× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতা
ঢাকা, ২০ অক্টোবর ২০২০, মঙ্গলবার
আলাপন

ভিউয়ের ইঁদুর দৌড় থেকে নিজেকে প্রত্যাহার করে নিয়েছি

বিনোদন

ফয়সাল রাব্বিকীন | ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২০, শুক্রবার, ৯:২৪

জনপ্রিয় সংগীতশিল্পী আসিফ আকবর। নিজের দীর্ঘ ক্যারিয়ারে অসংখ্য জনপ্রিয় গান উপহার দিয়েছেন। করোনার এই সময়েও গানে ভীষণ ব্যস্ত এ তারকা। তবে এখন বেশ বেছে কাজ করছেন। ভালো কথা-সুরের গানে মনোযোগী হয়েছেন তিনি। পাশাপাশি মিউজিক ভিডিও করাও কমিয়ে দিয়েছেন। গত কিছুদিনে ওপার বাংলার কবীর সুমনের কথা-সুরে ৮টি গানে কন্ঠ দিয়েছেন আসিফ। এরমধ্যে কিছু গান প্রকাশ হয়ে প্রশংসিত হয়েছে বেশ।
সামনে আরো নতুন গান প্রকাশ হবে কবীর সুমন-আসিফের। এদিকে এর বাইরেও কমপক্ষে নতুন ২ ডজন গান নিয়ে ব্যস্ত সময় পার করছেন এ তারকা। চলতি সময় নিজের কাজ নিয়ে তিনি বলেন, যেহেতু পেশা, তাই বানিজ্যিক গান গাইতে হয়। পেশার কারনে মিউজিক ভিডিও করতে বাধ্য হয়েছি। এমন কিছু গান গেয়েছি যেগুলো গাইতে মন সায় দেয়নি। অনেকের রিযিক জড়িত, পাশাপাশি কোম্পানীর অনুগতও থেকেছি। নতুন সব প্রযোজনা প্রতিষ্ঠানের অভিষেক হয়েছে আমার গান দিয়ে। প্রতিষ্ঠিত শিল্পীরা সাধারনত এ ধরনের ঝুঁকি নিতে চায় না। অনুরোধের আসর চাওয়া পাওয়ার আরেক নাম ছিল আসিফ। শেষ পর্যন্ত কঠিন থাকতে পারিনি। বিশেষ করে জুনিয়রদের সঙ্গে কাজ করতে গিয়ে মাঝে মধ্যে ঢেঁকি গিলতে হয়েছে, তবে তারা আমাকে নিরাশ করেনি। মিউজিক ভিডিওতে কাজ করা প্রসঙ্গে আসিফ বলেন, মিউজিক ভিডিওর যুগ আসার পর আমি আরো একধাপ এগিয়ে নায়ক হয়ে গেছি। ভিউয়ের পিছনে ছোট ইন্ডাষ্ট্রীতে আমিও ছিলাম বাজীর ঘোড়া। টানা তিনবছর দিনরাত  শুটিং করে এখন ঘুম হয়ে গেছে মরিচীকা। করোনা আসার আগেই মিউজিক ভিডিওর লাইন  থেকে নিজেকে অনেকটা গুটিয়ে নিয়েছি। তারপর প্রচুর কাজ এসেছে ভিডিও করার শর্তে, সিদ্ধান্ত বদলাইনি। আমার আগডুম বাগডুম দু’তিনটা গান রিলিজের অপেক্ষায় আছে, যেগুলো অনেক আগে গাওয়া। নতুন গান প্রসঙ্গে নিজের সিদ্ধান্তের কথা জানাতে গিয়ে আসিফ বলেন, এখন বেঁছে কাজ করছি। স্বাভাবিক ভাবেই আমার কাজ কমেছে সত্তর শতাংশ। কিছু প্রডিউসার এখনো আমার গানই চান। তবে শর্ত একটাই, শুটিংয়ে সঙ্গে থাকবেন শুধু প্রাপ্তবয়স্ক গায়িকা। কঠিন সিদ্ধান্তটা নিতে হয়েছে নিজের বয়স এবং ম্যাচিওরিটি বিবেচনায়। ষ্টুডিও ভার্সন আর লিরিক ভিডিওতে নিজেকে সীমাবদ্ধ করে ফেলেছি। অনেক প্রতিকূলতা ফেস করতে হবে  জেনেও ভিউয়ের ইঁদুর দৌড় থেকে নিজেকে প্রত্যাহার করে নিয়েছি। সামনের দিনগুলোতে ভাল কথা-সুরের অনেক গান করতে চাই।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর