× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতা
ঢাকা, ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২০, বৃহস্পতিবার

সিলেটের চার হাজার আবুধাবি প্রবাসী শঙ্কায়

বাংলারজমিন

স্টাফ রিপোর্টার, সিলেট থেকে | ১৪ আগস্ট ২০২০, শুক্রবার, ৮:১৯

করোনার আগে ছুটি কাটাতে দেশে এসেছিলেন প্রায় ৪ হাজার আবুধাবি প্রবাসী। আসার পরপরই শুরু হয় করোনাকাল। এ কারণে তারা আটকা পড়েন সিলেটে। অনেকেরই ছুটির  মেয়াদ শেষ হলেও অনুমতি না থাকায় তারা যেতে পারেননি। এখন আবুধাবি সরকার তাদের শর্ত শিথিল করলেও বিমানের টিকিট সংকটের কারণে ওইসব প্রবাসীরা কর্মস্থল আবুধাবিতে ফিরতে পারছেন না। এ নিয়ে বিমান বাংলাদেশ সিলেটের কার্যালয়ের সামনে তারা প্রতিদিনই টিকিটের জন্য ভিড় করছেন। একই সঙ্গে টিকিটের জন্য করেছেন বিক্ষোভও। এদিকে- বিমানের আবুধাবি ফ্লাইটে পুরো আগস্ট মাসের টিকিট বিক্রি হয়ে গেছে।
এ কারনে টিকিটের জন্য হন্য হয়ে ঘুরলেও টিকিট পাচ্ছে না আবুধাবি প্রবাসীরা। সিলেটে আটকা পড়া দুবাই প্রবাসীরা জানিয়েছেন- আবুধাবি সরকারের অনুমতি নিয়ে গত ৪ঠা জুলাই থেকে সেখানে যাওয়া শুরু করেন প্রবাসীরা। সেখানকার বিভিন্ন কোম্পানী যেসব শ্রমিকদের যাওয়ার অনুমতি দিয়েছিলো তারাই কেবল যেতে পারছিলেন। কিন্তু গত ১১ই আগস্ট সেই আদেশ তুলে নিয়েছে সে দেশের সরকার। এখন আটকা পড়া শ্রমিকদের কাজে ফেরার অনুমতি দিয়েছে। আর এই ঘোষণায় সিলেটে আটকা পড়া প্রায় ৪ হাজার আবুধাবি প্রবাসে কর্মস্থলে ফেরার জন্য ব্যাকুল হয়ে উঠেছেন। এর কারন- এমনিতেই তাদের ছুটির মেয়াদ অনেক আগেই শেষ হয়ে গেছে। ভিসার মেয়াদ থাকার কারনে তারা দ্রুততম সময়ে ফিরতে চান। এর মধ্যে ভিসার মেয়াদ শেষ হয়ে গেলে তারা নতুন করে জটিলতায় পড়বে। এই আশঙ্কায় সিলেটের বিমান অফিসে প্রতিদিন টিকিটের জন্য ছুটে আসছেন প্রবাসীরা। কিন্তু তারা টিকিট পাচ্ছেন না। বুধবার ও আগের দিন মঙ্গলবার টিকেটের জন্য কয়েক হাজার প্রবাসী বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের সিলেট অফিসে যান। কিন্তু ইতোমধ্যে ৩০ আগস্ট পর্যন্ত বিমানের সকল ফ্লাইটের টিকেট বুকিং হয়ে যাওয়ায় সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা যাত্রীদের কাছে অসহায়ত্ব প্রকাশ করেন। এই অবস্থায় বুধবার দুপুরে শতাধিক আবুধাবি প্রবাসী বিমান অফিসের সামনে আম্বরখানা-বিমানবন্দর সড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ শুরু করে। ঘন্টাখানেক পরে পুলিশ এসে তাদেরকে শান্ত করে সড়ক দিয়ে যান চলাচল স্বাভাবিক করে। রাজনগরের রায়হান আহমদ নামের এক আবুধাবী প্রবাসী জানিয়েছেন- চলতি মাসের মধ্যে তিনি আবুধাবি ফিরে যেতে না পারলে ভিসার মেয়াদ শেষ হয়ে যাবে। কিন্তু তিনি বিমানের টিকিট পাচ্ছেন না। যদি টিকিটের অভাবে তিনি ফিরতে না পারেন তাহলে তার ভিসার মেয়াদ যাবে, চাকরিও থাকবে না। তার মতো আরো কয়েক জন প্রবাসী একই কথা জানান। তারা বলেন- সাধারণ ছুটি কাটিয়ে ফিরে গেলে ভিসার মেয়াদ বাড়ানো হয়। এ কারণে অনেকেই বিপদে পড়েছেন। আর এই বিপদ থেকে উদ্ধার করতে পারে বাংলাদেশ বিমান। তারা দেশের কথা, মানুষের কথা চিন্তা করে ফ্লাইট বাড়ালে টিকিট সংকট থাকবে না। বিমানের সিলেটের শাহনেওয়াজ মজুমদার গণমাধ্যমকে জানিয়েছেন- সপ্তাহে দুবাইয়ে পাঁচটি ও আবুধাবিতে বিমানের দু’টি ফ্লাইট যাচ্ছে। দুবাই ফ্লাইটের টিকিটের কোন সমস্যা নেই।
 কিন্তু আবুধাবিতে ফ্লাইট কম হওয়ায় ৩০শে আগস্ট পর্যন্ত সকল টিকিট বিক্রি হয়ে গেছে। যারা টিকিটের জন্য আসছেন তাদের কাছ থেকে প্রয়োজনীয় কাগজ রাখা হয়েছে। সিট খালি হলেই ক্রমান্বয়ে তাদেরকে সুযোগ দেয়া হবে।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর