাত। অভিযোগ, এই বিদেশি তাবলিগ সদস্যরা টুরিস্ট ভিসা নিয়ে ভারতে এসে ভিসা আইন ভঙ্গ করে সমাবেশে যোগ দিয়েছিলেন। সরকার ইতিমধ্যেই এদের বিরুদ্ধে ভিসা বাতিল করে আইনানুগ ব্যবস্থা নিতে শুরু করেছে বলে জানা গেছে।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর