× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতা
ঢাকা, ২৫ নভেম্বর ২০২০, বুধবার

সাভারে দুর্বৃত্তদের ছুরিকাঘাতে স্কুল কর্মকর্তার মৃত্যু

বাংলারজমিন

স্টাফ রিপোর্টার, সাভার থেকে | ২৫ অক্টোবর ২০২০, রবিবার, ৮:৩০

 সাভারে একটি শাখা সড়ক থেকে দুর্বৃত্তদের ছুরিকাঘাতে নিহত স্কুল কর্মকর্তার রক্তাক্ত মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। গতকাল সকালে সাভার পৌর এলাকার সিআরপি সড়কের পাশ থেকে তার মৃতদেহটি উদ্ধার করে সাভার মডেল থানা পুলিশ। নিহত মোস্তাফিজুর রহমান (৩০) রাজশাহী জেলার দুর্গাপুর থানার নওয়াপাড়া গ্রামের মজিবুর রহমানের ছেলে। সে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক শিক্ষার্থী এবং ফিলোসপি বিভাগ থেকে ২০১৯ সালে স্নাতকোত্তর শেষ করেছেন। বর্তমানে তিনি সাভারের ডগরমোড়া এলাকায় ভাড়া বাড়িতে থেকে তার বন্ধুর সঙ্গে পার্শ্ববর্তী কমলাপুর এলাকার গ্লোরিয়াস ইন্টারন্যাশনাল স্কুল অ্যান্ড কলেজে প্রশাসনিক কর্মকর্তা হিসেবে কাজ করছিলেন। পুলিশ জানায়, সড়কের পাশে ওই যুবকের রক্তাক্ত মরদেহ দেখতে পেয়ে ‘৯৯৯’-এ ফোন করে জানায় পথচারীরা। পরে ঘটনাস্থল থেকে নিহতের মরদেহটি উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য ঢাকার সোহরাওয়ার্দী হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। নিহতের বুকে গভীর ছুরিকাঘাতের চিহ্ন রয়েছে।
প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে ছিনতাইকারীর ছুরিকাঘাতে তার মৃত্যু হয়েছে। গ্লোরিয়াস ইন্টারন্যাশনাল স্কুল অ্যান্ড কলেজের অধ্যক্ষ জুবায়ের হাসান বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, মোস্তাফিজুর গত এক বছর ধরে এই শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে প্রশাসনিক কর্মকর্তা হিসেবে কাজ করছেন। তার মৃত্যুর বিষয়টি জেনে পরিবারের সঙ্গে যোগাযোগ করেছি এবং এ বিষয়ে
প্রয়োজনীয় আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে জানান। নিহত মোস্তাফিজুর রহমানের বন্ধু ও সহকর্মী আজিজ হোসেন জানান, নিহত মুস্তাফিজুর রহমান গত বুধবার ছুটি নিয়ে গ্রামের বাড়ি রাজশাহী যান। শনিবার তার ছুটি শেষে কর্মস্থলে যোগদানের কথা ছিল।
 একারণে গ্রামের বাড়ি থেকে সে সাভারে এসেছিলো। স্থানীয়দের অভিযোগ ওই স্থানে প্রায়ই ছিনতাই হয়। তাদের ধারণা দূরপাল্লার বাস থেকে নামার পর ছিনতাইকারীর কবলে পড়ে সে। পরে তাকে ছুরিকাঘাতে হত্যার পর কেড়ে নেয়া হয় সঙ্গে থাকা নগদ টাকাসহ মূল্যবান মালামাল। সাভার মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এএফএম সায়েদ বলেন, ‘৯৯৯’ থেকে খবর পাওয়ার পর ঘটনাস্থল থেকে নিহতের মরদেহটি উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য ঢাকার সোহরাওয়ার্দী হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। নিহতের বুকে, গলায় আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। এ ঘটনায় জড়িত ছিনতাইকারীদের গ্রেপ্তারে পুলিশের একাধিক টিম কাজ করছে।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর