× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতা
ঢাকা, ৩০ নভেম্বর ২০২০, সোমবার

টেকনাফে মাদক বিক্রির ১৬ লাখ ১৩ হাজার টাকা ও ৫৫ হাজার ৮০০ ইয়াবা উদ্ধার

বাংলারজমিন

টেকনাফ (কক্সবাজার) প্রতিনিধি | ২৬ অক্টোবর ২০২০, সোমবার, ৮:৩৪

টেকনাফে মাদক বিক্রির ১৬ লাখ ১৩ হাজার টাকা ও ৫৫ হাজার ৮০০ ইয়াবাসহ দু’মাদক কারবারিকে আটক আইনশৃঙ্খলা বাহিনী। আটক ব্যক্তি হচ্ছে সাবরাংয়ের নবী হোসেন (৩৫) ও সাতকানিয়ার মো. শফিউল আলম (২৪)।
সূত্রে জানা যায়, কক্সবাজারের র‌্যাব-১৫ এর সদস্যরা উপজেলার বিজিবি উনচিপ্রাং সীমান্ত ফাঁড়ি সংলগ্ন এলাকায় গোপন সংবাদের ভিত্তিতে র‌্যাবের সহকারী পরিচালক (মিডিয়া) ও সহকারী পুলিশ সুপার আবদুল্লাহ মোহাম্মদ শেখ সাদী জানিয়েছেন, পাচারকারীরা পাকা রাস্তার ওপর ইয়াবা ট্যাবলেট ক্রয়-বিক্রয়ের খবর পেয়ে র‌্যাব সদস্যরা সেখানে অভিযান পরিচালনা করে। র‌্যাব সদস্যদের উপস্থিতি টের পেয়ে পাচারকারীরা পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করে। এ সময় র‌্যাব সদস্যরা ধাওয়া করে টেকনাফের সাবরাং ইউনিয়নের সিকদার পাড়া এলাকার মৃত জহির আহাম্মদের ছেলে নবী হোছেনকে (৩৫) আটক করে।
পরবর্তীতে উপস্থিত সাক্ষীদের সামনে আসামির হাতে থাকা পলিথিন ব্যাগ তল্লাশি করে ৪৫ হাজার ৮০০ পিস ইয়াবা উদ্ধার করা হয়। র‌্যাবের জিজ্ঞাসাবাদে পাচারকারী স্বীকার করেন, সে দীর্ঘদিন যাবৎ কক্সবাজার জেলার টেকনাফ সীমান্তবর্তী এলাকা থেকে মাদকদ্রব্য ইয়াবা সংগ্রহ করে কক্সবাজারসহ দেশের বিভিন্ন জায়গায় বিক্রয় করে আসছেন।  
স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, সাবরাং ইউনিয়নের মাদক পাচারকারীদের শক্তিশালী সিন্ডিকেট রয়েছে। দীর্ঘদিন ধরে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর চোখ ফাঁকি দিয়ে বিভিন্ন কৌশলে ইয়াবা পাচার করে আসছিল।
একাধিকবার তাদের সিন্ডিকেটের বিরুদ্ধে ইয়াবা পাচারের সংবাদ প্রকাশিত হলে সংশ্লিষ্ট পরিবারের সদস্যরা মিথ্যা ও ষড়যন্ত্র বলে দাবি করলেও অবশেষে র‌্যাবের হাতে ধরা পড়ে তাদের সেই মুখোশ উন্মোচিত হলো। নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক কয়েকজন জানান, তার পুরো পরিবার ইয়াবা পাচারের সঙ্গে জড়িত হলেও তাদেরকে সাধু দাবি করে তাদের বিরুদ্ধে প্রকাশিত সংবাদ মিথ্যা ও ষড়যন্ত্র বলে দাবি করে চ্যালেঞ্জও দিয়েছে। এখন নবী হোসাইন ইয়াবাসহ আটক হলো এখন কি সে অস্বীকার করতে পারবে ?।  
অপরদিকে গত ২৪শে আগস্ট রাত সাড়ে ৮টার দিকে টেকনাফ ২ বিজিবি ব্যাটালিয়নের বাহারছড়া হাজম পাড়ার অস্থায়ী চেকপোস্টের দায়িত্বরত জওয়ানেরা কক্সবাজারগামী একটি মিনি ট্রাক (চট্টমেট্রো-ন-১১-৬৭২৬) তল্লাশি করে গাড়ির সামনের দরজায় অভিনব কায়দায় ফিটিং অবস্থায় ১০ হাজার ইয়াবা উদ্ধার করা হয়। এ সময় মাদক বহনে ব্যবহৃত মিনি ট্রাকটি জব্দ করে চালক সাতকানিয়ার কেরানী হাট কেউছিয়ার মৃত জহিরুল ইসলামের পুত্র মো. শফিউল আলম (২৪) কে আটক করে।
এই ব্যাপারে সংশি¬ষ্ট আইনে মামলা দায়েরের পর জব্দকৃত মাদক ও মিনি ট্রাকসহ ধৃত মাদক কারবারিকে নিয়মিত মামলায় টেকনাফ মডেল থানায় সোপর্দ করা হয়েছে বলে টেকনাফ ২ বিজিবি ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক লে. কর্নেল মোহাম্মদ ফয়সল হাসান খান (পিএসসি) নিশ্চিত করেন।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর