× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিপ্রবাসীদের কথাবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকরোনা আপডেটকলকাতা কথকতাখোশ আমদেদ মাহে রমজান
ঢাকা, ১৫ জুলাই ২০২০, বুধবার

বেক্সিমকো থেকে রেমডেসিভির আমদানি করবে পাকিস্তান

শেষের পাতা

মানবজমিন ডেস্ক | ৩১ মে ২০২০, রবিবার, ৭:৩৪

বাংলাদেশের বেক্সিমকো ফার্মা থেকে আলোচিত ওষুধ রেমডেসিভির আমদানি করবে পাকিস্তানের একটি ওষুধ কোম্পানি। করোনা ভাইরাসের বিরুদ্ধে কার্যকারিতা দেখানো ওষুধ রেমডেসিভিরের মূল কোম্পানি গিলিয়াড সাইয়েন্সের কাছ থেকে লাইসেন্স পেয়ে পাকিস্তানে ওই ওষুধ উৎপাদন করার কথা একটি কোম্পানির। তবে এরপরও যথা সময়ে ওষুধটি উৎপাদন করতে পারছে না ওই কোম্পানি। ফলে সার্লে কোম্পানি নামে আরেক প্রতিষ্ঠান মাঝের সময়টুকুতে বাংলাদেশের বেক্সিমকোর উৎপাদিত বিশ্বের প্রথম জেনেরিক রেমডেসিভির ওষুধ আমদানি করে সংকট মেটাতে চায়। বার্তা সংস্থা রয়টার্সের এক খবরে তথ্য জানানো হয়েছে।
এতে বলা হয়, সার্লে কোম্পানি লিমিটেড নামে ওই কোম্পানি সমপ্রতি তাদের শেয়ারবাজারে এক বিবৃতিতে এই ঘোষণা দিয়েছে। প্রতিষ্ঠানটি যেইদিন এই ঘোষণা দিয়েছে, সেইদিনই পাকিস্তানে ৫৬ জন করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন। প্রতিষ্ঠানটি বলছে, বিশ্বের প্রথম জেনেরিক রেমডেসিভির উৎপাদনকারী বেক্সিমকো ফার্মার সঙ্গে এক্সক্লুসিভ লাইসেন্সিং ও বাজারজাতকরণের চুক্তি করেছে তারা।
পাকিস্তান স্টক এক্সচেঞ্জে দেয়া এক ফাইলিং-এ প্রতিষ্ঠানটি জানায়, ‘দেশের জরুরি প্রয়োজন মেটাতে সার্লে ফার্মা প্রস্তুতকৃত (ব্যবহারোপযোগী) রেমডেসিভির আমদানি করার পরিকল্পনা করছে।’ এখন পর্যন্ত করোনাভাইরাসের বিরুদ্ধে সবচেয়ে প্রতিশ্রুতিশীল ওষুধ হিসেবে বিশ্বব্যাপী নজর কেড়েছে রেমডেসিভির। যুক্তরাষ্ট্রের গিলিয়াড সাইয়েন্স এই ওষুধের মূল আবিষ্কারক।
এই মাসেই ফেরোজসন্স ফার্মা জানায়, গিলিয়াডের সঙ্গে একটি চুক্তির ভিত্তিতে এই ওষুধ পাকিস্তানে তৈরি হবে এবং ১২৭টি দেশে বিক্রি হবে। তবে প্রতিষ্ঠানটি এ-ও জানায় যে, ওষুধটি উৎপাদন হতে কয়েক সপ্তাহ লেগে যেতে পারে।
বর্তমানে পাকিস্তানে করোনাভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা ৬৪ হাজার। মারা গেছেন ১৩১৭ জন। তবে কর্তৃপক্ষ বলছে, জুন নাগাদ এই রোগ চূড়ায় পৌঁছাবে। সার্লে জানায়, বাংলাদেশ থেকে আমদানির মাধ্যমে স্বল্প মূল্যে রেমডেসিভিরের জেনেরিক সংস্করণ পাকিস্তানে বিক্রি হবে।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর