× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিপ্রবাসীদের কথাবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকরোনা আপডেটকলকাতা কথকতাখোশ আমদেদ মাহে রমজান
ঢাকা, ১৩ জুলাই ২০২০, সোমবার

এরই নাম প্রেম

বিশ্বজমিন

মানবজমিন ডেস্ক | ৪ জুন ২০২০, বৃহস্পতিবার, ৮:৩১

এরিক এবং ন্যান্সি কিংসটন। বৃটেনে যখন নেভিলে চেম্বারলেইন প্রধানমন্ত্রী তখন তারা একে অন্যের প্রেমে পড়েছিলেন। অন্ধ প্রেমে ডেটিং দিতে গিয়েছিলেন। তার দু’বছর পরে বিয়ে করে ফেলেন। তারপর একসঙ্গে কেটে গেছে ৮০ বছর। এবার ১লা জুন তারা ৮০তম বিবাহবার্ষিকী পালন করলেন। তাদের সেই প্রেম থেকে এখন পর্যন্ত বৃটেনে ১৫ জন প্রধানমন্ত্রী এসেছেন গেছেন। কিন্তু এরিক এবং ন্যান্সি একে অন্যের কাছাকাছি আছেন সেই প্রথম দিনের মতো।
ফলে তাদেরকে বৃটেনে সবচেয়ে দীর্ঘস্থায়ী দম্পতি ভাবা হচ্ছে।
১৯৩৮ সালে তাদের প্রেমের শুরু। তখন ন্যান্সির বয়স ১৮ বছর। এরিকের বয়স ১৭। তারা অন্ধ প্রেমে মেতে সমারসেটের ওয়েস্টহে গ্রামে একটি ছোট ব্রিজে গিয়েছিলেন ডেটিংয়ে। সেই শুরু। তারপর ১৯৪০ সালের ১লা জুন বিয়ের সিদ্ধান্ত নেন তারা। ন্যান্সির এখন বয়স ৯৯ বছর। এরিকের ৯৮। বিয়ের সেই দিনের কথা এখনো স্পষ্ট মনে আছে ন্যান্সির। তিনি বলেন, সেদিন আমার মাথায় ছিল নীল হ্যাট। পায়ে ছিল নীল জুতো। গায়ে ছিল হালকা নীল পোশাক। চার্চে বিয়ের আনুষ্ঠানিকতার পরে আমরা গ্রান্ডমাদারের বাড়ি গিয়েছিলাম স্যান্ডউইচ আর কেকের আমন্ত্রণে। ন্যান্সির ভেতর এখনো সেই প্রথম দিনের ভালোবাসা খুঁজে পান এরিক। তিনি বলেন, যদি পারতাম আবার সেই প্রেম, সেই বিয়ে সাজাতাম। এখনো আমরা একে অন্যের হাত ধরে রাখি। সকালে বিছানা থেকে উঠার সময় আমার কপালে চুমু পড়েছে। আমরা এখনো একে অন্যকে ভালোবাসি। সমারসেটের ওয়েডমোরের কাছে ব্লাকফোর্ডে তাদের বসতি। এ দম্পতির আছে ৫টি সন্তান। আছে ১১টি নাতিপুতি। আছে ২৮টি প্রপৌত্র। ১৪ জন প্রো-প্রোপৌত্র।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর