× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতা
ঢাকা, ৩ আগস্ট ২০২০, সোমবার

অনলাইনে পণ্য পেতে বিসিক ঐক্য একসঙ্গে

এক্সক্লুসিভ

স্টাফ রিপোর্টার | ২৫ জুন ২০২০, বৃহস্পতিবার, ৮:০০

এখন থেকে সারা দেশের ক্ষুদ্র ও মাঝারি উদ্যোক্তাদের উৎপাদিত পণ্য অনলাইনে ‘ঐক্যডটকমডটবিডি’ (www.oikko.com.bd) পাওয়া যাবে। গতকাল দুপুরে  বাংলাদেশ ক্ষুদ্র ও কুটির শিল্প করপোরেশনের (বিসিক) সঙ্গে আনুষ্ঠানিক চুক্তি স্বাক্ষরিত অনুষ্ঠানে এসব তথ্য জানানো হয়।
অনুষ্ঠানে শিল্পমন্ত্রী নুরুল মজিদ মাহমুদ হুমায়ূন বলেন, কোভিড-১৯ এর সময়ে উদ্যোক্তাদের পণ্য  কেনাবেচায় বিসিককে সঙ্গে করে ঐক্য ফাউন্ডেশন এগিয়ে এসেছে। বর্তমান অর্থনৈতিক মন্দার সময়ে এমন উদ্যোগ প্রশংসনীয়। আমরা শিল্প মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে উদ্যোক্তাদের যেকোনো সহযোগিতা করতে প্রস্তুত আছি।
বাংলাদেশ ক্ষুদ্র ও কুটির শিল্প করপোরেশনের (বিসিক) চেয়ারম্যান মো.  মোশতাক হাসান বলেন, গত ৬৩ বছর ধরে বিসিক ক্ষুদ্র, অতিক্ষুদ্র, মাঝারি উদ্যোক্তাদের নিয়ে কাজ করছে। এ সময়ের ভেতর আমরা দশ লাখ উদ্যোক্তাকে প্রশিক্ষণ দিয়েছি। দেশে বর্তমানে যতো উদ্যোক্তা আছে তার অধিকাংশরাই বিসিক থেকে প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত উদ্যোক্তা।
ঐক্য ফাউন্ডেশনের ভূয়সী প্রশংসা করে বিসিক চেয়ারম্যান বলেন, ক্ষুদ্র ও কুটির শিল্পের উদ্যোক্তারা ব্যাংক থেকে ঠিকমতো ঋণ পায় না, বিপণনের সমস্যা  থেকে যায়। সেসব উদ্যোক্তাদের নিয়ে কাজ করছে মহতী একটি কাজ করছে ঐক্য ফাউন্ডেশন।
ইতিমধ্যে তাদের তিনটি শাখাও উদ্বোধন হয়েছে। এর মাধ্যমে উদ্যোক্তাদের পণ্য বাজারজাত করছে। এই কোভিড-১৯ এ উদ্যোক্তারা ঐক্য ফাউন্ডেশনের মাধ্যমে লাভবান হচ্ছেন।
মো. মোশতাক হাসান বলেন, বিসিকের ৭৬টি শিল্প নগরীতে পণ্য বিপণন কেন্দ্র করার পরিকল্পনা নিয়েছি। পাশাপাশি একটা অনলাইন মার্কেটিং করার পরিকল্পনাও আছে। আশা করছি উদ্যোক্তা-চ্যানেল আই, ঐক্য এবং বিসিক অনলাইন মার্কেটিং নিয়ে কাজ করলে উদ্যোক্তারা লাভবান হবেন।
ঐক্য ফাউন্ডেশনের সভাপতি শাহীন আকতার রেনী বলেন, সারা দেশের উদ্যোক্তাদের সঙ্গে বিসিক আর ঐক্যবিডিডটকমের যে চুক্তি স্বাক্ষরিত হলো তা উদ্যোক্তাদের আর্থ সামাজিক উন্নয়নে ভূমিকা রাখবে।
তাৎক্ষণিক প্রতিক্রিয়ায় জাতীয় পুরস্কারপ্রাপ্ত উদ্যোক্তা  গাজী তৌহিদুর রহমান ও মাসুদা ইয়াসমিন ঊর্মি জানান, এমন উদ্যোগ সত্যিই উদ্যোক্তাদের আগামীর চলার পথে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখবে। বিপণন নিয়ে উদ্যোক্তারা যে অসুবিধার মুখোমুখি হতো তা এখন আর হবে না। তারা নির্বিঘ্নে নিজেদের পণ্য উৎপাদনে মনোযোগী হতে পারবেন।
অনুষ্ঠানটি সরাসরি চ্যানেল আইতে প্রচার করা হয়। অনুষ্ঠানটি গ্রন্থনা ও উপস্থাপনা করেন ঐক্য ফাউন্ডেশনের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি অপু মাহফুজ। অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন চামড়া ও চামড়াজাত পণ্যের উদ্যোক্তা মাকসুদা খাতুন, খাদ্য পণ্যের উদ্যোক্তা মো. মঞ্জুর আলমসহ ঐক্য ফাউন্ডেশনের কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্যরা।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর