× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতা
ঢাকা, ২৪ নভেম্বর ২০২০, মঙ্গলবার
রূপপুরের বালিশকাণ্ড

৬ মাসে তদন্ত শেষ করার নির্দেশ

অনলাইন

স্টাফ রিপোর্টার | ১৯ অক্টোবর ২০২০, সোমবার, ৬:৪১

স্টাফ রিপোর্টার: পাবনার রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্র প্রকল্পে নির্মাণাধীন ভবনের জন্য মালামাল কেনা সংক্রান্ত দুর্নীতির চার মামলার তদন্তকাজ ছয় মাসের মধ্যে শেষ করতে নির্দেশ দিয়েছে হাইকোর্ট। সোমবার বিচারপতি মো. নজরুল ইসলাম তালুকদার ও বিচারপতি আহমেদ সোহেলের ভার্চ্যুয়াল হাইকোর্ট বেঞ্চ এ আদেশ দেন। এ ছাড়া, আদালত ওই তিন মামলায় ঠিকাদার মো. শফিকুল ইসলামের জামিন আবেদন ছয় মাসের জন্য (স্ট্যান্ডওভার) মুলতবি  রেখেছেন।
আদালতে আসামি পক্ষে ছিলেন আইনজীবী সাঈদ আহমেদ রাজা। দুদকের পক্ষে ছিলেন আইনজীবী মো. খুরশিদ আলম খান। রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল এ কে এম আমিন উদ্দিন মানিক ও সহকারী অ্যাটর্নি জেনারেল মাহজাবিন রাব্বানী দীপা। খুরশিদ আলম সাংবাদিকদের বলেন, আদালত জারি করা রুল স্ট্যান্ডওভার (মুলতবি) রেখে মামলার তদন্তকাজ শেষ করতে দুদককে নির্দেশ দিয়েছেন।
পাবনার ঈশ্বরদী উপজেলার রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎ প্রকল্পে আবাসিক ভবনে (গ্রিন সিটি) আসবাবপত্র সরবরাহে অস্বাভাবিক দাম ধরে দুর্নীতি ও কেনাকাটায় অনিয়ম করা হয় বলে অভিযোগ ওঠে।
সেখানে একটি বালিশের পেছনে ৬ হাজার ৭১৭ টাকা ব্যয় দেখানোর খবর গণমাধ্যমে আসায় এটা ‘বালিশ দুর্নীতি’ হিসেবে পরিচয় পায়। এ বিষয়ে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক) ২০১৯ সালের ১৩ই ডিসেম্বর ৩১ কোটি ২৪ লাখ টাকা আত্মসাতের দায়ে ১৩ জনের বিরুদ্ধে চারটি মামলা করে।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
পাঠকের মতামত
**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।
No Name
২০ অক্টোবর ২০২০, মঙ্গলবার, ৩:১৭

Please give them another 60 Months/ Hope we will have a new Rup Pur Plant

অন্যান্য খবর