× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতা
ঢাকা, ৩০ অক্টোবর ২০২০, শুক্রবার

উই এর এন্ট্রারপ্রেনার মাস্টারক্লাস এর ৩য় পর্ব অনুষ্ঠিত

অনলাইন

স্টাফ রিপোর্টার | ২১ সেপ্টেম্বর ২০২০, সোমবার, ৭:১৪

দেশীয় নারী উদ্যোক্তাদের সবচেয়ে বড় প্লাটফর্ম উইমেন এন্ড ই কমার্স ফোরাম (উই)।  প্রতিষ্ঠানটির বর্তমান গ্রুপের সদস্য সংখ্যা প্রায় দশলাখ ছুইছুই।
সংগঠনটি গত জুলাই থেকে প্রতি মাসে একটি করে সেশন করছে আন্তর্জাতিক প্লাটফর্মগুলোর নানা গুনী ট্রেইনার/উদ্যোক্তাদের অতিথি করে। উই এর উপদেষ্টা সৌম্য বসুর জনপ্রিয় ট্রেনিং মডেল এটি।
২০শে সেপ্টেম্বর উই এর মাস্টারক্লাসের উদ্বোধন করেন এলআইসিটি প্রজেক্ট ডিরেক্টর রেজাউল করিম। তিনি বলেন, "আইসিটি ডিভিশন নারী উদ্যোক্তাদের দক্ষতা উন্নয়নকে প্রাধান্য দেয়৷ উই এর কার্যক্রমকে আমি সাধুবাদ জানাই।" এসময় আরো বক্তব্য দেন এলআইসিটি প্রজেক্টের উপদেষ্টা সামী আহমেদ, উই এর উপদেষ্টা ও সার্চ ইংলিশের প্রতিষ্ঠাতা রাজিব আহমেদ,  গ্লোবাল সিল্কক লিমিটেডের সিইও সৌম্য বসু, উই এর উপদেষ্টা জাহানুর কবির সাকিব।
ট্রেইনার হিসেবে জুমের মাধ্যমে যুক্ত হন ইও কাওয়ালী লিমিটেডের সিইও এবং কো-ফাউন্ডার জেমস থিকেট, ইউকের এসএমএস মাইক্রোসিস্টেম লিমিটেডের ডিরেক্টর শারদ কুমার।
সেশনটিতে তারা দুজন সারা পৃথিবীর উদ্যোক্তাদের ব্যবসায়ের পরিবর্তনের সাথে তাল মিলিয়ে নেয়াসহ কিছু প্রেক্ষাপটে আলোচনা করেন।
শারদ কুমার বলেন, "আমি সত্যিই গর্বিত এমন অদম্য গতিতে বাংলাদেশ এগিয়ে যাচ্ছে  দেখে।"
৫০০ জনের মত প্রশিক্ষনার্থীর এই সেশনের পর এটি বাংলায় উই গ্রুপে সবার জন্য উন্মুক্ত সেশন হয়। সেখানে সেশন নেন থট এর চেয়ারম্যান মাহবুবুল আলম।
উই এর প্রতিষ্ঠাতা নাছিমা আক্তার নিশা বলেন," উই এখন দেশের নারী উদ্যোক্তাদের প্রানের জায়গা। আমরা দেশজুড়ে নানা প্রান্তিক এলাকার উদ্যোক্তাদেরও কাছে পৌঁছাতে পেরেছি। আমাদের উদ্যোক্তাদের জন্য এমন সেশন করতে পারাটা আমার জন্যেও অনেক আনন্দের।"
আয়োজনটি প্রতি মাসে একবার উই এর আয়োজনে,  আইসিটি মন্ত্রনালয়ের সহায়তায় অনুষ্ঠিত হবে।।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর