× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতা
ঢাকা, ২৫ নভেম্বর ২০২০, বুধবার

দ্বিধায় জলি

বিনোদন

স্টাফ রিপোর্টার | ২২ অক্টোবর ২০২০, বৃহস্পতিবার, ৮:০৫

২০১৫ সালে জাজ মাল্টিমিডিয়ার নায়িকা হয়ে সিনেমায় যাত্রা শুরু করেন জলি। একে একে ‘অঙ্গার’, ‘নিয়তি’ ও ‘মেয়েটি এখন কোথায় যাবে’ ছবিতে অভিনয় করেন। দর্শকদের কাছেও পরিচিতি পাওয়া শুরু করেছিলেন। তবে ক্যারিয়ারটাকে যখন গোছাতে শুরু করলেন ঠিক তখন থেকেই হঠাৎই যেন আড়ালে চলে যান তিনি। অনেক দিন ধরেই নতুন কোনো সিনেমার খবরে কিংবা শুটিংয়ে দেখা মিলছে না জলির। খোঁজ নিয়ে জানা যায়, জলির ধ্যান জ্ঞান সবই এখন স্বামী-সংসার নিয়ে। সংসারের ব্যস্ততার কারণেই সিনেমা সংশ্লিষ্ট কোনো কাজে তাকে পাওয়া যাচ্ছে না। মানবজমিনের সঙ্গে আলাপে জলি বলেন, সংসার নিয়েই ব্যস্ত আছি।
আসলে শ্বশুরবাড়ির লোকজন চায় না আমি সিনেমায় কাজ করি। সংসার একটা ভিন্ন জগৎ উল্লেখ করে জলি আরো বলেন, সিনেমা আর সংসার দুইটা ভিন্ন জগৎ। ছোটবেলা থেকেই পরিবারকে গুরুত্ব দেই। পরিবারের মানুষরা চাচ্ছেন না সিনেমায় আর কাজ না করি। তাই তাদের সিদ্ধান্তকে সম্মান জানাচ্ছি। কারণ আমার কাছে, পরিবারের গুরুত্ব অনেক। তাহলে কি জলিকে আর রুপালি পর্দার ঝলমলে আলোতে দেখা যাবে না? উত্তরে জলি বলেন, আপাতত তেমনটা ভাবছি না। সিনেমা একেবারে ছেড়ে দিবো কিনা সে সিদ্ধান্তও নেইনি। দ্বিধায় আছি। সময় ও পরিস্থিতি অনুযায়ী সিদ্ধান্ত নিবো। বিরতি নিলেও সহকর্মীদের সঙ্গে নিয়মিত যোগাযোগ আছে জলির। তিনি বলেন, কাজ করি আর না করি সবাই আমার শুভাকাঙ্ক্ষী। শুটিং সেটের ব্যস্ততা, কোলাহল, আড্ডা সবই মিস করছি। ক্যারিয়ার নিয়ে সন্তুষ্টি প্রকাশ করে জলি বলেন, আমার ক্যারিয়ারটা অল্প সময়ের। তবে অনেক মানুষের ভালোবাসা, সাপোর্ট পেয়েছি। সেগুলো কখনো ভুলবো না। সবার কাছে কৃতজ্ঞ থাকবো আজীবন। এদিকে, সিনেমা ছেড়ে দেয়া নিয়ে দ্বিধায় থাকলেও হাতে থাকা কাজগুলো শেষ করবেন বলে জানান এই নায়িকা। জলি বলেন, শিল্পী হিসেবে আমার দায়বদ্ধতা আছে। অসমাপ্ত কাজগুলো অন্ত্তত শেষ করবো। জলির ‘অফিসার রিটার্নস’ ও ‘ডেঞ্জার জোন’ নামের দুুটি ছবি নির্মাণাধীন। এ ব্যাপারে তিনি বলেন, এগুলোর কাজ সুন্দরভাবেই শেষ করবো। এগুলো মুক্তির পরই সিনেমার ক্যারিয়ার নিয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেবো।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর