× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতা
ঢাকা, ৪ আগস্ট ২০২০, মঙ্গলবার

ধর্ষণের হুমকি

বিনোদন

বিনোদন ডেস্ক | ১৪ জুলাই ২০২০, মঙ্গলবার, ১০:৫০

গত এক মাস ধরেই সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ক্রমাগত ধর্ষণের হুমকি পাচ্ছেন মহেশ ভাট কন্যা শাহিন ভাট এবং আলিয়া ভাট। ইনস্টাগ্রামে সেই সব হুমকিরই কয়েকটি স্ক্রিনশট শেয়ার করে ক্ষোভ উগরে দিলেন শাহিন। প্রয়োজনে আইনি পথেও হাঁটবেন তিনি... সেই হুঁশিয়ারিও দিয়ে রাখলেন।
ঘটনার সূত্রপাত গত ১৪ই জুনের পর থেকে। ১৪ই জুন বান্দ্রায় নিজের ফ্ল্যাটে গলায় ফাঁস লাগিয়ে আত্মঘাতী হন অভিনেতা সুশান্ত সিং রাজপুত। সুশান্তের মৃত্যুর সূত্র ধরে বলিউডের নেপোটিজম তত্ত্ব হঠাৎ করেই সামনে এসে যায়। আলিয়ার প্রতি করণের পক্ষপাতিত্ব, সুশান্তের গার্লফ্রেন্ডের সঙ্গে মহেশ ভাটের বিশেষ বন্ধুত্বের বিষয়ে ক্ষুব্ধ হয়ে ওঠেন নেটাগরিকদের একাংশ।
এর পরেই ইনস্টাগ্রাম সহ সমস্ত সোশ্যাল মিডিয়ায় আলিয়া-করণ-মহেশ সহ স্টারকিডদের উপর নেমে আসে জনতার ভার্চুয়াল আক্রমণ। আলিয়া এবং শাহিনকেও কদর্য ভাষায় আক্রমণ করা হয়, দেওয়া হয় ধর্ষণের হুমকি।
আলিয়া চুপ করে থাকলেও, মুখ খুলেছেন শাহিন। তিনি লেখেন, ভারতে প্রতি ১৫ মিনিটে একজন মহিলা ধর্ষিত হন।
৭০ শতাংশ মহিলা গার্হস্থ্য হিংসার শিকার। সেখানে আমাদের উপর এরকম আক্রমণে আপনি বিস্মিত? আমি নই। এখানেই থামেননি শাহিন। যারা ওই সব মেসেজ পাঠাচ্ছেন তাদের উদ্দেশে শাহিনের বক্তব্য, এর পরেও যদি এ রকম মেসেজ আমি পাই, তা হলে সবার আগে সেই ব্যক্তিকে ব্লক করে ইনস্টা কর্তৃপক্ষকে রিপোর্ট করব। প্রয়োজনে সেই ব্যক্তির নামও প্রকাশ্যে আনব। আইপি অ্যাড্রেস ট্র্যাক করা কিন্তু কঠিন কিছু নয়। আইনি পথে হাঁটব আমি।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর